ফিজিওথেরাপি সেবা বাড়াতে হবে প্রত্যন্ত অঞ্চলে :ডেপুটি স্পিকার
জাতীয় সংসদের ডেপুটি স্পিকার মো. ফজলে রাব্বী মিয়া বলেছেন, স্ট্রোক পরকর্তী পুনর্বাসন চিকিৎসাসেবার ক্ষেত্রে ফিজিওথেরাপির বিকল্প নেই। কিন্তু স্বাস্থ্য বিভাগে ফিজিওথেরাপির বিষয়ে সচেতনতা কম। এ ধরনের চিকিৎসা পদ্ধতির উন্নয়ন ও প্রসারের জন্য স্বাস্থ্য বিভাগের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন ডেপুটি স্পিকার। শুক্রবার রাজধানীর আগারগাঁওয়ে এলজিইডি মিলনায়তনে বাংলাদেশ ফিজিওথেরাপি অ্যাসোসিয়েশন (বিপিএ) আয়োজিত ফিজিওথেরাপি ও পুনর্বাসন চিকিৎসায় তথ্যপ্রযুক্তির গুরুত্ব শীর্ষক সেমিনারের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় তিনি এসব কথা বলেন। এর আগে তিনি বাংলাদেশ ফিজিওথেরাপি অ্যাসোসিয়েশনের ডাটাবেজ উদ্বোধন করেন। ডেপুটি স্পিকার বলেন, ফিজিওথেরাপির মাধ্যমে চিকিৎসাসেবা শুধু রাজধানী ও অন্যান্য বড় শহর কেন্দ্রিক হলে চলবে না। প্রত্যন্ত অঞ্চলে এ ধরণের চিকিৎসা সেবার ক্ষেত্র আরও বেশি সম্প্রসারিত করতে হবে। ফিজিওথেরাপিস্টদের উদ্দেশ্যে তিনি বলেন, আপনারা স্ট্রোক পরবর্তী পুনর্বাসন চিকিৎসার মাধ্যমে মানবসেবার উজ্জ্বল দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছেন। কিন্তু শুধু বিত্তবানদের এ সেবা দিলে চলবে না। দেশের দরিদ্র ও অসহায় জনগোষ্ঠীর জন্যও আপনাদের সেবার ক্ষেত্র সম্প্রসারিত করতে হবে। অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি সহযোগী অধ্যাপক নাসিরুল ইসলামের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে অধ্যাপক ডা. গোলাম রাব্বানীসহ অন্যান্যেরা বক্তব্য রাখেন।
সব দলের অংশগ্রহণে হবে আগামী নির্বাচন: সিইসি
প্রধান নির্বাচন কমিশনার (সিইসি) কেএম নুরুল হুদা বলেছেন, আগামী একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন সব দলের অংশগ্রহণে অনুষ্ঠিত হবে। এ লক্ষ্যে নির্বাচন কমিশন কাজ করে যাচ্ছে। আমি আশা রাখছি, সব দল নির্বাচনে অংশ নেবে। শুক্রবার সকালে দুর্গাপুর উপজেলা প্রশাসন আয়োজিত মতবিনিময় সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। তিনি আরও বলেন, নির্বাচন যাতে অবাধ, সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ হয় সেক্ষেত্রেও প্রস্তুতি নিচ্ছে নির্বাচন কমিশন। স্মার্টকার্ড বিষয়ে সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে প্রধান নির্বাচন কমিশনার বলেন, স্মার্টকার্ড সুন্দরভাবে ছাপানো হচ্ছে। এ কাজে অনিয়ম করায় ইতিমধ্যে একটি প্রতিষ্ঠানের সঙ্গে চুক্তি বাতিল করা হয়েছে। পর্যায়ক্রমে দেশের সব নাগরিকের হাতে স্মার্ট জাতীয় পরিচয়পত্র তুলে দেয়া হবে। উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা আনোয়ার সাদাতের সঞ্চালনায় উপজেলা পরিষদের সভাকক্ষে জনপ্রতিনিধি, সরকারি কর্মকর্তা, মুক্তিযোদ্ধা, সাংবাদিক, স্থানীয় গণ্যমান্য ব্যক্তি ও সুশীল সমাজের প্রতিনিধিদের সঙ্গে এ মতবিনিময় সভার আয়োজন করা হয়। মতবিনিময় সভায় রাজশাহীর পুলিশ সুপার মো. শহীদুল্লাহ, আঞ্চলিক নির্বাচন কর্মকর্তা আমীরুল ইসলাম, জেলা নির্বাচন কর্মকর্তা আতিয়ার রহমান, উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান মুক্তিযোদ্ধা নজরুল ইসলাম, পৌরসভার মেয়র তোফাজ্জল হোসেন, সহকারী কমিশনার (ভূমি) সমর কুমার পাল, রাজপাড়া থানা নির্বাচন কর্মকর্তা শহীদুল ইসলাম প্রামাণিক, দুর্গাপুর উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা গোলাম মোস্তফা, দুর্গাপুর থানার ওসি রুহুল আলম ও পরিদর্শক (তদন্ত) মিজানুর রহমান, দুর্গাপুর প্রেসক্লাবের সভাপতি রবিউল ইসলাম রবিসহ সরকারের সব দফতরের কর্মকর্তা, ইউপি চেয়ারম্যান, সুশীল সমাজের প্রতিনিধি, সাংবাদিক উপস্থিত ছিলেন। এর আগে প্রধান নির্বাচন কমিশনার কেএম নুরুল হুদা সকাল ১০টা ২০ মিনিটে দুর্গাপুরে পৌঁছান। এরপর তিনি উপজেলা নির্বাচন অফিস ও সার্ভার স্টেশন পরিদর্শন করেন এবং নির্বাচন অফিসের শূন্য পদে জনবল বাড়ানোর কথা বলেন।
বিমান বিধ্বস্তের ঘটনায় আহতদের চিকিৎসার সব খরচ দেবে সরকার
আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের জানিয়েছেন, নেপালে ইউএস-বাংলার উড়োজাহাজ বিধ্বস্তের ঘটনায় আহতদের চিকিৎসার সব খরচ সরকারের পক্ষ থেকে বহন করা হবে। এছাড়া শিগগিরই নিহতদের মরদেহ নেপাল থেকে দেশে আনা হবে। শুক্রবার বেলা ১১টায় ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের বার্ন ইউনিটে চিকিৎসাধীন শাহরিন আহমেদকে দেখতে এসে এসব কথা বলেন তিনি। এ সময় শাহরিনের শারীরিক অবস্থার খোঁজ-খবর নেন ওবায়দুল কাদের। তিনি বলেন, আমরা আপনার পাশে আছি, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাও আপনার সঙ্গে আছেন। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সব বিষয়ে খোঁজ-খবর রাখছেন। বার্ন ইউনিট থেকে বেরিয়ে সাংবাদিকদের কাছে সাক্ষাতের কথা তুলে ধরেন সেতুমন্ত্রী। তিনি বলেন, শাহরিন আমাকে বললেন, এটা তার জীবনে একটা প্রোমেটিক এক্সপেরিয়েন্স। এরমধ্যেও তিনি টিকে আছেন। এটা আসলে বিরাট ব্যপার, তার মধ্যে সাহস এবং দৃঢ়চেতা আছে। তিনি আমাকে বলেছেন, দোয়া করার জন্য। কাঠমান্ডুতে দুর্ঘটনার শিকারদের বিষয়ে সরকারের কার্যক্রমের তথ্য তুলে ধরে ওবায়দুল কাদের বলেন, আমাদের আট সদস্যের মেডিকেল প্রতিনিধি দল নেপালে গিয়েছেন। দুর্ঘটনায় আহত আরও তিনজন শুক্রবার দেশে আসছেন। তিনি বলেন, নেপালে নিহতদের ময়নাতদন্ত-ডিএনএ টেস্ট করার কাজ ধীরগতিতে চলছিল। আমাদের চিকিৎসক প্রতিনিধি দল যাওয়ার পর গতি এসেছে। আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বলেন, আমি শোকসন্তপ্ত পরিবারের সদস্যদের সঙ্গে কথা বলেছি, তাদের সঙ্গে দেখা করছি। গতকালও পৃথুলা রশীদের বাসায় গিয়েছি। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নির্দেশে আমি শোকসন্তপ্ত পরিবারের সঙ্গে কথা বলার জন্য গিয়েছি। আমি তাদের আশ্বস্ত করেছি শিগগিরই মরদেহ দেশে আনা হবে। পাশাপাশি আহতদের দেশে এনে সুচিকিৎসার ব্যবস্থা করা হবে।
কুতুবদিয়ায় আধুনিকায়ন ও কোস্টাল রেডিও স্টেশনের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন
কক্সবাজারের কুতুবদিয়ায় বিদ্যমান লাইটহাউস আধুনিকায়ন ও কোস্টাল রেডিও স্টেশনের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করেছেন নৌপরিবহনমন্ত্রী শাজাহান খান। জিএমডিএসএস এবং ইন্টিগ্রেটেড মেরিটাইম নেভিগেশন সিস্টেম স্থাপন প্রকল্পের অধীনে শুক্রবার (১৬ মার্চ) দুপুরে আনুষ্ঠানিকভাবে নৌপরিবহনমন্ত্রী এ ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করেন। এ উপলক্ষে আয়োজিত অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশনের মেয়র আ জ ম নাছির উদ্দীন, সংসদ সদস্য আশেক উল্লাহ রফিক, এমএ লতিফ প্রমুখ। এসময় আসন্ন জাতীয় সংসদ নির্বাচনে নৌকা প্রতীকের প্রার্থীকে জয়ী করার আহ্বান জানিয়ে নৌমন্ত্রী বলেন, বঙ্গবন্ধু কন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ক্ষমতায় থাকলে দেশের উন্নয়ন হয়। কুতুবদিয়ায় ঐতিহ্যবাহী বাতিঘরটি আধুনিকায়নের উদ্যোগ নিয়েছেন তিনি। এখানে এলএনজি টার্মিনাল হবে। আধুনিক পর্যটন কেন্দ্র হবে। খালেদা জিয়াকে মিথ্যাবাদী আখ্যা দিয়ে নৌপরিবহনমন্ত্রী শাজাহান খান বলেন, তার জন্ম তারিখ পাঁচটি। একজন মানুষের পাঁচটি জন্ম তারিখ হয় না। তারা যখন ক্ষমতায় ছিল তখন দেশে লুটপাটের স্বর্গরাজ্য ছিল। এতিমদের টাকা মেরে দিয়েছিল। আদালত তাদের সাজা দিয়েছেন। আর শেখ হাসিনার সরকার ক্ষমতায় এলে দেশে উন্নয়ন ও সমৃদ্ধির দুয়ার খুলে দেন। যে চট্টগ্রাম বন্দরে সাড়ে তিন হাজার টাকা এফডিআর ছিল তা এখন সাড়ে ১১ হাজার কোটি টাকায় উন্নীত হয়েছে। এ অনুষ্ঠানে চট্টগ্রাম বন্দর কর্তৃপক্ষের চেয়ারম্যান কমোডর জুলফিকার আজিজ, জেসিআই চিটাগাংয়ের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি নিয়াজ মোর্শেদ এলিট, বর্তমান সভাপতি গিয়াস ফয়সাল প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।
জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে লাল পতাকা মিছিল জাতীয় গার্মেন্টস শ্রমিক ফেডারেশনের
রাজধানীর আশুলিয়ার কাঠগড়ায় অবস্থিত কোরিয়ান মালিকানাধীন হেসং করপোরেশন লিমিটেড (গার্মেন্টস) বন্ধ ঘোষণা, ২৭ শ্রমিককে চাকরিচ্যুত, মজুরি সংক্রান্ত মালিকের দেওয়া প্রতিশ্রুতি ভঙ্গের প্রতিবাদ জানিয়ে লাল পতাকা মিছিল করেছে জাতীয় গার্মেন্টস শ্রমিক ফেডারেশন। জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে শুক্রবার বিক্ষোভ মিছিলে বক্তারা বলেন, হেসং কর্পোরেশন লিমিটেড-এর মালিকের দেওয়া প্রতিশ্রুতি ভঙ্গ এবং ২৭ জন শ্রমিককে চাকরিচ্যুত করার প্রতিবাদ করায় গত ১৪ মার্চ কারখানা বন্ধ করে দেওয়া হয়। এতে শ্রমিকদের বিপদের মুখে ঠেলে দেওয়া হয়েছে। মালিকের এই বে-আইনি কার্যকলাপকে অন্ধভাবে সমর্থন করছে শিল্প পুলিশ। অন্যদিকে মালিকের ভাড়াটিয়া মাস্তানদের আক্রমণের শিকার হয়েছেন নিরীহ শ্রমিকেরা। অবিলম্বে কারখানা খুলে দিতে, চাকরিচ্যুত শ্রমিকদের চাকরিতে পুনঃবহাল, ইউনিয়ন গঠনের সব বাধা অপসারণের জন্য সরকার, বিজিএমইএ, বায়ার এবং সংশ্লিষ্টদের প্রতি দাবি জানায় জাতীয় গার্মেন্টস শ্রমিক ফেডারেশন। ফেডারেশনের সভাপতি আমিরুল হক আমিনের সভাপতিত্বে বক্তব্য রাখেন- ফেডারেশনের সহ-সভাপতি মিস্ শাফিয়া পারভীন, ফারুখ খান, কবির হোসেন, সহ-সাধারণ সম্পাদক ফরিদুল ইসলাম, সাংগঠনিক সম্পাদক রফিকুল ইসলাম রফিক, নাসিমা আক্তার, হেসং এর চাকরিচ্যুত শ্রমিক হাসান, সামিউল, জাকির, সবুজ, জাহাঙ্গীর হোসেন প্রমুখ।
আগামী জুলাই মাসে ৫ সিটির নির্বাচন
আগামী জুলাই মাসে রাজশাহীসহ পাঁচ সিটি করপোরেশনের নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে বলে জানিয়েছেন প্রধান নির্বাচন কমিশনার (সিইসি) কেএম নুরুল হুদা। বৃহস্পতিবার (১৫ মার্চ) সকালে রাজশাহীর পবা উপজেলা নির্বাচন কার্যালয় পরিদর্শন শেষে সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে তিনি এ কথা বলেন। সিইসি বলেন, গাজীপুর, রাজশাহী, খুলনা, বরিশাল ও সিলেট সিটি করপোরেশনের নির্বাচন হবে জাতীয় সংসদ নির্বাচনের আগেই। কখন কোন তারিখে নির্বাচন হবে তা এখনও ঠিক হয়নি। তবে প্রাথমিকভাবে বলতে পারি, সব নির্বাচন হবে জুলাই মাসের মধ্যে। এ নিয়ে নির্বাচন কমিশন প্রস্তুতি শুরু করেছে বলেও জানান তিনি। এই পাঁচ সিটি করপোরেশনের বর্তমান নির্বাচিত পরিষদের মেয়াদ শেষ হচ্ছে আগামী সেপ্টেম্বর থেকে অক্টোবর মাসে। এর মধ্যে গাজীপুরের ৪ সেপ্টেম্বর, খুলনার ২৫ সেপ্টেম্বর, রাজশাহীর ৫ অক্টোবর, সিলেটের ৮ অক্টোবর ও বরিশালের ২৪ অক্টোবর নির্বাচনের পাঁচ বছর পূর্ণ হবে। এ অবস্থায় রাজশাহী সিটি করপোরেশনে ৯ এপ্রিল থেকে ৫ অক্টোবর, খুলনায় ৩০ মার্চ থেকে ২৫ সেপ্টেম্বর, বরিশালে ২৭ এপ্রিল থেকে ২৩ অক্টোবর, সিলেটে ১৩ মার্চ থেকে ৮ সেপ্টেম্বর এবং গাজীপুরে ৮ মার্চ থেকে ৪ সেপ্টেম্বরের মধ্যে নির্বাচন অনুষ্ঠানের বাধ্যবাধকতা রয়েছে। সিইসি বলেন, আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে ২০১৯ সালের জানুয়ারি মাসের মাঝামাঝি অথবা এই বছরের আগামী ডিসেম্বরের শেষের দিকে। অর্থাৎ ডিসেম্বরের ২০ তারিখের পর থেকে জানুয়ারির ২০ তারিখের মধ্যেই এই নির্বাচনও হবে। তবে কোন দল নির্বাচনে আসবে কি আসবে না, তা তাদের দলের রাজনৈতিক সিদ্ধান্ত উল্লেখ করে তিনি বলেন,আমরা আশাবাদী যে সব দলই নির্বাচনে অংশগ্রহণ করবে। এই মুহূর্তে বড় বড় পাঁচ সিটির নির্বাচন নিয়ে প্রস্তুতি শুরু করেছে কমিশন। তিনি বলেন, এবার সিটি করপোরেশন নির্বাচনে ইভিএম ব্যবহার করা হবে। তবে সেটা কি পরিমাণে ব্যবহার করা হবে তা নির্ভর করবে ইভিএম মেশিন সম্পর্কে প্রশিক্ষণের ওপর। এ সময় বিএনপিসহ সকল দল আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচনে অংশ গ্রহণ করবে বলেও আশা প্রকাশ করেন তিনি। এর আগে কেএম নুরুল হুদা উপজেলার দামকুড়াহাট উচ্চ বিদ্যালয়ে স্মার্টকার্ড বিতরণ পরিদর্শন করেন। এ সময় তার সঙ্গে আঞ্চলিক নির্বাচন কর্মকর্তা সৈয়দ আমিরুল ইসলাম, অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট সুব্রত পাল, জেলা নির্বাচন কর্মকর্তা আতিয়ার রহমান ও পবা উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা শাহানাজ পারভীন উপস্থিত ছিলেন। প্রধান নির্বাচন কর্মকর্তা বিকালে রাজশাহী অঞ্চলের নির্বাচন কর্মকর্তাদের সঙ্গে মতবিনিময় করেন। রাজশাহী আঞ্চলিক নির্বাচন কার্যালয়ে এ মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়। সেখানে তিনি আগামী সিটি ও জাতীয় নির্বাচনকে ঘিরে কমিশনের এ অঞ্চলের কর্মকর্তাদের দিকনির্দেশনামূলক বক্তব্য দেন।
১৬ অবৈধ অনুপ্রবেশকারী আটক বেনাপোল সীমান্তে
যশোরের বেনাপোল সীমান্ত পথে অবৈধভাবে ভারত থেকে ফেরার সময় ১৬ বাংলাদেশি নারী, পুরুষ ও শিশুকে আটক করেছে বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি)। তবে এ ঘটনায় জড়িত কোনো পাচারকারীকে আটক করা যায়নি। বেনাপোল সীমান্তের নারী, শিশু পাচারের অন্যতম রুট হিসেবে পরিচিত দৌলতপুর এলাকা থেকে বৃহস্পতিবার (১৫ মার্চ) সকাল ১১টার দিকে ৪৯ ব্যাটালিয়নের বিজিবি সদস্যরা তাদের আটক করেন। আটকদের মধ্যে ছয় পুরুষ, ছয় নারী ও তিন শিশু রয়েছে। তাদের বাড়ি বাগেরহাট, খুলনা ও বরিশাল জেলার বিভিন্ন এলাকায়। বেনাপোল চেকপোস্ট আইসিপি ক্যাম্পের নায়েব সুবেদার আবুল হোসেন জানান, গোপন সংবাদের মাধ্যমে তারা খবর পায় ভারত সীমান্ত পার হয়ে বেশ কিছু নারী পুরুষ এপারে এসে বেনাপোলের দৌলতপুর সীমান্তে অবস্থান করছে। পরে বিজিবি সদ্যসরা অভিযান চালিয়ে ১৬ বাংলাদেশি নারী-পুরুষকে আটক করতে সক্ষম হয়। তিনি আরও জানান, আটকদের বিরুদ্ধে অবৈধ অনুপ্রবেশ আইনে মামলা দিয়ে বেনাপোল পোর্ট থানায় সোপর্দের প্রক্রিয়া চলছে।
ব্লগার অভিজিৎ হত্যা মামলার প্রতিবেদন পিছিয়ে ১৫ এপ্রিল
বিজ্ঞান মনস্ক লেখক ও ব্লগার অভিজিৎ রায় হত্যা মামলার তদন্ত প্রতিবেদন দাখিলের তারিখ পিছিয়ে আগামী ১৫ এপ্রিল ধার্য করেছেন আদালত। আজ বৃহস্পতিবার মামলাটি তদন্ত প্রতিবেদন দাখিলের জন্য দিন ধার্য ছিল। কিন্ত এদিন মামলার তদন্ত কর্মকর্তা পুলিশের কাউন্টার টেররিজম ইউনিটের পুলিশ পরিদর্শক মনিরুল ইসলাম প্রতিবেদন দাখিল করতে পারেননি। এজন্য ঢাকা মহানগর হাকিম গোলাম নবী প্রতিবেদন দাখিলের নতুন এ তারিখ ঠিক করেন। উল্লেখ্য, অমর একুশে বইমেলা উপলক্ষে বই প্রকাশ ও প্রকাশনা অনুষ্ঠানে যোগ দিতে ২০১৫ সালের ২৬ ফেব্রুয়ারি সস্ত্রীক দেশে আসেন যুক্তরাষ্ট্র প্রবাসী অভিজিৎ রায়। ওই দিন রাতে বইমেলা থেকে ফেরার পথে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় এলাকায় টিএসসির সামনে অভিজিৎ ও তার স্ত্রী রাফিদা আহমেদ বন্যার ওপর হামলা চালায় দুর্বৃত্তরা। এতে ঘটনাস্থলেই মারা যান অভিজিৎ। গুরুতর আহত হন বন্যা। ওই ঘটনায় অভিজিতের বাবা অধ্যাপক ড. অজয় রায় শাহবাগ থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন।
পটিয়ায় প্রধানমন্ত্রীর আগমনে ব্যাপক প্রস্তুতি চলছে
আগামী ২১ মার্চ প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার জনসভাকে কেন্দ্র করে চট্টগ্রামের পটিয়া উপজেলায় চলছে ব্যাপক প্রস্তুতি। দফায় দফায় আওয়ামীলীগের কেন্দ্রীয় নেতারা পটিয়ার জনসভাস্থল পরিদর্শন করছেন। বিভিন্ন এলাকায় অনুষ্ঠিত হচ্ছে প্রস্তুতি সভা। আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহবুব উল আলম হানিফ জানিয়েছেন, পটিয়ায় প্রধানমন্ত্রীর জনসভা জনসমুদ্রে পরিণত হবে। বুধবার দুপুরে পটিয়ায় প্রধানমন্ত্রীর জনসভা উপলক্ষে পটিয়া উপজেলা আওয়ামীলীগ, যুবলীগ, মহিলা আওয়ামী লীগ, ছাত্রলীগ ও স্বেচ্ছাসেবকলীগসহ বিভিন্ন অঙ্গসংগঠনের নেতাদের নিয়ে স্থানীয় কনভেনশন সেন্টারে প্রতিনিধি সভা অনুষ্ঠিত হয়। এতে প্রধান অতিথি ছিলেন দলের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহবুব উল আলম হানিফ। বিশেষ অতিথি ছিলেন কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক ও চট্টগ্রাম বিভাগের দায়িত্বপ্রাপ্ত এনামুল হক শামীম, প্রধানমন্ত্রীর এপিএস সাইফুজ্জামান শেখর, দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মোসলেম উদ্দিন আহমদ, সেক্রেটারি মফিজুর রহমান। কেন্দ্রীয় ও জেলার বিভিন্ন পর্যায়ের নেতারা প্রতিনিধি সভায় বক্তব্য রাখেন। প্রধানমন্ত্রীর জনসভা সফল করতে আজ বৃহস্পতিবার পটিয়া আদর্শ স্কুল মাঠে যুবলীগের বিভাগীয় সম্মেলন আয়োজন করা হয়েছে। এতে প্রধান অতিথি থাকবেন যুবলীগের চেয়ারম্যান ওমর ফারুক চৌধুরী। এতে জেলা, কেন্দ্রীয় ও স্থানীয় নেতা-কর্মীরা উপস্থিত থাকবেন। বিকেলে পটিয়ায় কনভেনশন সেন্টারে পটিয়া উপজেলা ও পৌরসভা স্বেচ্ছাসেবক লীগের প্রস্তুতি সভায় থাকবেন স্বেচ্ছাসেবক লীগের সভাপতি মোল্লা মোহাম্মদ আবু কায়ছার, সেক্রেটারি পঙ্কজ দেব নাথ এমপি, চট্টগ্রাম বিভাগীয় সাংগঠনিক সম্পাদক শেখ সোহেল রানা টিপু, দক্ষিণ জেলার ভারপ্রাপ্ত সভাপতি আবুল হাসেম চেয়ারম্যান প্রমুখ। প্রধানমন্ত্রীর আগমন উপলক্ষে পটিয়ায় জনসভাস্থল, বিভিন্ন অফিস আদালত ও মাঠঘাট সাজানো হচ্ছে। স্থানীয় সংসদ সদস্য সামশুল হক চৌধুরী বলেন, পটিয়ায় প্রধানমন্ত্রীর জনসভা সফল করতে ব্যাপক প্রস্তুতি চলছে। প্রধানমন্ত্রীর এই জনসভা জনসমুদ্রে পরিণত হবে। পুরো চট্টগ্রাম বিভাগের মানুষ জনসভায় যোগ দেবে। জনসভা সফল করতে পটিয়া আওয়ামী লীগ ও অঙ্গসংগঠনের নেতা-কর্মীরা দিনরাত কাজ করে যাচ্ছেন। প্রধানমন্ত্রীর জনসভা চট্টগ্রাম মহানগরীতে হওয়ার কথা থাকলেও নগরীতে জনসভা করার মতো খালি মাঠ না থাকায় জনসভার স্থান পরিবর্তন করে পটিয়া কলেজ মাঠে আয়োজন করা হয়েছে।

জাতীয় পাতার আরো খবর