ক্যাসিনো কাণ্ড: এনামুল-রূপন ৪ দিনের রিমান্ডে
১৪জানুয়ারী,মঙ্গলবার,নিজস্ব প্রতিবেদক,নিউজ একাত্তর ডট কম: অর্থপাচার আইনে দায়ের করা মামলায় ক্যাসিনোকাণ্ডের হোতা দুই ভাই গেন্ডারিয়া থানা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি এনামুল হক ও সাধারণ সম্পাদক রূপন ভূঁইয়াকে চার দিনের রিমান্ডে পাঠিয়েছেন আদালত। একইসঙ্গে তাদের সহযোগী মোস্তফাকে পাঠানো হয়েছে তিন দিনের রিমান্ডে। মঙ্গলবার (১৪ জানুয়ারি) ঢাকা মহানগর হাকিম রাজেশ চৌধুরী তিন জনের এ রিমান্ড মঞ্জুর করেন। গত সোমবার (১৩ জানুয়ারি) সকালে তাদের ঢাকার কেরানীগঞ্জ থেকে গ্রেফতার করা হয়। কেরানীগঞ্জে মোস্তফার বাড়িতে থেকে সেখান থেকে বেনামি পাসপোর্ট তৈরি করে ভারত হয়ে নেপাল যাওয়ার পরিকল্পনা করছিলেন এনামুল ও রূপন। গত বছর ক্যাসিনোবিরোধী অভিযান শুরু হওয়ার পর এই দুই ভাই আলোচনায় আসেন। শুরু থেকেই তারা পলাতক ছিলেন। গত বছরের ২৪ সেপ্টেম্বর এনামুল ও রূপনদের বাসায় এবং তাঁদের দুই কর্মচারীর বাসায় অভিযান চালায় র‍্যাব। সেখান থেকে পাঁচ কোটি টাকা এবং সাড়ে সাত কেজি সোনা উদ্ধার করা হয়। এরপর সূত্রাপুর ও গেন্ডারিয়া থানায় তাঁদের বিরুদ্ধে একাধিক মামলা হয়। একাধিক বার অভিযান চালিয়েও এত দিন তাদের ধরা যায়নি। এনামুল ও রূপন গত ৬-৭ বছরে পুরান ঢাকায় বাড়ি কিনেছেন কমপক্ষে ১২টি। ফ্ল্যাট কিনেছেন ৬টি। পুরোনো বাড়িসহ কেনা জমিতে গড়ে তুলেছেন নতুন নতুন ইমারত। স্থানীয় লোকজন জানান, এই দুই ভাইয়ের মূল পেশা জুয়া। আর নেশা হলো বাড়ি কেনা। জুয়ার টাকায় এনামুল ও রূপন কেবল বাড়ি ও ফ্ল্যাটই কেনেননি, ক্ষমতাসীন দলের পদও কেনেন বলে জানা যায়। স্থানীয় লোকজন জানান, ২০১৮ সালে এনামুল পান গেন্ডারিয়া থানা আওয়ামী লীগের সহসভাপতির পদ। আর রূপন পান যুগ্ম সাধারণ সম্পাদকের পদ। তাঁদের পরিবারের ৫ সদস্য, ঘনিষ্ঠজনসহ মোট ১৭ জন আওয়ামী লীগ ও যুবলীগে পদ পান। তারা সরকারি দলের এসব পদ-পদবি জুয়া ও ক্যাসিনো কারবার নির্বিঘ্নে চালানোর ঢাল হিসেবে ব্যবহার করে আসছিলেন।
রাজাকার কায়সারের মৃত্যুদণ্ড বহাল
১৪জানুয়ারী,মঙ্গলবার,নিজস্ব প্রতিবেদক,নিউজ একাত্তর ডট কম: একাত্তরে মানবতাবিরোধী অপরাধের মামলায় জাতীয় পার্টির সরকারের প্রতিমন্ত্রী রাজাকার সৈয়দ মুহম্মদ কায়সারের মৃত্যুদণ্ডের সাজা বহাল রেখেছেন আপিল বিভাগ। মঙ্গলবার প্রধান বিচারপতি সৈয়দ মাহমুদ হোসেনের নেতৃত্বে চার সদস্যের আপিল বেঞ্চ এ রায় দেন। এর আগে গত ৩ ডিসেম্বর আপিল আবেদনের ওপর উভয়পক্ষের যুক্তিতর্ক উপস্থাপন শেষে রায় ঘোষণার দিন ধার্য করা হয়। সে অনুযায়ী সুপ্রিম কোর্টের আপিল বিভাগের মঙ্গলবারের কার্যতালিকায় মামলাটি এক নম্বরে রাখা হয়। ২০১৪ সালের ২৩ ডিসেম্বর আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনাল-২ হবিগঞ্জ মহাকুমার মুসলীম লীগ নেতা সৈয়দ মুহম্মদ কায়সারকে মৃত্যুদণ্ড দেন। একাত্তরে মুক্তিযুদ্ধের সময় হবিগঞ্জ ও ব্রাক্ষণবাড়িয়ায় ১৫২ জনকে গণহত্যা, ২ নারীকে ধর্ষণ, অপহরণ, আটক, নির্যাতন, অগ্নিসংযোগসহ মানবতাবিরোধী বিভিন্ন অপরাধে অংশগ্রহণ এবং প্রত্যক্ষ সহযোগিতার দায়ে এই সাজা দেওয়া হয়। পরবর্তী সময়ে নিজেকে নির্দোষ দাবি করে ফাঁসির সাজা বাতিল চেয়ে সুপ্রিম কোর্টে আপিল করেন কায়সার। মুক্তিযুদ্ধের সময় দখলদার পাকিস্তানি সেনাবাহিনীর সহযোগিতায় ৫০০ থেকে ৭০০ 'স্বাধীনতাবিরোধীকে' নিয়ে নিজেই 'কায়সার বাহিনী' গঠন করেন এই মুসলিম লীগ নেতা। মুক্তিযুদ্ধের শেষ দিকে তিনি লন্ডনে পালিয়ে যান। ১৯৭৫ সালের ১৫ আগস্ট জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান সপরিবারে নিহত হওয়ার পর দেশে ফেরেন এই রাজাকার কমান্ডার।
দুবাইয়ের কোম্পানিকে বিনিয়োগের আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর
১৪জানুয়ারী,মঙ্গলবার,নিজস্ব প্রতিবেদক,নিউজ একাত্তর ডট কম: বাংলাদেশের বন্দর, জাহাজ নির্মাণ এবং আইসিটি খাতে বিনিয়োগের জন্য দুবাই ভিত্তিক কোম্পানি ডিপি ওয়ার্ল্ডকে আহ্বান জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। গতকাল সোমবার ডিপি ওয়ার্ল্ডসহ ইউএইর কোম্পানিগুলোর একটি প্রতিনিধিদল আবুধাবির শাংগ্রি-লা হোটেলে প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে সাক্ষাৎ করতে গেলে প্রধানমন্ত্রী এ আহ্বান জানান। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেন, জ্বালানি ও বিদ্যুৎ খাতের পাশাপাশি বন্দর, জাহাজ নির্মাণ ও আইসিটি খাতে আমরা আপনাদের ব্যাপক বিনিয়োগ প্রত্যাশা করছি। সাক্ষাৎ শেষে প্রধানমন্ত্রীর প্রেস সচিব ইহসানুল করিম সাংবাদিকদের ব্রিফ করেন। তিনি বলেন,ডিপি ওয়ার্ল্ডের পৃথক প্রতিনিধিদল যার নেতৃত্বে ছিলেন চেয়ারম্যান সুলতান আহমেদ বিন সুলায়েম, আমিরাত জাতীয় তেল কোম্পানির (ইএনওসি) প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা সাইফ হুমাইদ আল ফালাসি এবং দ্বুাই শাসক পরিবারের সদস্য শেখ আহমেদ ডালমুখ আল মকতুম এমএকে পৃথকভাবে প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে সাক্ষাৎ করেন। একইসঙ্গে সংযুক্ত আরব আমিরাতের বিশিষ্ট ব্যবসায়ীদের একটি দলও প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে সাক্ষাৎ করেন বলে প্রেস সচিব ইহসানুল করিম সাংবাদিকদের জানান। বৈঠকে ডিপি ওয়ার্ল্ড- বিশ্বের নেতৃস্থানীয় সাপ্লাই চেন সলিউশন, কার্গো লজিস্টিক্স, বন্দর পরিচালনা, সমুদ্র যাত্রা সংশ্লিষ্ট সংস্থা। তারা প্রধানমন্ত্রীকে সোনাগাজীতে ১৩শ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ কেন্দ্র স্থাপনের অগ্রগতির বিষয়ে অবহিত করেন। বাংলাদেশ সরকার এই বিদ্যুৎ কেন্দ্র নির্মাণের জন্য জমি বরাদ্দ দেয়। প্রধানমন্ত্রী সংযুক্ত আরব আমিরাতের ব্যবসায়ীদের বিশেষ করে ডিপি ওয়ার্ল্ডকে বাংলাদেশে একটি হাইটেক পার্ক স্থাপনের আহ্বান জানান। সংযুক্ত আরব আমিরাতের ব্যবসায়ী নেতারা বাংলাদেশের আইসিটি খাতের অগ্রগতির প্রশংসা করেন। তারা বলেন, বাংলাদেশ বর্তমানে বিশ্বের দ্বিতীয় বৃহত্তম আউটসোর্সিং সরবরাহকারী দেশ। এ সময় প্রধানমন্ত্রীর উপস্থিতিতে আমিরাতের জাতীয় তেল কোম্পানি (ইএনওসি) এবং বাংলাদেশের বিদ্যুৎ, জ্বালানি এবং খনিজ সম্পদ বিভাগের মধ্যে সমঝোতা স্মারক স্বাক্ষরিত হয়। বিদ্যুৎ, জ্বালানি এবং খনিজ সম্পদ বিষয়ক প্রতিমন্ত্রী নসরুল হামিদ বাংলাদেশের পক্ষে সমঝোতা স্মারকে স্বাক্ষর করেন। এ সময় অন্যান্যের মধ্যে পররাষ্ট্র মন্ত্রী ড. এ কে আব্দুল মোমেন, প্রবাসী কল্যাণ এবং বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রী ইমরান আহমেদ, বিদ্যুৎ, জ্বালানি এবং খনিজ সম্পদ প্রতিমন্ত্রী নসরুল হামিদ, পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী মো. শাহরিয়ার আলম, পররাষ্ট্র সচিব মাসুদ বিন মোমেন, পিএমও সচিব মোহাম্মদ তোফাজ্জ্বল হোসেন মিয়া এবং প্রধানমন্ত্রীর উপ-প্রেস সচিব কে এম সাখাওয়াত মুন উপস্থিত ছিলেন।
জায়েদ সাসটেইনেবিলিটি অ্যাওয়ার্ড অনুষ্ঠানে যোগ দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী
১৩জানুয়ারী,সোমবার,নিজস্ব প্রতিবেদক,নিউজ একাত্তর ডট কম: আবু ধাবি সাসটেনিবিলিটি উইক ও জায়েদ সাসটেইনেবিলিটি অ্যাওয়ার্ড অনুষ্ঠানে যোগ দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। আজ সোমবার সকালে অনুষ্ঠানে অংশ নিতে আবুধাবি ন্যাশনাল এক্সিবিশন সেন্টারের আইসিসি হলে উপস্থিত হলে যুবরাজ শেখ মোহাম্মদ বিন জায়েদ বিন সুলতান আল নাহিয়ান প্রধানমন্ত্রীকে স্বাগত জানান। দৈনিক আমাদের সময় ৮ দিনের এই আয়োজনে বিভিন্ন দেশের সরকার প্রধান, উচ্চ পদস্থ সরকারি কর্মকর্তা, নীতি নির্ধারক, উদ্যোক্তারা অংশ নেবেন। অনুষ্ঠানে স্বাস্থ্য, খাদ্য, পানি, জ্বালানি ও হাই স্কুল এই পাঁচ ক্যাটাগরিতে বিভিন্ন দেশের প্রতিষ্ঠানকে জায়েদ সাসটেইনেবিলিটি অ্যাওয়ার্ড দেওয়া হয়। সন্ধ্যা সাড়ে ৬টায় শাংরি-লা হোটেলে পশ্চিম এশিয়ার দেশগুলোতে নিয়োজিত বাংলাদেশি রাষ্ট্রদূতদের সম্মেলনে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার যোগ দেওয়ার কথা রয়েছে। আগামীকাল মঙ্গলবার সংযুক্ত আরব আমিরাতের প্রধানমন্ত্রী শেখ মোহম্মদ বিন রশিদ আল মাকতুম, আবু ধাবির যুবরাজ আল-নাহিয়ান এবং সংযুক্ত আরব আমিরাতের প্রতিষ্ঠাতা ও প্রথম প্রেসিডেন্টের স্ত্রী শেখ ফাতিমা বিনতে মুবারক আল কেতবির সঙ্গে সাক্ষাৎ করবেন শেখ হাসিনা। বিকেল সাড়ে ৫টায় আবুধাবি ন্যাশনাল এক্সিবিশন সেন্টারে দ্য ক্রিটিক্যাল রোল অব উইমেন ইন ডেলিভারিং ক্লাইমেট অ্যাকশন বিষয়ে সাক্ষাৎকার অধিবেশনে যোগ দেবেন প্রধানমন্ত্রী। তিন দিনের সরকারি সফরে রোববার রাতে সংযুক্ত আরব আমিরাতে পৌঁছান শেখ হাসিনা। আবু ধাবি বিমানবন্দরে বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত মোহাম্মদ ইমরান প্রধানমন্ত্রীকে স্বাগত জানান। বিমানবন্দরে
দেশে বর্তমানে ভিক্ষুকের সংখ্যা ২ লাখ ৫০ হাজার
১৩জানুয়ারী,সোমবার,নিজস্ব প্রতিবেদক,নিউজ একাত্তর ডট কম: বিভিন্ন জেলার প্রশাসন ও জেলা সমাজসেবা কার্যালয়ের চাহিদাপত্র অনুযায়ি দেশে বর্তমানে ২ লাখ ৫০ হাজার ভিক্ষুক রয়েছে। শতকরা হিসাবে ০.১৭ ভাগ মানুষ ভিক্ষা বৃত্তির মাধ্যমে জীবিকা নির্বাহ করে। বাসস সরকারি দলের দিদারুল আলমের এক প্রশ্নের জবাবে সমাজকল্যাণ মন্ত্রী নুরুজ্জামান আহমেদ আজ সংসদে এ কথা জানান। তিনি জানান, ভিক্ষুকের সংখ্যা নির্ধারণ সমন্বিতভাবে কোন জরিপ পরিচালিত হয়নি। তারপরও জেলা প্রশাসন ও সমাজকল্যণ কার্যালয় থেকে পাঠানো চাহিদা পত্রের ভিত্তিতে ভিক্ষুক পুর্নবাসনের জন্য মোট ৪৫০ কোটি টাকা বরাদ্দ চাওয়া হয়। এর বিপরীতে গত অর্থ বছরে ভিক্ষুক পুর্নবাসন কর্মসূচিতে ৩ কোটি টাকা এবং চলতি অর্থবছরে ৪ কোটি টাকা বরাদ্দ দেয়া হয়েছে।
মোছলেম উদ্দিন আহমেদ বেসরকারী ভাবে নির্বাচিত
১৩জানুয়ারী,সোমবার,নিজস্ব প্রতিবেদক,নিউজ একাত্তর ডট কম: প্রয়াত জাসদ নেতা মইনউদ্দিন খান বাদলের চট্টগ্রাম-৮ শূন্য আসনের উপ-নির্বাচনে ১৭০টি কেন্দ্রের ফলাফলে ৮৭ হাজার ২৪৬ ভোট পেয়ে বেসরকারী ভাবে নির্বাচিত হয়েছেন আওয়ামী লীগের মনোনীত নৌকার প্রতিকের প্রার্থী মোছলেম উদ্দিন আহমেদ। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী ধানের শীষ প্রতীক নিয়ে বিএনপির প্রার্থী মো. আবু সুফিয়ান পেয়েছেন ১৭ হাজার ৯৩৫ ভোট। সোমবার (১৩ জানুয়ারী) রাত সাড়ে ৮টার দিকে নগরীর এমএ আজিজ স্টেডিয়াম সংলগ্ন জিমনেশিয়ামের ফলাফল সংগ্রহ ও ঘোষণা কেন্দ্র থেকে কেন্দ্রভিত্তিক বেসরকারি এ ফল ঘোষণা করেন চট্টগ্রাম আঞ্চলিক নির্বাচন কর্মকর্তা ও রিটার্নিং অফিসার মোহাম্মদ হাসানুজ্জামান। ঘোষিত ফলাফলে দেখা গেছে, চট্টগ্রাম-৭ (বোয়ালখালী-চান্দগাঁও) উপনির্বাচনে নগর ও গ্রাম দুই অংশেই ব্যাপক সংখ্যাগড়িষ্টতা পেয়েছেন নৌকার প্রতিকের প্রার্থী মোছলেম উদ্দিন। তিনি ১৭০টি কেন্দ্রের ফলাফলে ৮৭ হাজার ২৪৬ ভোট পেয়ে বেসরকারী ভাবে নির্বাচিত হয়েছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী ধানের শীষ প্রতীক নিয়ে বিএনপির প্রার্থী মো. আবু সুফিয়ান পেয়েছেন ১৭ হাজার ৯৩৫ ভোট। এর মধ্যে চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশন এলাকার ১০১টি কেন্দ্রের ঘোষিত ফলাফলে আওয়ামী লীগ প্রার্থী মোছলেম উদ্দিন পেয়েছেন ৩৬ হাজার ২২৯ ভোট। বিপরীতে এসব কেন্দ্রে বিএনপি প্রার্থী আবু সুফিয়ান পেয়েছেন ১১ হাজার ৪৩১ ভোট। এ হিসেবে নৌকা প্রতিকের প্রার্থী মোছলেম উদ্দিন মোট ২২ দশমিক ৯৪ শতাংশ ভোট পেয়ে নির্বাচিত হয়েছেন। এ আসনে অন্য প্রার্থীরা ছিলেন, বাংলাদেশ ন্যাশনালিস্ট ফ্রন্ট (বিএনএফ) চেয়ারম্যান এস এম আবুল কালাম আজাদ, ইসলামিক ফ্রন্ট বাংলাদেশের সৈয়দ মোহাম্মদ ফরিদ আহমদ, স্বতন্ত্র প্রার্থী মোহাম্মদ এমদাদুল হক এবং ন্যাপের বাপন দাশগুপ্ত। এ উপ-নির্বাচনে ১৭০টি কেন্দ্রে মোট ভোটার চার লাখ ৭৪ হাজার ৪৮৫ জন। এর মধ্যে বোয়ালখালী অংশে ৬৯টি কেন্দ্রের বিপরীতে ভোটার এক লাখ ৬৪ হাজার ১৩১ ভোট। চান্দগাঁও ও পাঁচলাইশ (শহরের অংশ) এলাকায় যথাক্রমে ৬১ ও ৪০টি কেন্দ্র রয়েছে। এখানে মোট ভোটার তিন লাখ ১০ হাজার ৩৫৪ জন। এর আগে ধানের শীষসহ অংশগ্রহণকারী প্রার্থীদের এজেন্টকে কেন্দ্রে ঢুকতে না দেওয়াসহ নানা অভিযোগের মধ্যে দিয়ে শেষ হয় চট্টগ্রাম-৮ আসনে উপনির্বাচনের ভোট গ্রহণ। প্রথমবারের মতো ইভিএমে অনুষ্ঠিত হতে যাওয়া এই কেন্দ্রের ভোট গ্রহণ চলে বিরতিহীনভাবে বিকাল ৫টা পর্যন্ত।
দুই মাসের মধ্যে ঢাকার আশপাশের অবৈধ ইটভাটা বন্ধের নির্দেশ
১৩জানুয়ারী,সোমবার,নিজস্ব প্রতিবেদক,নিউজ একাত্তর ডট কম: ঢাকার আশপাশে অবৈধ ইটভাটা যেগুলো বন্ধ করা হয়নি, সেগুলো দুই মাসের মধ্যে বন্ধের নির্দেশ দিয়েছেন হাইকোর্ট। আজ সোমবার বিচারপতি এফ আর এম নাজমুল আহসান ও বিচারপতি কে এম কামরুল কাদরের হাইকোর্ট বেঞ্চ এক রিটের উপর শুনানির পর এসব আদেশ দেন। ঢাকায় যেসব যায়গায় টায়ার পোড়ানো হয় পরিবেশ মন্ত্রণালয়ের অনুমোদন ছাড়া সেগুলো বন্ধ করার নির্দেশ। ২রা ফেব্রুয়ারি পরিবেশ অধিদপ্তরের মহাপরিচালককে হাইকোর্টে তলব করা হয়েছে। পরিবেশ ও বায়ু নির্মল রাখতে বিশ্বব্যাংকের দেয়া ৩০০ কোটি টাকার ব্যায়ের হিসেব দিতে বলা হয়েছে। ঢাকায় কালো ধোয়াবাহিত যানবাহন বন্ধ করার নির্দেশ দেয়া হয়েছে। মেয়াদোত্তীর্ণ বাসও বন্ধ করতে বলা হয়েছে।
আবরার হত্যা মামলা বিচারের জন্য বদলি
১৩জানুয়ারী,সোমবার,নিজস্ব প্রতিবেদক,নিউজ একাত্তর ডট কম: বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ের (বুয়েট) শিক্ষার্থী আবরার ফাহাদ রাব্বীকে পিটিয়ে হত্যার ঘটনায় করা মামলা এখন বিচার শুরুর অপেক্ষায়। মামলাটি বিচারের জন্য প্রস্তুত হওয়ায় বদলির আদেশ দিয়েছেন আদালত। আজ সোমবার ঢাকার অতিরিক্ত মহানগর হাকিম কায়সারুল ইসলাম এ আদেশ দেন। আইন অনুযায়ী মামলাটি বিচারের জন্য প্রস্তুত হওয়ায় এ মামলা মহানগর দায়রা জজ আদালতে বদলির জন্য সিএমএম বরাবর নথি পাঠান বিচারক। এখন সিএমএম মামলাটি মহানগরে পাঠাবেন। মহানগর আদালতে মামলাটির পরবর্তী বিচার কার্যক্রম অনুষ্ঠিত হবে। এছাড়া এদিন পলাতক অসামিদের আদালতে হাজির হওয়া সংক্রান্ত পত্রিকায় প্রকাশিত বিজ্ঞপ্তি দাখিলের জন্য দিন ধার্য ছিল। সে অনুযায়ী প্রতিবেদন দাখিল করা হয়। চকবাজার থানার আদালতের সাধারণ নিবন্ধন কর্মকর্তা পুলিশের উপ-পরিদর্শক মাজহারুল ইসলাম গণমাধ্যমকে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। এর আগে গতকাল রোববার আবরার হত্যার মামলার অন্যতম পলাতক আসামি মোর্শেদ আমত্য ঢাকা মহানগর হাকিম বেগম ইয়াসমিন আরার আদালতে আত্মসমর্পণ করে আইনজীবীর মাধ্যমে জামিনের আবেদন করেন। তবে আদালত তা নামঞ্জুর করে কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ দেন। চাঞ্চল্যকর এ হত্যার মামলার ৪ আসামিকে আদালতে হাজির হতে পত্রিকায় বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করেন আদালত। গত ৩ ডিসেম্বর পলাতক আসামিদের গ্রেফতার সংক্রান্ত তামিল প্রতিবেদন দাখিলের জন্য আদালত সময় নির্ধারণ করেন। ওই দিন আসামিরা পলাতক রয়েছে দেখিয়ে প্রতিবেদন দাখিল করে পুলিশ। এজন্য আদালত আসামিদের সম্পত্তি ক্রোক পরোয়ানা জারি করেছেন। কিন্তু তাদের ব্যক্তিগত কোনো মালামাল না থাকায় সম্পত্তি ক্রোক করা যায়নি। গত ১৩ নভেম্বর মামলার তদন্ত কর্মকর্তা ডিবি পুলিশের পরিদর্শক (নিরস্ত্র) মো. ওয়াহিদুজ্জামান ২৫ জনকে অভিযুক্ত করে আদালতে চার্জশিট দাখিল করেন। ১৮ নভেম্বর ডিবি পুলিশের দেয়া চার্জশিট গ্রহণ করেন আদালত। মোর্শেদ অমত্য ইসলাম, মুহাম্মদ মোর্শেদ-উজ-জামান মণ্ডল ওরফে জিসান, এহতেশামুল রাব্বি ওরফে তানিম ও মুজতবা রাফিদ পলাতক থাকায় আদালত আসামিদের বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করেন। প্রসঙ্গত, ভারতের সঙ্গে বাংলাদেশ সরকারের পানি-চুক্তির সমালোচনা করে ফেসবুকে স্ট্যাটাস দেয়ায় গত ৬ অক্টোবর রাতে ছাত্রলীগ নেতাকর্মীদের নির্যাতনের মুখে প্রাণ হারান বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ের (বুয়েট) ছাত্র আবরার ফাহাদ। ওই দিন রাত ৩টার দিকে শেরেবাংলা হলের নিচতলা ও দুইতলার সিঁড়ির করিডোর থেকে তার মরদেহ উদ্ধার করে পুলিশ। পরদিন দুপুর দেড়টার দিকে ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতাল মর্গে আবরারের ময়নাতদন্ত সম্পন্ন হয়। ফরেনসিক বিভাগের প্রধান ডা. সোহেল মাহমুদ লাশের ময়নাতদন্ত করেন। তিনি বলেন, ছেলেটিকে পিটিয়ে হত্যা করা হয়েছে। এই ঘটনায় আবরারের বাবা বরকত উল্লাহ বাদী হয়ে ১৯ জনকে আসামি করে রাজধানীর চকবাজার থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন। পরবর্তিতে মামলার তদন্তের স্বার্থে এজাহার বহির্ভুত কয়েকজনকেসহ আটক করে পুলিশ। এখন পর্যন্ত এ মামলায় ২২ জনকে গ্রেফতার করা হয়।
ধর্ষণের চিত্র ভয়াবহ বলছে মানবাধিকার কমিশন
১৩জানুয়ারী,সোমবার,নিজস্ব প্রতিবেদক,নিউজ একাত্তর ডট কম: দেশের ধর্ষণের ঘটনা সম্পর্কে জাতীয় মানবাধিকার কমিশনের চেয়ারম্যান নাছিমা বেগম বলেছেন, ধর্ষণের চিত্র ভয়াবহ রূপ ধারণ করেছে। এ ধরনের ঘটনার পুনরাবৃত্তি রোধে অভিযুক্তদের গ্রেফতার করে দ্রুততম সময়ের মধ্যে আদালতে সোপর্দ করতে হবে। সেইসঙ্গে যথাযথ প্রক্রিয়ায় তদন্ত সম্পন্ন করে, মামলার দ্রুত নিষ্পত্তির মাধ্যমে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি নিশ্চিত করতে হবে। সোমবার জাতীয় মানবাধিকার কমিশনের জনসংযোগ কর্মকর্তা ফারহানা সাঈদ স্বাক্ষরিত এক বার্তায় এসব কথা বলেন তিনি। মানবাধিকার কমিশনের চেয়ারম্যান বলেন, গণমাধ্যমে প্রকাশিত সংবাদে প্রতীয়মান হচ্ছে যে, নারী-শিশুর প্রতি সহিংসতা ও ধর্ষণ আশঙ্কাজনক হারে বৃদ্ধি পাচ্ছে। সামাজিক অস্থিরতা ও মানবিক মূল্যবোধের অবক্ষয়ের কারণে ধর্ষণের মতো ঘৃণ্য অপরাধের সংখ্যা দিন দিন বাড়ছে। বাংলাদেশ নারীর ক্ষমতায়নে বিশ্বে রোলমডেল হলেও ধর্ষণের ঘটনা তৃণমূল থেকে কেন্দ্র পর্যন্ত সবার মাঝে এক বিরূপ প্রতিক্রিয়ার সৃষ্টি করেছে। ঘরে-বাইরে, কর্মস্থলে, রেল, সড়ক, নৌ, আকাশ পথে- চলাচলের সব পথে নারীর নিরাপত্তা নিশ্চিত করা না গেলে নারীর ক্ষমতায়নে বিরূপ প্রভাবসহ বহির্বিশ্বে বাংলাদেশের অর্জিত সাফল্য ধরে রাখা কষ্টকর হয়ে পড়বে। আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর টহল জোরদার করার পাশাপাশি নারীর চলাচল নিরাপদ করার লক্ষ্যে গণপরিবহনে সিসি ক্যামেরা স্থাপনের কার্যকর পদক্ষেপ নিতে সড়ক পরিবহন ও সেতু মন্ত্রণালয় এবং পরিবহন মালিক সমিতির প্রতি আহ্বান জানান কমিশন চেয়ারম্যান।

জাতীয় পাতার আরো খবর