রবিবার, জুলাই ১৫, ২০১৮
বিপজ্জনক আগ্নেয়গিরি এগিয়ে যাচ্ছে ভূমধ্যসাগরের দিকে
ইউরোপের সবচেয়ে বিপজ্জনক আগ্নেয়গিরি মাউন্ট এট্‌না ধীরে ধীরে সমুদ্রের দিকে এগিয়ে যাচ্ছে বলে জানিয়েছেন বিজ্ঞানীরা। বিজ্ঞানীরা জানিয়েছেন সিসিলি দ্বীপের ওপর এই আগ্নেয়গিরি বছরে ১৪ মিলিমিটার করে ভূমধ্যসাগরের দিকে এগিয়ে যাচ্ছে। ড. জন মার্ফি মাউন্ট এট্‌না সম্পর্কে এই গবেষণা চালিয়েছেন প্রায় ৫০ বছর ধরে। এই গবেষণায় তিনি এই পর্বতের নানা জায়গায় জিপিএস স্টেশন বসিয়েছেন। সামান্য নড়াচড়া হলেও এই স্টেশনের যন্ত্রে তা ধরা পড়বে। ব্রিটেনের ওপেন ইউনিভার্সিটির ভূবিজ্ঞানের গবেষক ড. জন মার্ফি বলছেন, মাউন্ট এট্‌নার এই সরে যাওয়ার দিকে সতর্কভাবে নজর রাখতে হবে। কারণ এর ফলে নানা ধরনের ঝুঁকি তৈরি হওয়ার শঙ্কা রয়েছে। সাধারণ বিবেচনায় বছরে ১৪মি.মি. -- কিংবা ১০০ বছরে ১.৪ মিটার -- সরে যাওয়া খুব বেশি বলে মনে নাও হতে পারে। সূত্র-বিবিসি কিন্তু ঘুমন্ত আগ্নেয়গিরি, যাদের মধ্যে আগে এধরনের প্রবণতা দেখা গিয়েছে, তাদের কারণে মারাত্মক ভূমিধ্স নানা ধরনের সঙ্কট তৈরি হয়েছে বলে ভূবিজ্ঞানীরা জানিয়েছেন। এসব যন্ত্র থেকে গত ১১ বছরে উপাত্ত থেকেই বিজ্ঞানীরা এখন বলছেন যে মাউন্ট এট্‌না এখন দক্ষিণ-পূর্বমুখী হয়ে একটু একটু করে ভূমধ্যসাগরের দিকে সরে যাচ্ছে।
মিয়ানমারের নতুন প্রেসিডেন্ট হচ্ছেন উইন মিন্ট
মিয়ানমারের বর্তমান প্রেসিডেন্ট ইউ টিন কিয়াউ পদত্যাগ করায় পরবর্তী প্রেসিডেন্ট হতে যাচ্ছেন দেশটির নিম্নকক্ষের সাবেক স্পিকার উইন মিন্ট। এ উপলক্ষে প্রথম পদক্ষেপ হিসেবে শুক্রবার তাকে ভাইস প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত করা হয়েছে। মিয়ানমারে ভাইস প্রেসিডেন্টের পদ তিনটি। তার মধ্যে একটি খালি ছিল। নিম্নকক্ষে সু চির দল এনএলডি সংখ্যাগরিষ্ঠ হিসেবে উইন মিন্টকে ভাইস প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত করেছে। তিনিই দেশটির আগামী প্রেসিডেন্ট হতে যাচ্ছেন। বৃহস্পতিবার ব্যক্তিগত কারণ দেখিয়ে পদত্যাগ করেন মিয়ানমারের প্রেসিডেন্ট ইউ টিন কিয়াউ। তিনি সু চির অনুগত ছিলেন। একইভাবে নতুন প্রেসিডেন্টও নামমাত্র প্রেসিডেন্ট থাকবেন। মূলত নির্বাহী ক্ষমতা সু চির হাতেই থাকবে। ২০১৬ সালে এনএলডি ক্ষমতায় আসার পর থেকে স্টেট কাউন্সেলর হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন সু চি। ৬৬ বছর বয়সী মিয়ানমারের হবু প্রেসিডেন্ট উইন মিন্ট এনএলডির একজন বিশ্বস্ত ও প্রভাবশালী সদস্য। রাজনীতিক হিসেবে তিনি জেলও খেটেছেন। ১৯৯০ সালের পার্লামেন্ট নির্বাচনে তিনি একজন সফল প্রার্থী ছিলেন। কিন্তু সে নির্বাচন সামরিক জান্তা বাতিল ঘোষণা করে। মিয়ানমারের সংবিধান অনুসারে, কোনো প্রেসিডেন্টের মৃত্যু হলে বা অবসরে গেলে ভারপ্রাপ্ত হিসেবে প্রথম ভাইস প্রেসিডেন্ট ক্ষমতা পাবেন। এরপর নতুন ভাইস প্রেসিডেন্ট নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। এরপর তিনজন ভাইস প্রেসিডেন্টের মধ্য থেকে প্রেসিডেন্ট নির্বাচন করা হবে। সেনাবাহিনীর সাবেক জেনারেল মুইন্ট সয়ে এখন প্রথম ভাইস প্রেসিডেন্ট। ফলে তিনিই এখন ভারপ্রাপ্ত প্রেসিডেন্ট হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন। আর পরবর্তী ৭ দিনের মধ্যে দেশটির পার্লামেন্ট নতুন প্রেসিডেন্ট নিয়োগ হচ্ছেন মিন্ট।
কলকাতা-বরিশালের বাস পরিষেবা শুরু হচ্ছে খুব শিগগিরই
খুব শিগগিরই কলকাতার সঙ্গে সরাসরি বরিশালের বাস পরিষেবা শুরু হচ্ছে। কলকাতা-বরিশালের পর কলকাতা-চট্টগ্রামের আরো একটা নতুন রুটের দরপত্রও ছাড়া হয়ে গিয়েছে। চলতি বছরে কলকাতা-বরিশাল-কলকাতা রুটের বাস চলতে পারে। তবে পদ্মা সেতু উদ্বোধন হলে চলবে চট্টগ্রাম-কলকাতা-চট্টগ্রাম রুটের বাস। সংশ্লিষ্ট সূত্র জানিয়েছে, বুধবার কলকাতার ইকো-পার্ক গেষ্ট হাউজে নতুন এই রুট নিয়ে দুই দেশের প্রতিনিধিদের মধ্যে গুরুত্বপূর্ণ বৈঠক হয়। সেখানে কলকাতা-বরিশাল-কলকাতা রুটের বাস চলাচলে রাজ্য সরকারের সবুজ সংকেত পাওয়া যায়। পশ্চিমবঙ্গ সরকার বিষয়টি দিল্লিকে আনুষ্ঠানিকভাবেও জানায়। ওই বৈঠকে বাংলাদেশ সরকারের প্রতিনিধিরাও উপস্থিত ছিলেন। দিল্লি ও ঢাকার মধ্যে খুব শিগগির বিষয়টি নিয়ে চুড়ান্ত সিদ্ধান্ত হয়ে যেতে পারে। এর আগে রাজ্যের পরিবহন সচিব আলাপন বন্দ্যোপাধ্যায় জানিয়েছিলেন, বাংলাদেশ বন্ধু দেশ। ইতিমধ্যেই দেশটির সঙ্গে পশ্চিমবঙ্গ রাজ্যের সড়কপথ, আকাশ পথ, রেল পথের যোগাযোগ আগের যে কোনও সময়ের তুলনায় বেড়েছে। আগামীতে জল পথেও যোগাযোগ বাড়ানোর পরিকল্পনা আছে। কলকাতা-বরিশাল রুটের যাত্রীপরিবহন করবে শ্যামলী যাত্রী পরিবহন। সংস্থাটির কর্ণধার অবণী ঘোষ জানিয়েছেন, বুধবারের বৈঠকে বাংলাদেশের বিআরটিসির চেয়ারম্যান, সচিব ছাড়াও বিজিবি এবং স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের প্রতিনিধিরাও উপস্থিত ছিলেন। দিল্লির পরিবহন মন্ত্রণালয়ের শীর্ষ কর্মকর্তা এবং পশ্চিমবঙ্গ পরিবহন দফতরের কর্মকর্তারাও বৈঠকে ইতিবাচক আলোচনা করেন। আগামী অক্টোবর-নভেম্বর মাসে ঢাকায় ত্রিপাক্ষিক বৈঠকে নতুন রুট কলকাতা-বরিশাল-কলকাতা চুড়ান্ত হবে। তিনি আরো জানান, পদ্মসেতুর উদ্বোধন হলেই কলকাতা-চট্টগ্রাম-কলকাতা রুটের বাসও শুরু হবে। ইতিমধ্যে এই বিষয়ে দরপত্রও আহবান করা হয়েছে। কলকাতা-ঢাকা-কলকাতা, কলকাতা-ঢাকা-আগরতলা-কলকাতা এবং কলকাতা-খুলনা-ঢাকা-কলকাতা এই মোট চারটি আন্তর্জাতিক রুটে এই মুহুর্তে বাস চলাচল করছে।
চীন-রাশিয়ার বাণিজ্য বেড়েছে গেলো বছরে ২০ শতাংশ
গেলো বছর চীন আর রাশিয়ার অভ্যন্তরীণ বাণিজ্য ২০ শতাংশ বেড়েছে। এমনটাই জানিয়েছেন চীনা প্রধানমন্ত্রী লি কেকিয়াং। বেইজিংয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি আরো বলেন, চীন ও রাশিয়ার ব্যবসায়িত সম্পর্ক দিনদিনই জোরদার হচ্ছে। বিশ্বের গুরুত্বপূর্ণ দুই অর্থনীতির দেশের বাণিজ্য বর্তমানে ৮ হাজার কোটি ডলার। যা শিগগিরিই ১০ হাজার কোটি ডলারে পৌঁছাবে বলেও জানান তিনি। তবে বিশ্বের কাঁচামাল আমদানির বাজার অস্থিতিশীল হওয়ায় তা দুই দেশের জন্য হুমকি বলেও জানান তিনি। রাশিয়ায় চীনের রফতানি বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৪ হাজার ২শ' কোটি ডলার। রাশিয়ার প্রধানমন্ত্রী দিমিত্রি মেদভেদেভ মনে করেন, বর্তমান অবস্থা অব্যাহত থাকলে আগামী কয়েক বছরে এ বাণিজ্য ২০ হাজার কোটি ডলার ছাড়িয়ে যাবে।
পার্লামেন্ট ভবনে টিয়ার গ্যাস ছুড়লেন বিরোধী সাংসদরা
মন্টিনিগ্রোর সঙ্গে সীমান্ত নিয়ে ভোটাভুটি বন্ধ করতে কসাভোর পার্লামেন্ট ভবনে টিয়ার গ্যাস ছুড়েছেন বিরোধী দলীয় সাংসদরা। বুধবার দেশটির সংসদে এ ঘটনা ঘটে বলে জানিয়েছে ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম দ্য ইন্ডিপেন্ডেন্ট। সংবাদমাধ্যমটির প্রতিবেদনে বলা হয়, রাজনৈতিক দলের নেতারা যাতে পার্লামেন্ট কক্ষ ত্যাগ করেন সেজন্য তিন ক্যানিস্টার টিয়ার গ্যাস ছোড়েন সেল্ফ ডিটারমিনেশন মুভমেন্ট পার্টির এমপিরা। ২০১৫ সালের ওই চুক্তি বাস্তবায়নে সংসদে বিল পাস করতে ওই ভোট অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছিল। বিলটি পাস হতে ১২০টি সিটের এক তৃতীয়াংশ ভোটের দরকার ছিল। মুভমেন্ট পার্টির দাবি, এই বিল পাস হলে কসাভো ২০ হাজার একর জায়গা হারাবে। তবে তাদের এ দাবির সঙ্গে বিরোধী মত প্রকাশ করেছেন বিশেষজ্ঞরা। কসাভোতে যুক্তরাষ্ট্রের রাষ্ট্রদূত গ্রেগ দেলউই এ ঘটনার নিন্দা জানিয়েছেন। এক টুইটে তিনি লেখেন, সাংসদদের একত্রিত হয়ে আজকের মধ্যেই এ ভোট শেষ করার আহ্বান জানাচ্ছি আমি। ইউরোপীয় ইউনিয়নের পক্ষ থেকেও এ ঘটনার নিন্দা জানানো হয়েছে।
পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রীর হঠাৎ যুক্তরাষ্ট্র সফর
উত্তেজনার মধ্যেই হঠাৎ ছয় দিনের ব্যক্তিগত সফরে যুক্তরাষ্ট্র সফরে গেছেন পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী শাহিদ খাকান আব্বাসি। তার এ সফরের উদ্দেশ্য নিয়ে পাকিস্তানে নানা জল্পনার সৃষ্টি হয়েছে। সফর উদ্দেশ্যে মঙ্গলবার পাকিস্তান ত্যাগ করেন আব্বাসি। পাকিস্তানের ক্ষমতাসীন দল মুসলিম লিগ বিশেষ করে শরিফ পরিবার বর্তমানে নানামুখী রাজনৈতিক সংকট মোকাবেলা করছে। এজন্য এ সফরে ট্রাম্প প্রশাসনের শক্তিশালী ব্যক্তিদের সঙ্গে গুরুত্বপূর্ণ বিষয়ে আলোচনা হতে পারে। খবর রেডিও তেহরানের। তবে পাক প্রধানমন্ত্রীর এ সফর নিয়ে তার দফতর থেকে আনুষ্ঠানিকভাবে কোনো তথ্য জানানো হয়নি। আব্বাসির ঘনিষ্ঠ সূত্র থেকে অনানুষ্ঠানিক জানানো হয় যে, ফিলাডেলফিয়ায় পাক প্রধানমন্ত্রীর এক বোনের অপারেশন হওয়ার কথা রয়েছে। বৃহস্পতিবার এ অপারেশন হবে এবং তাকে দেখতে এ সফরে গেছেন তিনি। এদিকে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে আগে কূটনৈতিক দায়িত্বপালন করেছেন এমন এক পাক কর্মকর্তা ভিন্ন মন্তব্য করেন। তিনি বলেন, কূটনৈতিক লক্ষ্য অর্জনকে সামনে রেখে অনেক সময়ই রাষ্ট্র বা সরকারপ্রধানরা খানিকটা চুপিসারে সফর করেন।
শুধু মৃত্যুই পারবে আমাকে রাজ্য শাসন থেকে সরাতে
আন্তর্জাতিক অঙ্গনে এখন বেশ পরিচিত মুখ সউদী আরবের যুবরাজ মোহাম্মাদ বিন-সালমান। ধর্মীয় রীতি-নীতির দিক থেকে কঠোর এ দেশটিতে সংস্কারের ছোঁয়া এনেছেন তিনিই। এতে অনেকেরই প্রশাংসা কুড়িয়েছেন সালমান। আবার অনেকেই করেছে সমালোচনা। তবে সমালোচকদের জবাবে সউদী যুবরাজ বলেছেন, শুধু মৃত্যুই পারবে তাকে রাজ্য শাসন থেকে সরাতে। গত রোববার যুক্তরাষ্ট্রে রাষ্ট্রীয় ভ্রমণকালে এক ঘণ্টার প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে এ কথা বলেন মোহাম্মাদ বিন-সালমান। সংবাদমাধ্যম আল-জাজিরার খবরে যুবরাজের বক্তব্যগুলো তুলে ধরা হয়। মোহাম্মদ বিন সালমান বলেন, একমাত্র মৃত্যুই পারবে আমাকে রাজ্য শাসন থেকে সরাতে। একমাত্র আল্লাহ বলতে পারেন মানুষ কতদিন জীবিত থাকবেন। সবকিছু যদি স্বাভাবিক থাকে তবে ক্ষমতা থেকে আমাকে কেউ সরাতে পারবেন না আশা করি। সালমান আরও বলেন,গত বছরে শুরু হওয়া দুর্নীতি দমন অভিযানে এখন পর্যন্ত ১০০ বিলিয়ন ডলার পুনরুদ্ধার হয়েছে। এখন পর্যন্ত যা করেছি তা সবই প্রয়োজন ছিলো। আইন অনুযায়ী প্রতিটি পদক্ষেপ নেওয়া হয়েছে বলে জানান মোহাম্মাদ। সূত্র : ওয়েবসাইট।
আবারও রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত পুতিন
আবারও রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত হয়েছেন ভ্লাদিমির পুতিন। ভোট গণনা শেষে রাশিয়ার কেন্দ্রীয় নির্বাচন কমিশন জানিয়েছে, পুতিন ৭৬ শতাংশেরও বেশি ভোট পেয়ে নির্বাচিত হয়েছেন। এ জয়ের ফলে আরো ছয় বছর রাশিয়াকে নেতৃত্ব দেওয়ার সুযোগ পেলেন পুতিন। প্রেসিডেন্ট কিংবা প্রধানমন্ত্রী হিসেবে আনুষ্ঠানিকভাবে ২০০০ সাল থেকে রাষ্ট্র পরিচালনা করে আসছেন তিনি। আন্তর্জাতিক সংবাদ মাধ্যম বিবিসি জানিয়েছে, নির্বাচনের আনুষ্ঠানিক ফলাফলে দেখা যায়, পুতিন ৭৬ শতাংশেরও বেশি ভোট পেয়েছেন। তাঁর নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী বামপন্থী দলের নেতা পাভেল গ্রুদিনিন পেয়েছেন ১২ শতাংশ ভোট। কিন্তু রোববার অনুষ্ঠিত এই নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করতে পারেননি পুতিনের প্রধান প্রতিদ্বন্দ্বী রাশিয়ার প্রধান বিরোধীদলীয় নেতা অ্যালেক্সি নাভালনি। জালিয়াতির মামলায় দোষী সাব্যস্ত হওয়ায় নির্বাচনে অংশ নিতে পারেননি তিনি। ইউক্রেন থেকে বিচ্ছিন্ন করে রাশিয়ার অংশ হওয়ার পর প্রথমবারের মতো রাশিয়ার এই নির্বাচনে অংশ নিয়েছে ক্রিমিয়াবাসী। নির্বাচনের ফলাফলে দেখা যায়, পুতিনের জনপ্রিয়তা আরো বেড়ে গেছে। এর আগে ২০১২ সালের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে তিনি ৬৪ শতাংশ ভোট পেয়ে বিজয়ী হয়েছিলেন। এবার তার থেকে ১২ শতাংশ বেশি ভোট পেয়েছেন তিনি। উল্লেখ্য, ২০০০ সালে প্রথম প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত হওয়ার পর থেকে পুতিন টানা দুই মেয়াদে প্রেসিডেন্ট, এরপর এক মেয়াদে প্রধানমন্ত্রী থাকার পর ফের টানা দুই মেয়াদ প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত হলেন। নির্বাচনের প্রাথমিক ফল ঘোষিত হওয়ার পর রাজধানী মস্কোয় এক সমাবেশে ভাষণ দিয়েছেন পুতিন। এতে তিনি বলেন, গত কয়েক বছরের অর্জনকে স্বীকৃতি দিয়েছেন ভোটাররা। ভোটের ফল ঘোষনার পর সাংবাদিকদের সঙ্গে কথা বলার সময় ছয় বছর পর আবারো প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে তিনি দাঁড়াবেন কিনা এমন প্রশ্নে তিনি হেসে ফেলেন। তিনি বলেন, আপনারা যা বলছেন তা কিছুটা মজার। আপনার কি মনে করেন ১০০ বছর না হওয়া পর্যন্ত আমি এখানে থাকবো? মোটেই না!