শুক্রবার, এপ্রিল ১৬, ২০২১
যারা ভাস্কর্য নিয়ে কথা বলছেন তারা ধর্ম ব্যবসায়ী: হানিফ
১৯ডিসেম্বর,শনিবার,নিজস্ব প্রতিবেদক,নিউজ একাত্তর ডট কম: আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহবুব-উল আলম হানিফ বলেছেন, যারা ভাস্কর্য নিয়ে কথা বলছেন-তারা ধর্ম ব্যবসায়ী। শনিবার (১৯ ডিসেম্বর) দুপুরে কাজীর দেউড়িস্থ ইন্টারন্যাশনাল কনভেনশন সেন্টারে বঙ্গবন্ধু শিশু কিশোর মেলা, চট্টগ্রাম মহানগরের উদ্যোগে আয়োজিত কৃতী শিক্ষার্থী সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন। তিনি বলেন, তথাকথিত ধর্ম ব্যবসায়ীরা ধর্মের ভুল ব্যাখ্যা করছেন। তারা বলছেন আলেমদের সম্মান দিয়েই কথা বলতে। কিন্তু যারা ধর্মের অপব্যাখ্যা করেন তাদের কে সম্মান দিয়ে কথা বলবে? বঙ্গবন্ধু শিশু কিশোর মেলা চট্টগ্রাম মহানগর শাখার সভাপতি সাজ্জাত হোসেনের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন চসিক মেয়র প্রার্থী রেজাউল করিম চৌধুরী, কেন্দ্রীয় যুবলীগ সদস্য তৌফিকুর রহমান, দক্ষিণ জেলা মহিলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক লুবনা হারুন, কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি মঈনুদ্দিন হাসান চৌধুরী প্রমুখ।
নতুন উদ্যমে যাত্রা শুরু করছে- সিটি হল কনভেনশন সেন্টার
১৮ডিসেম্বর,শুক্রবার,নিজস্ব প্রতিবেদক,নিউজ একাত্তর ডট কম: অত্যাধুনিক কমিউনিটি সেন্টার সিটি হল কনভেনশন সেন্টার নতুন উদ্যমে যাত্রা শুরু করছে রোববার (২০ ডিসেম্বর)। সরকারের স্বাস্থ্য বিভাগ ও বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার নির্দেশিত করোনাপ্রতিরোধী সব সুরক্ষা ব্যবস্থা নিশ্চিত করেই সামাজিক ও করপোরেট অনুষ্ঠানের জন্য কনভেনশন সেন্টারটি খুলে দেওয়া হচ্ছে। সিটি হল কনভেনশন সেন্টারের ইভেন্ট ম্যানেজার মাসুদ হাসান জানান, ৪২ হাজার বর্গফুটের বিশ্বমানের এ কনভেনশন সেন্টারে একসঙ্গে ৩ হাজার অতিথির খাওয়ার ব্যবস্থা করা যাবে। এক বেলায় ১২ হাজার অতিথির ভোজের আয়োজন করা যায় এ সেন্টারে। কনভেনশন সেন্টারের সঙ্গে নবযাত্রা হচ্ছে মোগল ক্যাটারিং সার্ভিসেরও। ২০১৬ সালে চালু হওয়া বাণিজ্যিক রাজধানী চট্টগ্রামের প্রাণকেন্দ্র আগ্রাবাদের অ্যাক্সেস রোডের ছোটপুল এলাকার কনভেনশন সেন্টারটিতে চট্টগ্রামের ঐতিহ্যবাহী মেজবান, বিয়ে, আকদ, বৌভাত, ওয়ালিমা, গায়েহলুদ, জন্মদিন, বার্ষিকী, কনভেনশন, কনফারেন্স, টেলি কনফারেন্স, ব্যবসায়িক সভা, এজিএম, ট্রেনিং, প্রমোশন, প্রেজেন্টেশন, এক্সিবিশন, সেমিনার, সিম্পোজিয়াম, মেলাসহ সব ধরনের অনুষ্ঠান করা যাবে। চালুর পর দ্রুত জনপ্রিয় হয়ে ওঠা সিটি হল কনভেনশন সেন্টারটি সামাজিক দায়বদ্ধতার অংশ হিসেবে বৈশ্বিক মহামারি করোনা মোকাবেলায় চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশনকে আইসোলেশন সেন্টার হিসেবে ব্যবহারের জন্য দিয়েছিল সীকম গ্রুপ।
চট্টগ্রামে মাছ-মাংস ও সবজির দামে স্বস্তি
১৮ডিসেম্বর,শুক্রবার,নিজস্ব প্রতিবেদক,নিউজ একাত্তর ডট কম: গত সপ্তাহের তুলনায় চট্টগ্রামে মাছ-মাংস ও সবজির দাম কেজিপ্রতি ৫-১০ টাকা কমেছে। শীতকালীন সবজির পাশাপাশি সামুদ্রিক মাছের সরবরাহও বেড়েছে। রিয়াজউদ্দিন বাজার ও চকবাজারে শুক্রবার (১৮ ডিসেম্বর) সবজির মধ্যে নতুন আলু ৫৫-৬০ টাকা, পুরনো আলু ৩৫-৪০ টাকা, ফুলকপি ৩৫-৪০ টাকা, বাঁধাকপি ৩০-৩৫ টাকা, মুলা ৩০-৩৫ টাকা, টমেটো ৮০-১০০ টাকা, বেগুন ৪০-৪৫ টাকা, শিম ৬০-৭০ টাকা, শসা ৬০ টাকা, বরবটি ৬০-৭০ টাকা, মিষ্টি কুমড়া ৩৫ টাকা, ঢেঁড়স ৫০ টাকা, গাজর ৭০ টাকা, কাঁচা পেপে ৩০ টাকা, ঝিঙ্গা ৬০ টাকা, শিমের বিচি ২০০-২২০ টাকা কেজি দরে বিক্রি হচ্ছে। বাজারে ইলিশ, চিংড়ি, কোরাল, লইট্যা, বাটা, তেলাপিয়া, রুই, কাতাল, পাবদা, ছুরি, কই, শিং মাছের দাম গত সপ্তাহের মতোই অপরিবর্তিত রয়েছে। এছাড়া ব্রয়লার মুরগি বিক্রি হচ্ছে ১২০ টাকা, সোনালী ২১০ টাকা, গরুর মাংস ৭০০ টাকা ও খাসির মাংস বিক্রি হচ্ছে ৭৫০ টাকা কেজি দরে। ফার্মের ডিম প্রতি ডজন ৯৫-১০০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে।
চট্টগ্রামে শীতবস্ত্রের বিকিকিনি, গরীবের ভরসা ফুটপাতের দোকান
১৮ডিসেম্বর,শুক্রবার,সিনিয়র সংবাদদাতা,চট্টগ্রাম,নিউজ একাত্তর ডট কম: পৌষের শীত এখনও জেঁকে বসেনি। গভীর রাত থেকে শুরু হওয়া হালকা শীত আর ভোরের সকালে কুয়াশামিশ্রিত বিন্দু বিন্দু শিশিরের উপস্থিতি বুঝিয়ে দিচ্ছে প্রকৃতিতে শীত এসেই গেছে। ভোরে খানিকটা শীতের আভাস মিললেও দিন গড়াতেই আকাশে থাকে রৌদ্রের ঝলকানি। যেটুকু ঠাণ্ডা আবহাওয়ার তীব্রতা নগরবাসী টের পেয়েছেন তাতে শীতবস্ত্র কেনার তেমন আগ্রহ জাগেনি অনেকের। তবে চট্টগ্রামের মার্কেটগুলোতে শীতবস্ত্রের বিপুল মজুদ লক্ষ্য করা গেছে। ফুটপাতের দোকান থেকে শীতবস্ত্র কিনছেন নিম্ন আয়ের মানুষ। নগরের হকার্স মার্কেট, নিউ মার্কেট এলাকা ঘুরে দেখা গেছে শীতবস্ত্রের ক্রেতাদের। ফুটপাতের দোকানগুলোতে এখন অন্য কাপড়ের পরিবর্তে শীতের পোশাক তোলা হয়েছে। আছে সোয়েটার, জ্যাকেট, কম্বলও। কেনা-বেচা মোটামুটি বলে জানালেন বিক্রেতারা। তারা বলছেন, এবার বাজারে শীতের কাপড়ের পর্যাপ্ত সরবরাহ আছে। দামও গত বছরের তুলনায় কিছুটা কম। ক্রেতাদের সঙ্গে কথা বলে জানা যায়, শীতের তীব্রতা না থাকায় গরম কাপড় কেনার প্রতি তাদের তেমন আগ্রহ নেই। এখন দেখছেন, কম দামে পছন্দমত কিছু পেলে কিনছেন। বাকলিয়া এলাকার গৃহিণী সানজিদা আক্তার বলেন, শহরে তেমন ঠাণ্ডা নেই, তাই শীতের কাপড় কিনছি না। গত বছরও তেমন শীতের দেখা মিলেনি। তখন কেনা শীতবস্ত্র রয়ে গেছে এখনও।
চট্টগ্রামে করোনা আক্রান্ত আরও ৭৯ জন
১৮ডিসেম্বর,শুক্রবার,নিজস্ব প্রতিবেদক,নিউজ একাত্তর ডট কম: গত ২৪ ঘণ্টায় করোনা ভাইরাস শনাক্ত হয়েছে আরও ৭৯ জনের। এ নিয়ে চট্টগ্রামে মোট আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়ালো ২৮ হাজার ৫৪৭ জন। এসময়ে মৃত্যু হয়েছে ২ জনের। বৃহস্পতিবার (১৭ ডিসেম্বর) রাতে সিভিল সার্জন কার্যালয় থেকে প্রকাশিত প্রতিবেদনে দেখা যায়, চট্টগ্রামের ৬টি ও কক্সবাজার মেডিক্যাল কলেজ ল্যাবে গত ২৪ ঘণ্টায় ১ হাজার ২৩৭টি নমুনা পরীক্ষা করা হয়। এর মধ্যে চট্টগ্রাম মেডিক্যাল কলেজ (চমেক) ল্যাবে ৪০৪টি, শেভরন ক্লিনিক্যাল ল্যাবরেটরিতে ১১৯টি, জেনারেল হাসপাতালের রিজিওনাল টিবি রেফারেল ল্যাবরেটরিতে (আরটিআরএল) ২৪টি, চট্টগ্রাম মা ও শিশু হাসপাতাল ল্যাবে ২৪টি, চট্টগ্রাম ভেটেরিনারি অ্যান্ড অ্যানিম্যাল সায়েন্সেস বিশ্ববিদ্যালয় (সিভাসু) ল্যাবে ৯৬টি, বাংলাদেশ ইনস্টিটিউট অব ট্রপিক্যাল অ্যান্ড ইনফেকশাস ডিজিজেস (বিআইটিআইডি) ল্যাবে ৫২৫টি এবং কক্সবাজার মেডিক্যাল কলেজ ল্যাবে ৪৫টি নমুনা পরীক্ষা করা হয়। এর মধ্যে চমেক ল্যাবে ৭ জন, শেভরণ ল্যাবে ২১ জন, আরটিআরএল-এ ১৫ জন, মা ও শিশু হাসপাতাল ল্যাবে ১০ জন, সিভাসু ল্যাবে ৪ জন, বিআইটিআইডি ল্যাবে ২২ জন করোনা পজেটিভ শনাক্ত হয়েছে। চট্টগ্রামের সিভিল সার্জন ডা. সেখ ফজলে রাব্বি জানান, গত ২৪ ঘণ্টার নমুনা পরীক্ষায় ৭৯ জন নতুন করোনা রোগী শনাক্ত হয়েছে। এর মধ্যে নগরে ৭৩ জন এবং বিভিন্ন উপজেলায় ৬ জন।
কিশোরদের মাদক থেকে ফেরাতে খেলাধুলার বিকল্প নেই: নাছির
১৭ডিসেম্বর,বৃহস্পতিবার,নিজস্ব প্রতিবেদক,নিউজ একাত্তর ডট কম: মাদক ও সন্ত্রাসের মতো অনৈতিক কার্যকলাপ থেকে ফিরিয়ে আনতে খেলাধুলা ছাড়া অন্য কোনো বিকল্প নেই বলে মন্তব্য করেছেন নগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও সাবেক সিটি মেয়র আ জ ম নাছির উদ্দীন। বৃহস্পতিবার (১৭ ডিসেম্বর) হাজী ইছা মো. দুলাল-দেলোয়ার হোসেন স্মৃতি টি-১০ ক্রিকেট টুর্নামেন্ট উদ্বোধন অনুষ্ঠানে তিনি এমন মন্তব্য করেন। নগরের কলেজিয়েট উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে টুর্নামেন্ট উদ্বোধন করেন আ জ ম নাছির উদ্দীন। মাদারবাড়ি শোভনীয় ক্লাবের উদ্যোগে আয়োজিত এই টুর্নামেন্টে মোট ২৪টি দল অংশগ্রহণ করে। বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড সহ-সভাপতি ও চট্টগ্রাম জেলা ক্রীড়া সংস্থার সাধারণ সম্পাদক আ জ ম নাছির উদ্দীন বলেন, ক্রীড়া মনস্ক একটি তরুণ প্রজন্ম গড়ে তুলতে হলে খেলাধুলার সমৃদ্ধি ও বিকাশ ঘটাতে হবে। এজন্য সমাজের বিত্তবান, ক্রীড়াপ্রেমীসহ সংশ্লিষ্ট সকলকে স্ব স্ব অবস্থান থেকে ভূমিকা রাখতে হবে। কিশোর সমাজকে মাদক, সন্ত্রাসের মত অনৈতিক কার্যকলাপ থেকে ফিরিয়ে আনতে খেলাধুলা ছাড়া অন্য কোনো বিকল্প নেই। মাদারবাড়ি শোভনীয় ক্লাবের সভাপতি মো. শাহ আলমের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন আওয়ামী লীগ নেতা মসিউর রহমান চৌধুরী, সদস্য বেলাল আহমদ, সাবেক কাউন্সিলর গোলাম মোহাম্মদ জোবায়ের, শোভনীয় ক্লাবের সহ-সভাপতি মো. আলমগীর প্রমুখ।
বার্ন ইউনিটের জায়গা চিহ্নিত করতে চমেক হাসপাতালে স্বাস্থ্য সচিব
১৭ডিসেম্বর,বৃহস্পতিবার,নিজস্ব প্রতিবেদক,নিউজ একাত্তর ডট কম: চট্টগ্রামে বার্ন ইউনিট নির্মাণের জন্য জায়গা চিহ্নিত করতে চট্টগ্রাম মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতাল পরিদর্শন করেছেন স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের সচিব আব্দুল মান্নান। বৃহস্পতিবার (১৭ ডিসেম্বর) দুপুরে হাসপাতাল পরিদর্শন শেষে সচিব সাংবাদিকদের বলেন, সরকার সবসময় চিন্তা করছে পূর্ণাঙ্গ মেডিক্যাল কলেজের সঙ্গে বার্ন ইউনিটটি নির্মাণ করতে। কারণ বার্ন হাসপাতাল যদি দূরে করা হয়, তাহলে নতুন করে ডাক্তার পাওয়া কষ্টসাধ্য হবে। এছাড়া ছাত্র-ছাত্রীরাও কিছু শিখতে পারবে না। এজন্য আমরা সব সময়ই অগ্রাধিকার দিয়েছি, চমেক হাসপাতালের পাশেই বার্ন ইউনিট করার। তিনি আরও বলেন, আমরা আজ সরেজমিন পরিদর্শন করে জায়গা নির্ধারণ করেছি। এই প্রকল্পে যারা বিনিয়োগ করবেন তাদের বিষয়টি জানানো হবে। ক্যান্সার হাসপাতালের জায়গা নির্ধারণের বিষয়ে জানতে চাইলে এ ব্যাপারে এখনো সিদ্ধান্ত হয়নি বলে জানান তিনি। পরে শেখ হাসিনা বার্ন ইউনিটের পরিচালক ডা. সামন্ত লাল সেন বলেন, চট্টগ্রামে বার্ন ইউনিট করতে গত ২০ বছর ধরে চেষ্টা করে যাচ্ছি। আজ সরেজমিনে এসে জায়গা পছন্দ করে গেলাম। বিষয়টি চীন সরকারকে অবহিত করা হবে। তারা সরেজমিন এসেও জায়গা দেখে যাবেন। চেষ্টা করবো যত দ্রুত সম্ভব এই বার্ন ইউনিটের কার্যক্রম শুরু করা যায়। এসময় উপস্থিত ছিলেন স্বাস্থ্য অধিদফতরের মহাপরিচালক ডা. আবুল বাসার মোহাম্মদ খুরশিদ আলম, জেলা প্রশাসক ইলিয়াস হোসেন, বিভাগীয় পরিচালক (স্বাস্থ্য) ডা. হাসান শাহরিয়ার কবির, চট্টগ্রাম মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের পরিচালক বিগ্রেডিয়ার জেনারেল হুমায়ুন কবির, সিভিল সার্জন ডা. সেখ ফজলে রাব্বি, চমেক হাসপাতালের উপাধ্যক্ষ অধ্যাপক ডা. নাছির উদ্দীন মাহমুদ।
মুক্তিযুদ্ধের চেতনায় সুখী সমৃদ্ধ দেশ গঠনে জনতার বন্ধু জিএম কাদেরের যোগ্য নেতৃত্বের বিকল্প নেই
১৭ডিসেম্বর,বৃহস্পতিবার,নিউজ ডেস্ক,নিউজ একাত্তর ডট কম: জাতীয় পার্টি কেন্দ্রীয় সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক বীর মুক্তিযোদ্ধা শ্রী তপন চক্রবর্ত্তী বলেছেন, বাংলার দামাল ছেলেরা ৭১ সালে দেশকে পরাধীনতার শৃঙ্খল থেকে মুক্ত করতে পাকিস্তানী হায়েনাদের বিরুদ্ধে দীর্ঘ ৯ মাস রক্তক্ষয়ী যুদ্ধের মাধ্যমে লাল সবুজের পতাকা ছিনিয়ে এনেছিলেন। ক্ষুধা, দারিদ্র, সন্ত্রাস, দুর্নীতিমুক্ত সুষম উন্নয়নের দেশ গঠনের স্বপ্নে বিভোর হয়ে ৩০ লক্ষ শহীদের রক্ত আর ২ লক্ষ মা বোনের সম্ভ্রব বিসর্জনের মাধ্যমে অর্জিত স্বাধীনতার প্রকৃত সুফল থেকে বাংলার মানুষ আজও বঞ্চিত। এখনও বিনা বিচারে মানুষ হত্যা, সন্ত্রাস, দুর্নীতি, ধর্ষণ, গুম রাজনৈতিক প্রতিহিংসার সংস্কৃতিমুক্ত হতে পারেনি বাংলাদেশ। তাই মুক্তিযুদ্ধের প্রকৃত নির্যাস জনগণের কাছে পৌছে দিয়ে সমৃদ্দ দেশ গঠনে জনতার বন্ধু জিএম কাদেরের নেতৃত্বে ঐক্যবদ্ধ হতে তিনি দেশপ্রেমিক নাগরিকদের প্রতি উদাত্ত আহ্বান জানান। তিনি ১৬ ডিসেম্বর সকাল ১১টায় নগরীর সিনেমা প্যালেস চত্বরে নগর জাপা আয়োজিত মহান বিজয় দিবস উপলক্ষে এক সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্যে উপরোক্ত কথা বলেন। নগর জাতীয় পার্টির সাবেক সহ সভাপতি আনিসুল ইসলাম চৌধুরীর সভাপতিত্বে ও সাংগঠনিক সম্পাদক আবছার উদ্দিন রনির পরিচালায় অনুষ্ঠিত সভায় অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন- নগর জাপা সাবেক সহ সভাপতি ওসমান খান, কামরুজ্জামান পল্টু, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক নিজাম উদ্দিন জ্যাকি, স্বেচ্ছাসেবক পার্টির কেন্দ্রীয় সহ সভাপতি জহুরুল ইসলাম রেজা, কৃষক পার্টির কেন্দ্রীয় সহ সভাপতি এনামুল হক বেলাল, সাংগঠনিক সম্পাদক রেজাউল করিম রেজা, নগর যুব সংহতির যুগ্ম আহ্বায়ক কায়সার হামিদ মুন্না, এম এ শুক্কুর, নগর সাংস্কৃতিক পার্টির সাধারণ সম্পাদক শাহাদাত হোসেন স্বপন, নগর মহিলা পার্টির আহ্বায়ক রাবেয়া বসরী বকুল, সদস্য সচিব সেলি আক্তার, নগর জাপা অর্থ সম্পাদক চন্দন চক্রবর্ত্তী, কৃষি বিষয়ক সম্পাদক জাহিদুল আলম বাচ্চু, কাজী হেলাল হোসেন, নগর কৃষক পার্টি সাধারণ সম্পাদক পিকাশ শীল সাগর, ছাত্র সমাজের কেন্দ্রীয় সাবেক সদস্য সুমন বড়য়া, বাপ্পি আহমেদ, আবু হাসান, ই.পিজেড থানা জাপা সাধারণ সম্পাদক রিয়াজ উদ্দিন রিয়াজ, সহ সভাপতি জামাল উদ্দিন কান্টু, মনির হোসেন, জাপা নেতা তৌফিক হোসেন প্রমুখ।- প্রেস বিজ্ঞপ্তি

নিউজ চট্টগ্রাম পাতার আরো খবর