প্রকাশ্যে ভাঙা হল শ্যামাপ্রসাদ মুখোপাধ্যায়ের মূর্তি
ত্রিপুরা ও তামিলনাড়ুর পর ভারতের পশ্চিমবঙ্গেও মূর্তি ভাঙার ঘটনা ঘটল। কলকাতায় পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রীর বাড়ির কয়েকশো মিটারের মধ্যে বুধবার সকালে প্রকাশ্যে ভাঙা হল শ্যামাপ্রসাদ মুখোপাধ্যায়ের মূর্তি। কেওড়াতলা শ্মশান সংলগ্ন সিআর দাস পার্কে বুধবার সকালে এই ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় সাত তরুণ-তরুণীকে গ্রেপ্তার করেছে টালিগঞ্জ থানার পুলিশ। আটককৃতরা নিজেদের যাদবপুর বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রছাত্রী বলে দাবি করেছেন। আনন্দবাজার এক প্রতিবেদনে বলছে, সাত তরুণ-তরুণী হঠাৎ পার্কে ঢুকে হাতুড়ি দিয়ে ভাঙতে থাকেন শ্যামাপ্রসাদের আবক্ষ প্রস্তরমূর্তিতে। মুখের বেশ খানিকটা অংশ ক্ষতবিক্ষত হয়ে যায়। মূর্তিতে কালিও মাখিয়ে দেন তাঁরা। প্রত্যক্ষদর্শীরা জানিয়েছেন, সকাল আটটার দিকে স্লোগান দিতে দিতে পার্কের গেট টপকে ভেতরে ঢোকেন সাত তরুণ-তরুণী। তাদের হাতে ছিল পোস্টার। পার্কের ভেতরে শ্যামাপ্রসাদের মূর্তির সামনে এসে স্লোগান দিতে দিতে ছেনি-হাতুড়ি দিয়ে মূর্তিটি ভাঙতে শুরু করেন তারা। বেশ খানিকটা ভাঙাভাঙির পর মূর্তিতে কালি লেপে দেন। ত্রিপুরায় লেনিনের মূর্তি ভাঙার প্রতিক্রিয়া দেখাতেই শ্যামাপ্রসাদের মূর্তি ভাঙা হয়েছে বলে ধারণা পুলিশের। ঘটনাস্থলে যে পোস্টার মিলেছে তার নিচে নামের একটি সংগঠনের নাম লেখা ছিল। রাজ্য সরকার এবং প্রশাসনের পক্ষ থেকে এই ঘটনার তীব্র প্রতিক্রিয়া জানানো হয়েছে। কলকাতার পুলিশ কমিশনার রাজীব কুমার জানিয়েছেন, আটকদের বিরুদ্ধে কড়া আইনি পদক্ষেপ করা হবে। এ ধরনের তাণ্ডব কোনও মতেই বরদাস্ত করা হবে না। এদিকে মূর্তি ভাঙার খবর পেয়েই ঘটনাস্থলে যান স্থানীয় বিধায়ক এবং মন্ত্রী শোভনদেব চট্টোপাধ্যায় এবং স্থানীয় কাউন্সিলর মালা রায়। দুইজনেই এই ঘটনার নিন্দা জানান। শোভনদেব বলেন, এটা কোনো রাজনৈতিক দলের সংস্কৃতি হতে পারে না। লেনিনের মূর্তি ভাঙার প্রতিবাদে শ্যামাপ্রসাদের মূর্তি ভাঙব, এটা কোনও যুক্তি হতে পারে না। এই ধরনের অপপ্রয়াস রুখে দেব। সম্প্রতি ভারতের ত্রিপুরা রাজ্য নির্বাচনে জয়লাভ করেছে কেন্দ্রীয় সরকার নরেন্দ্র মোদির দল বিজেপি। আর এর মাধ্যমে ক্ষমতায় থাকা বামদের পতন হয়েছে। এরপরই সেখানে বিরাট লেলিন মূর্তি বুলডোজার দিয়ে গুড়িয়ে দেয় বিজেপি সমর্থকরা। এ ঘটনার সমালোচনা শেষ হতে না হতেই তামিলনাড়ুতে অবস্থিত দ্রাবিড় নেতা পেরিয়ার ইভা রামাস্বামীর মুর্তি ভেঙে ফেলা হয়। মঙ্গলবার রাতে তামিলনাড়ুর তিরুপাত্তুর শহরের এ মূর্তিতে হামলার ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় এক বিজেপি নেতাসহ দুজনকে আটক করেছে তামিলনাড়ু পুলিশ। এইচ রাজা নামের এক বিজেপি নেতার টুইট থেকে এ হামলার ঘটনা ঘটেছে বলে মনে করছে পুলিশ। এদিকে বিভিন্ন জায়গায় এসব মূর্তি ভাঙার ঘটনায় অসন্তোষ প্রকাশ করেছেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। তিনি এ ঘটনার নিন্দা জানিয়ে দোষীদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির অনুরোধ করেন। লেনিনের মূর্তি ভাঙার পর মোদী সরকারের প্রতি ইঙ্গিত করে পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বলেন, মূর্তিভাঙা গণতন্ত্রে নির্বাচিত দলের কাজ নয়। বামদের পক্ষে নয় জানিয়ে মমতা বলেন, আমি সিপিএমের পক্ষে নই, মার্ক্স বা লেনিন আমার নেতা নন। কিন্তু লেনিন, মার্ক্স একটা ব্যক্তিত্ব। গণতন্ত্র মানে জবরদখল নয়।
যুক্তরাষ্ট্রে শক্তিশালী ঘূর্ণিঝড়
যুক্তরাষ্ট্রের পূর্ব-উপকূলীয় অঞ্চলে শক্তিশালী ঘূর্ণিঝড়ের আঘাতে ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে বহু ঘর-বাড়ি ও রাস্তা-ঘাট। ঝড়ের কবলে পড়ে নিহত হয়েছেন অন্তত ৫ জন। শুক্রবার ঘূর্ণিঝড়ের প্রভাবে উত্তর-কেরোলিনা থেকে মানি পর্যন্ত প্রায় ১৬ লক্ষ বাসস্থানে বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়েছে বিদ্যুৎ সংযোগ। এতে চরম ভোগান্তিতে পড়েছেন বাসিন্দারা। ঝড়ে গাছপালা ভেঙ্গে ৫ জনের মৃত্যু হয়েছে বলে জানায় কর্তৃপক্ষ। এছাড়া বিভিন্ন স্থানে দেখা দিয়েছে বন্যা, সেই সাথে শুরু হয়েছে তীব্র তুষারপাত। এদিকে দেশটির ম্যাসাচুসেটস উপকূলে বেশ কিছু জায়গা ডুবে গেছে পানিতে। ফলে বন্ধ ঘোষণা করা হয়ে গেছে অনেক স্কুল ও ব্যবসা প্রতিষ্ঠান। দেশটির বোস্টনে ঝড়ে দুর্ঘটনা এড়াতে অন্তত আড়াই হাজার বিমানের ফ্লাইট বাতিল করেছে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ। তবে,পরিস্থিতি মোকাবিলায় কাজ করে যাচ্ছেন উদ্ধার কর্মীরা। এদিকে, গত কয়েকদিন ধরে চলা ইউরোপের বিভিন্ন অঞ্চলে তীব্র তুষার ঝড়ের ঠাণ্ডায় মৃতের সংখ্যা বেড়ে ৬০ জনে দাঁড়িয়েছে।
কুর্দিদের হামলায় তুরস্কের সেনা নিহত
সিরিয়ার উত্তর-পশ্চিমাঞ্চলে বৃহস্পতিবার তুরস্কের আট সৈন্য নিহত ও ১৩ জন আহত হয়েছেন। সেখানে কুর্দি মিলিশিয়ার বিরুদ্ধে অভিযান চালানোর সময় তাদের এসব সৈন্য নিহত হয়।বিষয়টি নিশ্চিত করেছে দেশটির সামরিক বাহিনী। খবর এএফপির। গত ২০ জানুয়ারি সিরিয়ার আফরিন অঞ্চলে পিপলস প্রটেকটিভ ইউনিটের (ওয়াইপিজি) বিরুদ্ধে আন্তসীমান্ত অভিযান শুরুর পর থেকে আঙ্কারার জন্য বৃহস্পতিবার ছিল সবচেয়ে ভয়াবহ দিন। তুরস্কের সামরিক বাহিনীর দুটি পৃথক বিবৃতিতে হতাহতের এ সংখ্যা জানানো হয়। প্রথম বিবৃতিতে বলা হয়, আফরিনে অভিযান চালানোর সময় আমাদের পাঁচ বীর সেনা শহীদ ও অপর সাত আহত হয়েছেন। এর পরপরই তাদের দেয়া দ্বিতীয় বিবৃতিতে বলা হয়, তুরস্ক সামরিক বাহিনীর আরো তিন সৈন্য নিহত ও ছয় সৈন্য আহত হয়েছেন। তবে এ ব্যাপারে বিস্তারিত আর কিছু বলা হয়নি। তুরস্কের প্রেসিডেন্টের মুখপাত্র ইব্রাহিম কলিন টুইটবার্তায় বলেন, আমরা আফরিনে শাহাদতবরণ করা আমাদের সৈন্যদের রুহের শান্তি কামনা করছি এবং তাদের পরিবারের সদস্যদের প্রতি গভীর শোক ও সমবেদনা জানাচ্ছি।
মিয়ানমারের সেনা সমাবেশে সীমান্ত এলাকায় আতঙ্ক
সন্ত্রাসী হামলার আশঙ্কায় বাংলাদেশ সীমান্তে নতুন করে সেনা মোতায়েন করা হয়েছে বলে দাবি করেছে মিয়ানমার। তারা বলেছে, বাংলাদেশের বিরোধিতা করা তাদের লক্ষ্য নয়। গতকাল শুক্রবার মিয়ানমার সরকারের মুখপাত্র জ হতে এএফপিকে এ কথা বলেন। বাংলাদেশ যত দ্রুত সম্ভব মিয়ানমারকে সেনা প্রত্যাহার করতে বলেছে। সেনা মোতায়েনের ঘটনায় দুই দেশের সীমান্তে উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়েছে। এ ঘটনা মিয়ানমারে রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসনের বিষয়টিকে বিলম্বিত করবে বলে ধারণা করা হচ্ছে। এএফপির খবরে জানানো হয়, দুই দেশের শূন্যরেখায় অবস্থান নেওয়া রোহিঙ্গাদের ঘিরে এ সপ্তাহে মিয়ানমার সেনাসমাবেশ বাড়িয়েছে। মিয়ানমারে সামরিক বাহিনীর নৃশংস অভিযানের কারণে গত বছরের আগস্ট মাসে দেশটি থেকে রোহিঙ্গারা পালিয়ে আসছে। এখন পর্যন্ত প্রায় সাত লাখ রোহিঙ্গা সীমান্ত দিয়ে পালিয়ে এসেছে। এর মধ্যে অধিকাংশ বাংলাদেশের কক্সবাজারে আশ্রয় নিয়েছে। শূন্যরেখায় এখন প্রায় ছয় হাজার রোহিঙ্গা আশ্রয় নিয়েছে। দেশ থেকে রোহিঙ্গা মুসলিমদের বিতাড়নে এ ঘটনা ঘটানো হচ্ছে বলে মিয়ানমারকে দোষারোপ করছে জাতিসংঘ। এ ধরনের অভিযানের বিষয়টি বরাবরই অস্বীকার করে আসছে মিয়ানমার। হঠাৎ করে সীমান্তে সেনাসংখ্যা বাড়ানোর বিষয়ে জ হতে বলেন, রোহিঙ্গা জঙ্গিদের তৎপরতা সম্পর্কে গোয়েন্দা তথ্য পাওয়া গেছে। তিনি বলেন, সন্ত্রাসী তৎপরতার তথ্যের ভিত্তিতে এ ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে। বিশেষ করে রোহিঙ্গা জঙ্গিগোষ্ঠী আরসার (আরাকান রোহিঙ্গা স্যালভেশন আর্মি) নতুন তৎপরতা সম্পর্কে তথ্য পাওয়া গেছে। সেনা মোতায়েনের বিষয়টি বাংলাদেশকে লক্ষ্য করে কিছু নয়। বৃহস্পতিবার বাংলাদেশের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, এ ঘটনায় ঢাকায় মিয়ানমারের রাষ্ট্রদূতকে তলব করে দ্রুত ওই এলাকা থেকে সামরিক উপকরণসহ সেনাদের সরিয়ে নিতে বলা হয়েছে। গত কয়েক সপ্তাহে শূন্যরেখায় আশ্রয় নেওয়া রোহিঙ্গারা মিয়ানমারের সেনাদের চাপের মধ্য রয়েছে। মাইকিং করে রোহিঙ্গাদের তারা শূন্যরেখা থেকে চলে যেতে বলেছে। বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি) ও রোহিঙ্গাদের দেওয়া তথ্য অনুসারে, গতকাল শূন্যরেখার পাশে নতুন করে আরও ১০০ সেনা ভারী অস্ত্রশস্ত্র নিয়ে টহল দেওয়া শুরু করে। গত জানুয়ারি মাসে দুই দেশের মধ্যে রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসন নিয়ে চুক্তি হয়। এর মধ্যে সীমান্তের এই উত্তেজনা প্রত্যাবাসনের বিষয়টিকে বাধাগ্রস্ত করতে পারে। ওই সময় প্রস্তুতির অভাবে রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসনের প্রক্রিয়াটি শেষ মুহূর্তে ঝুলে যায়। যথাযথ নিরাপত্তা ও নাগরিকত্বের বিষয়টি নিশ্চিত না করে মিয়ানমারে ফেরত যেতে অস্বীকৃতি জানিয়ে রোহিঙ্গা শরণার্থীদের বিক্ষোভ করে। মিয়ানমার সব সময় দাবি করে আসছে, রোহিঙ্গারা বাংলাদেশের নাগরিক। তারা অবৈধভাবে মিয়ানমারে প্রবেশ করে বাস করছে। রাখাইন রাজ্যে বংশপরম্পরায় বাস করে আসা রোহিঙ্গারা মিয়ানমারে সব ধরনের মৌলিক অধিকার ও সেবা থেকে বঞ্চিত রয়েছে।
হতাহতদের প্রতি জাতিসংঘ মহাসচিবের শোক
সাত বাংলাদেশি শান্তিরক্ষী হতাহতদের হওয়ার ঘটনায় গভীর শোক প্রকাশ করেছেন জাতিসংঘ মহাসচিব আন্তোনিও গুতেরেস। এ ঘটনায় বাংলাদেশ সরকার ও হতাহতদের পরিবারের প্রতি গভীর শোক ও সমবেদনা প্রকাশ করেছেনতিনি। স্থানীয় সময় বুধবার বেলা আড়াইটার দিকে পশ্চিম আফ্রিকার দেশ মালির মোপতি অঞ্চলে এ বোমা বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটে। এতে জাতিসংঘ শান্তিরক্ষা মিশনে থাকা বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর চার সদস্য নিহত এবং গুরুতর আহত হয়েছেন আরও অন্তত তিনজন। জাতিসংঘ মহাসচিব গুতেরেস এই হামলাকে কাপুরুষোচিত বলেও উল্লেখ করেছেন এবং আহতদের দ্রুত আরোগ্য কামনা করেছেন। একই সঙ্গে হামলাকারীদের বিরুদ্ধে হুঁশিয়ারি উচ্চারণ করেছেন গুতেরেস। বিবৃতিতে তিনি বলেন, জাতিসংঘ শান্তি মিশনের কর্মীদের লক্ষ্য করে যারা এসব হামলা চালাচ্ছে আন্তর্জাতিক আইনে তারা যুদ্ধাপরাধী হিসেবে বিবেচিত এবং এজন্য তাদেরকে কঠিন বিচারের সম্মুখীন হতে হবে। এসময় তিনি আরো বলেন, এসব হামলা সত্ত্বেও মালিতে স্থিতিশীলতা প্রতিষ্ঠা এবং সাধারণ মানুষের নিরাপত্তা নিশ্চিত করার জন্য দেশটির সরকারের প্রচেষ্টার প্রতি জাতিসংঘের সমর্থন অব্যাহত থাকবে। নিহতরা হলেন- ওয়ারেন্ট অফিসার আবুল কালাম (পিরোজপুর), ল্যান্স কর্পোরাল আকতার (ময়মনসিংহ), সৈনিক রায়হান (পাবনা) ও সৈনিক জামাল (চাঁপাইনবাবগঞ্জ)। আহতরা হলেন- কর্পোরাল রাসেল (নওগাঁ), সৈনিক আকরাম (রাজবাড়ী), সৈনিক নিউটন (যশোর) ও সৈনিক রাশেদ (কুড়িগ্রাম)।
পরমাণু চালিত যুদ্ধবিমানবাহী রণতরী তৈরি করছে চীন
চীনের সরকারি কাগজ গ্লোবাল টাইমস জানিয়েছে, পরমাণু চালিত যুদ্ধবিমানবাহী রণতরী তৈরি করছে চীন। রাষ্ট্রায়ত্ত চায়না শিপবিল্ডিং ইন্ডাস্ট্রি কর্পোরেশন অবশ্য ওই রিপোর্ট নিয়ে কোনো মন্তব্য করেনি। তারা শুধু বলেছে, প্রযুক্তিগত উন্নতির মাধ্যমে ২০২৫ সালের মধ্যেই চীনের নৌবাহিনীকে আধুনিকভাবে গড়ে তোলা সম্ভব হবে। গ্লোবাল টাইমস লিখেছিল, রণতরী ছাড়াও অত্যাধুনিক সাবমেরিন ও পানির তলায় স্বয়ংক্রিয় নিরাপত্তা ব্যবস্থা গড়ে তোলার কাজ চলছে। এই সিএসআইসি চীনের রণতরী নির্মাণের কাজ করে। এদের কর্মসূচি সম্পূর্ণ গোপন রাখা হয়। এদিকে, ভারতকে ঘিরে ধরতে চাইছে চীন। সেই লক্ষ্যেই ভারত মহাসাগরে তৎপরতা বাড়াচ্ছে বেইজিং। অভিমত মার্কিন সামরিক কর্তার। সেন্ট্রাল কমান্ডের কমান্ডার জেনারেল জোসেফ ভোটেল বলেছেন, বেল্ট অ্যান্ড রোড ইনিশিয়েটিভ অর্থনীতির পাশাপাশি চীনের সামরিক অবস্থানকেও মজবুত করবে। ভোটেল বলেন, ইরানের সঙ্গেও অর্থনৈতিক ও কূটনৈতিক সম্পর্ক ভালো করতে চাইছে চীন। যেহেতু উপসাগরীয় দেশগুলি থেকে নিজেদের প্রয়োজনের এক-তৃতীয়াংশ জ্বালানি সংগ্রহ করতে হয়, তাই ওই দেশগুলির সঙ্গে সম্পর্ক ভালো করছে চীন। পাকিস্তানের গদর পোর্ট ও জিবুতি বন্দরের মাধ্যমে চীন ভারত মহাসাগরে নিজেদের উপস্থিতি জোরদার করতে চাইছে বলে দাবি করেছেন মার্কিন সেনা কর্তা। মার্কিন নৌঘাঁটিতে রহস্যজনক চিঠি, অসুস্থ ১১ চিঠির খাম খুলতেই অসুস্থ হয়ে পড়লেন ১১ জন নৌবাহিনী। ওয়াশিংটনের কাছে একটি সেনাঘাঁটিতে ঘটনাটি ঘটেছে। ঘটনার তদন্ত শুরু করে দিয়েছে এফবিআই। মঙ্গলবার ভার্জিনিয়ার জয়েন্ট বেস ফোর্ট মায়ার-হেন্ডারসন হলে এক সেনা অফিসার একটি খাম পান। চিঠিটি মেরিন সদর দপ্তরের ঠিকানায় লেখা ছিল। সেনারা খামটি খোলার পর তাদের হাত চুলকাতে শুরু করে। কয়েক মিনিটের মধ্যে নাক ও মুখমণ্ডল দিয়ে রক্ত বের হতে থাকে। কমপক্ষে ১১ জন নৌসেনা এই ঘটনায় অসুস্থ হয়ে পড়েন। তাদের হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। তাদের মধ্যে তিনজনের অবস্থা স্থিতিশীল। খামটিতে ক্ষতিকারক কিছু ছিল বলে মনে করা হচ্ছে। তবে নিশ্চিত হতে চিঠির খামটি পরীক্ষার জন্য গবেষণাগারে পাঠানো হয়েছে। এদিকে নেভাল ক্রিমিনাল ইনভেস্টিগেটিভ সার্ভিস ও এফবিআই ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে।
মার্কিন প্রেসিডেন্ট নোবেল পুরস্কারের মনোনয়ন 'ভুয়া ' প্রমাণিত
মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পকে শান্তিতে নোবেল পুরস্কার দেওয়ার ব্যাপারে একটি মনোনয়ন ভুয়া বলে প্রমাণিত হয়েছে। এই জালিয়াতির ব্যাপারে নোবেল কমিটি নরওয়ের পুলিশের কাছে অভিযোগ করেছে বলে জানা যাচ্ছে। অজ্ঞাতপরিচয় একজন আমেরিকান 'বল প্রয়োগের মাধ্যমে বিশ্ব শান্তি' আনার জন্য ট্রাম্পের নাম নোবেল কমিটির কাছে পাঠিয়ে দেন বলে খবরে বলা হচ্ছে। অসলোর নোবেল ইন্সটিটিউটের পরিচালক ওলাভ নিওলস্টাড স্থানীয় সংবাদমাধ্যমকে বলেন, 'আমাদের স্থির বিশ্বাস যে এই মনোনয়ন জাল। এ ধরনের 'ভুয়া মনোনয়ন' আমরা গত বছরও দেখেছি।' নোবেল কমিটির বিবেচনার জন্য প্রতিবছর মনোনয়ন পাঠানোর শেষ তারিখ ৩১ জানুয়ারি। অক্টোবর মাসের গোঁড়ার দিকে এই পুরস্কার ঘোষণা করা হয়। আর প্রার্থীদের মনোনয়নের কাজটা চরম গোপনীয়তার মধ্যে চালানো হয়। সরকারি কর্মকর্তা, সংসদ সদস্য, সাবেক নোবেল বিজয়ী, বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষকসহ নির্বাচিত কিছু ব্যক্তিত্ব এই মনোনয়ন পাঠাতে পারেন। সম্প্রতি ২০১৭ সালের নোবেল পুরস্কার পেয়েছিল পরমাণু অস্ত্র-বিরোধী সংগঠন আইসিএএনডাব্লিউ। মার্কিন প্রেসিডেন্টদের মধ্যে বারাক ওবামা এবং বিল ক্লিনটন এই সম্মান অর্জন করেন। বিবিসি বাংলার রিপোর্ট
মালিতে বোমা বিস্ফোরণে ৪ বাংলাদেশি শান্তিরক্ষী নিহত
পশ্চিম আফ্রিকার মালিতে মাইন বিস্ফোরণে জাতিসংঘ শান্তিরক্ষী বাহিনীতে নিয়োজিত বাংলাদেশের চার সেনাসদস্য নিহত হয়েছেন। আহত হয়েছেন আরও চার সেনা। স্থানীয় সময় বুধবার বেলা আড়াইটার দিকে দোয়েঞ্জা এলাকায় এই বিস্ফোরণ ঘটে বলে জানিয়েছে বাংলাদেশের আন্তবাহিনী জনসংযোগ পরিদপ্তর (আইএসপিআর)। নিহত সেনাসদস্যরা হলেন ওয়ারেন্ট অফিসার আবুল কালাম, পিরোজপুর (৩৭ এডি রেজিঃ আর্টিঃ), ল্যান্স কর্পোরাল আকতার, ময়মনসিংহ (৯ ফিল্ড রেজিঃ আর্টিঃ), সৈনিক রায়হান, পাবনা (৩২ ইবি), সৈনিক (পাচক) জামাল, চাঁপাইনবাবগঞ্জ (৩২ ইবি)। আহত চার সেনা সদস্যরা হলেন কর্পোরাল রাসেল, নওগাঁ (৩২ ইবি), সৈনিক আকরাম, রাজবাড়ী (৩২ ইবি), সৈনিক নিউটন, যশোর, সৈনিক রাশেদ, কুড়িগ্রাম (৩২ ইবি)। তাঁরা চিকিৎসাধীন। মালিতে নিয়োজিত বাংলাদেশের অন্য শান্তিরক্ষীরা নিরাপদে আছেন বলে জানিয়েছে আইএসপিআর।
আবারো ৬ মাত্রার ভূমিকম্প পাপুয়া নিউ গিনিতে
পাপুয়া নিউ গিনির পরগেরার ১১১ কিলোমিটার দক্ষিণপশ্চিমে বুধবার একটি শক্তিশালী ভূমিকম্প আঘাত হেনেছে। রিখটার স্কেলে এর মাত্রা ছিল ৬.০। মার্কিন ভূতাত্ত্বিক জরিপ সংস্থা একথা জানিয়েছে। খবর সিনহুয়ার। ভূমিকম্পটির উৎপত্তিস্থল ছিল ৬.১৭১৬ ডিগ্রী দক্ষিণ অক্ষাংশ থেকে ১৪২.৪৭৪৯ ডিগ্রী পূর্ব দাঘিমাংশে ভূ-পৃষ্ঠের ১০ কিলোমিটার গভীরে। এর আগে গত সোমবার ৭.৫ মাত্রার ভূমিকম্প দেশটির পার্বত্য অঞ্চলে পোরগেরা থেকে ৯০ কিলোমিটার দক্ষিণে আঘাত হানে। দেশটির এনগা প্রদেশে সোমবার ভোরে এই ভূমিকম্প হয়। যে দুর্ঘটনায় ৩০ জনেরও বেশি লোক প্রাণ হারিয়েছে বলে আশঙ্কা করা হয়েছে।

আন্তর্জাতিক পাতার আরো খবর