করিমনচাপায় স্কুলছাত্রী নিহত চাঁপাইনবাবগঞ্জে
অনলাইন ডেস্ক: চাঁপাইনবাবগঞ্জ: চাঁপাইনবাবগঞ্জের নাচোলে স্যালো ইঞ্জিনচালিত করিমনের চাপায় কবিতা (১৫) নামে এক স্কুল শিক্ষার্থী নিহত হয়েছে। নিহত কবিতা উপজেলার পশ্চিম মির্জাপুর গ্রামের গোলাম কবিরের মেয়ে কবিতা (১৫)। সে মির্জাপুর উচ্চ বিদ্যালয়ের ৯ম শ্রেণির ছাত্রী ছিলো। নাচোল থানার ওসি চৌধুরী জোবায়ের আহম্মদ ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, রবিবার সকাল সাড়ে আটটার দিকে গোলাম কবির তার ছেলে ও মেয়ে কবিতাকে মোটরসাইকেলে নিয়ে তানোর উপজেলার মুন্ডমালা এলাকায় তার শ্যালকের মৃত্যুর খবর পেয়ে যাচ্ছিলেন। পথে পন্ডিতপুর ফায়ার সার্ভিস স্টেশনের পাশে গোলাম কবিরের মাথার ক্যাপ মাটিতে পড়ে গেলে তার মেয়ে ক্যাপটি উঠাতে যায়। এ সময় ধানসুরা রাজশাহীগামী একটি গরুভর্তি ভুটভুটি করিমন কবিতাকে চাপা দিলে ঘটনাস্থলেই সে মারা যায়। ঘটনার পর পুলিশ খবর পেয়ে কবিতার মৃতদেহ উদ্ধার করে। এদিকে ভুটভুটি করিমনকে স্থানীয়রা আটক করলে চালক পালিয়ে যায়। এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত থানায় মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছিলো।
হবিগঞ্জের নবীগঞ্জে কৃষককে কুপিয়ে হত্যা
অনলাইন ডেস্ক: হবিগঞ্জের নবীগঞ্জে বাজার থেকে বাড়িতে ফেরার পথে ওয়াহিদ মিয়া (৫০) নামে এক কৃষককে কুপিয়ে হত্যা করেছে দুর্বৃত্তরা। শুক্রবার সন্ধ্যায় এই ঘটনা ঘটে। নিহত ওয়াহিদ উপজেলার দীঘলবাক ইউনিয়নের বোয়ালজুর গ্রামের বাসিন্দা। পুলিশ জানায়, ওয়াহিদ শুক্রবার সন্ধ্যায় স্থানীয় আউশকান্দি বাজার থেকে একটি সিএনজিতে করে বাড়িতে ফিরছিল। এসময় বাড়ির রাস্তায় যাওয়া মাত্রই প্রকাশ্যে একদল দুর্বৃত্ত দেশীয় অস্ত্র দিয়ে তাকে কুপিয়ে জখম করে। পরে স্থানীয়রা ওয়াহিদকে উদ্ধার করে সিলেট মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে নেওয়ার পর রাত সাড়ে ৮টায় কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। খবর পেয়ে নবীগঞ্জ থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছালে দুর্বৃত্তরা পালিয়ে যায়। এ ব্যাপারে নবীগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শেখ মোহাম্মদ সোহেল রানা জানান, পুলিশ ঘটনার সঙ্গে জড়িতদের গ্রেফতারের চেষ্টা চালাচ্ছে।
হবিগঞ্জের নবীগঞ্জে কৃষককে কুপিয়ে হত্যা
অনলাইন ডেস্ক: হবিগঞ্জের নবীগঞ্জে বাজার থেকে বাড়িতে ফেরার পথে ওয়াহিদ মিয়া (৫০) নামে এক কৃষককে কুপিয়ে হত্যা করেছে দুর্বৃত্তরা। শুক্রবার সন্ধ্যায় এই ঘটনা ঘটে। নিহত ওয়াহিদ উপজেলার দীঘলবাক ইউনিয়নের বোয়ালজুর গ্রামের বাসিন্দা। পুলিশ জানায়, ওয়াহিদ শুক্রবার সন্ধ্যায় স্থানীয় আউশকান্দি বাজার থেকে একটি সিএনজিতে করে বাড়িতে ফিরছিল। এসময় বাড়ির রাস্তায় যাওয়া মাত্রই প্রকাশ্যে একদল দুর্বৃত্ত দেশীয় অস্ত্র দিয়ে তাকে কুপিয়ে জখম করে। পরে স্থানীয়রা ওয়াহিদকে উদ্ধার করে সিলেট মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে নেওয়ার পর রাত সাড়ে ৮টায় কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। খবর পেয়ে নবীগঞ্জ থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছালে দুর্বৃত্তরা পালিয়ে যায়। এ ব্যাপারে নবীগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শেখ মোহাম্মদ সোহেল রানা জানান, পুলিশ ঘটনার সঙ্গে জড়িতদের গ্রেফতারের চেষ্টা চালাচ্ছে।
ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় ওএমএসের ৩০০বস্তা চালসহ ট্রাক আটক
অনলাইন ডেস্ক: ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় সরকারি ওএমএস এর এক ট্রাক চালসহ তিনজনকে আটক করেছে বিজিবি। সোমবার রাতে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে চালসহ তাদের আটক করা হয়। বিজিবি জানায়, ২৫ বর্ডার গার্ড ব্যাটালিয়ন সরাইলের হাবিলদার শামছুল আলম পাটোয়ারির নেতৃত্বে জেলার সরাইল উপজেলার কালিকচ্ছ বাজারে অভিযান চালিয়ে একটি ট্রাক থেকে আনুমানিক ৩০০ বস্তা চাল জব্দ করা হয়। এসময় ট্রাকচালক রবিউল আলম শাহিন, তার সহকারি মাসুম মিয়া ও শ্রমিক ওয়াহিদকে আটক করা হয়। আটককৃতরা জানিয়েছে, এ চালগুলো জেলার নাসিরনগরের জুলহাস মিয়ার মালিকাধীন জুলহাস ট্রেডার্স থেকে সিলেটের চুনারুঘাট নিয়ে যাওয়া হচ্ছিল। আটক চালের মূল্য ৬ লাখ ৭৫ হাজার টাকা। এ বিষয়ে ২৫ ব্যাটালিয়নের অধিনায়ক লেফটেন্যান্ট কর্নেল মুহাম্মদ গোলাম কবীর জানান, বিষয়টি জেলা প্রশাসকসহ সংশ্লিষ্টদের জানানো হয়েছে। ট্রাস্কফোর্সের মাধ্যমে বিষয়টি খতিয়ে দেখা হবে।
বিড়ি খাওয়াকে কেন্দ্র করে যুবককে খুন নাটোরে
অনলাইন ডেস্ক: নাটোরের বড়াইগ্রামের গোপালপুর গড়মাটি এলাকায় মুদি দোকানের সামনে বিড়ি খাওয়াকে কেন্দ্র করে মজনু শেখ (২৭) নামে এক যুবক খুন হয়েছে। নিহত মজনু শেখ গড়মাটি গ্রামের নুর আলী সেখের ছেলে। রোববার রাত সাড়ে ৮টার দিকে এ ঘটনা ঘটে। স্থানীয় গ্রাম পুলিশ ইয়াসিন সেখ জানান, রাতে গড়মাটি মাঝিপাড়া তিনরাস্তার মোড়ে অবস্থিত কুতুব আলীর দোকানের সামনে বেঞ্চে বসে মজনু স্থানীয় আজগর আলীর কাছে বিড়ি চায়। এ সময় উপস্থিত কোরবান প্রামাণিক বিড়ি চাওয়ার কারণে মজনুকে গাল-মন্দ করতে থাকে। এক পর্যায়ে মজনুও গালাগালি শুরু করলে কোরবান কাঠের বাটাম দিয়ে মাথায় ও শরীরের বিভিন্ন জায়গায় উপর্যুপরী আঘাত করে। মজনু প্রাণে বাঁচতে দৌড়ে পালাতে গিয়ে পাশের ডোবায় পড়ে যায়। পরে প্রত্যক্ষদর্শীরা মজনুকে অচেতন অবস্থায় উদ্ধার করে মিঠুর ভ্যানযোগে বাড়ি নিয়ে আসে এবং পরে নাক-কানে রক্তক্ষরণ হয়ে সে মারা যায়। বড়াইগ্রাম থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) দিলিপ কুমার দাস এই হত্যাকাণ্ডের সত্যতা স্বীকার করে জানান, লাশ ময়না তদন্তের জন্য পুলিশ নাটোর হাসপাতাল মর্গে প্রেরণ করেছে। ঘাতক কোরবান আলীকে গ্রেপ্তার করতে সর্বাত্মাক চেষ্টা চালানো হচ্ছে। থানায় মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে।
সৎ মাকে জমি লিখে দেয়ায় বাবাকে গলাকেটে হত্যা
অনলাইন ডেস্ক: মা মারা যাওয়ার পর বাবা তাকে না জানিয়ে একই গ্রামের মৃত মোশারফ হোসেনের বিধবা স্ত্রী মাজেদা বেগমকে এক কন্যাসন্তানসহ বিয়ে করেন। বিয়ের সময় লিখে দেন ১৫ শতাংশ জমি। আরও জমি তার বাবা তার দ্বিতীয় স্ত্রীকে লিখে দিতে পারেন এ আশঙ্কায় বাবাকে গলা কেটে হত্যা করা হয়।’ ঢাকার ধামরাইয়ে ঘরের ভেতরে ঘুমন্ত অবস্থায় গলা কেটে এক কৃষককে হত্যা করেছে তারই সন্তান। রোববার পুলিশের কাছে এ স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি প্রদান করেছে ওই কৃষক বাবার প্রবাসী ছেলে মো. লিটন মিয়া। ধামরাই থানা পুলিশ রোববার সকালে স্থানীয় সাংবাদিকদের কাছে এ তথ্য প্রকাশ করেছে। এর আগে বৃহস্পতিবার রাতে এ নৃশংস হত্যাকাণ্ডের ঘটনা ঘটে উপজেলার সুয়াপুর ইউনিয়নের কুটিরচর গ্রামে। এ লোমহর্ষক খুনের ঘটনায় ধামরাই থানা পুলিশ খুন হওয়া ওই কৃষকের দ্বিতীয় স্ত্রী এবং প্রথম স্ত্রীর ছেলে লিটনকে পুলিশ জিজ্ঞাসাবাদের জন্য থানায় নিয়ে আসে। দীর্ঘসময় জিজ্ঞাসাবাদের পর ধামরাই থানার অফিসার ইনচার্জ দীপকচন্দ্র সাহার কাছে লিটন তার বাবাকে নিজ হাতে গলা কাটে হত্যার কথা স্বীকার করেন। তিনি জানান, তার মা মারা যাওয়ার পর বাবা তাকে না জানিয়ে বিয়ে করেন। বিয়ের সময় লিখে দেন ১৫ শতাংশ জমি। আরও জমি তার বাবা তার দ্বিতীয় স্ত্রীকে লিখে দিতে পারেন এ আশঙ্কায় তিনি বাবাকে হত্যা করেছেন। এ ব্যাপারে ধামরাই থানায় ওই কৃষকের ছেলে লিটনকে আসামি করে হত্যা মামলা করা হয়েছে। শীর্ষনিউজ
হবিগঞ্জে ছাত্রলীগের দু-গ্রুপের সংঘর্ষ, আহত ৭
অনলাইন ডেস্ক: হবিগঞ্জে ছাত্রলীগের দুই পক্ষের মধ্যে ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়ার ঘটনা ঘটেছে। এসময় বেশ কিছু দোকান ভাঙচুর করা হয়। এ ঘটনায় উভয়পক্ষের অন্তত সাত জন আহত হয়েছেন। রোববার রাত সাড়ে ৮টার দিকে শহরের কালীবাড়ি রোড এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। হবিগঞ্জ সদর মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি–তদন্ত) জিয়াউর রহমান এ তথ্য নিশ্চিত করেন। হবিগঞ্জ জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি সাইদুর রহমান ও সাধারণ সম্পাদক মহিবুর রহমান মাহির সমর্থকদের মধ্যে ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়ার এ ঘটনা ঘটে। পরে আহতদের স্থানীয়ভাবে প্রাথমিক চিকিৎসা দেওয়া হয়। স্থানীয় সূত্র জানায়, জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি সাইদুর রহমান ও সাধারণ সম্পাদক মহিবুর রহমান মাহির সমর্থকদের মধ্যে তুচ্ছ ঘটনা নিয়ে বাকবিতণ্ডা হয়। এর একপর্যায়ে উভয় পক্ষ দেশীয় অস্ত্রসস্ত্র নিয়ে সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ে। এসময় ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়া ও ভাঙচুরের ঘটনা ঘটে। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। ওসি জিয়াউর রহমান বলেন, ‘বর্তমানে পরিস্থিতি শান্ত রয়েছে। পুনরায় সংঘর্ষ এড়াতে ওই এলাকায় অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে। শীর্ষনিউজ
কুমিল্লায় খালেদার বিরুদ্ধে হত্যা মামলায় জামিন শুনানী ৩ অক্টোবর
অনলাইন ডেস্ক: কুমিল্লার চৌদ্দগ্রামে নৈশকোচে পেট্রোল বোমা মেরে ৮ জন যাত্রী পুড়িয়ে হত্যা মামলায় বিএনপি চেয়ারপার্সন বেগম খালেদা জিয়ার জামিন আবেদনের শুনানি ফের পিছিয়েছে আদালত। বিষয়টি নিশ্চিত করে খালেদা জিয়ার আইনজীবী অ্যাড. কাইমুল হক রিংকু জানান, রাষ্ট্রপক্ষের সময় আবেদনের প্রেক্ষিতে কুমিল্লার ৫নং আমলী আদালতের সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট মুহাম্মদ জালাল উদ্দিন রবিবার এ মামলায় আগামী ৩ অক্টোবর জামিন শুনানীর পরবর্তী দিন ধার্য্য করেন। উল্লেখ্য, বিএনপি-জামায়াতসহ ২০ দলীয় জোটের ডাকা হরতাল-অবরোধ চলাকালে ২০১৫ সালের ৩ ফেব্রুয়ারি ভোর রাতে কক্সবাজার থেকে ছেড়ে আসা ঢাকাগামী আইকন পরিবহনের একটি নৈশকোচ চৌদ্দগ্রামের জগমোহনপুর নামক স্থানে পৌঁছলে দুর্বৃত্তরা বাসটি লক্ষ্য করে পেট্রোল বোমা নিক্ষেপ করে। এতে আগুনে পুড়ে ঘটনাস্থলে ৭ জন ও হাসপাতালে নেওয়ার পর ১ জনসহ মোট ৮ ঘুমন্ত যাত্রী মারা যায়। ওই ঘটনায় চৌদ্দগ্রাম থানার এসআই নুরুজ্জামান হাওলাদার বাদী হয়ে পরদিন ৩ ফেব্রুয়ারি রাতে হত্যা ও বিস্ফোরক আইনে পৃথক ২টি মামলা দায়ের করেন। এ দুটি মামলায় ২ বছর ১ মাস তদন্ত ও পুলিশসহ ৬২ জন স্বাক্ষীর স্বাক্ষ্য গ্রহণ শেষে মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা চৌদ্দগ্রাম থানার এসআই মো. ইব্রাহিম গত বছরের ৬ মার্চ আদালতে চার্জশিট দাখিল করেন।
ভাঙ্গায় আ-লীগ নেতাকর্মিদের বিরুদ্ধে মামলা নেওয়ায় থানা ঘেরাও, সড়ক অবরোধ
অনলাইন ডেস্ক: ফরিদপুরের ভাঙ্গা উপজেলায় স্বেচ্ছাসেবক লীগ নেতাকর্মিদের নামে থানায় মিথ্যা মামলা নেওয়ার প্রতিবাদে ওসির অপসারণ চেয়ে থানা ঘেরাও, বিক্ষোভ মিছিল ও সড়ক অবরোধ করেছে উপজেলা আওয়ামীলীগ, যুবলীগ, ছাত্রলীগ ও স্বেচ্ছসেবক লীগ। রবিবার সকালে ভাঙ্গা ঈদগাহ মাঠ থেকে নেতাকর্মিরা বিভিন্ন এলাকা থেকে জড়ো হয়ে থানার মেইন ফটকের সামনে কিছুক্ষণ বিক্ষোভ করে এবং ওসির অপসারণসহ বিভিন্ন প্রকার শ্লোগান দেয় ছাত্রলীগ, যুবলীগ। তখন থানার মেইন গেট বন্ধ করে দেয় পুলিশ। পরে মিছিলটি বাজারের প্রধান প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ করে পৌরসভার সামনের সড়কে টায়ার জ্বালিয়ে প্রায় ঘণ্টাব্যাপি অবরোধ করে রাখে। এ সময় সড়কের দুপাশে শতশত যানবাহন আটকে পড়ায় যাত্রীরা চরম দুর্ভোগে পড়ে। পরে পৌর মেয়রের অনুরোধে মহাসড়কের উপর অবরোধসহ সকল কর্মসূচি তুলে নেওয়া হয়। এ সময় এক সংক্ষিপ্ত বক্তব্যে পৌর আওয়ামীলীগের সভাপতি ও পৌর মেয়র আবু রেজা মোঃ ফয়েজ বলেন, আমাদের নেতাকর্মিদের উপর হামলা ও মিথ্যা মামলা নেওয়াসহ প্রশাসনের স্বেচ্ছাচারিতার প্রতিবাদে আওয়ামীলীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য কাজী জাফরউল্লাহর নির্দেশে অবরোধসহ সকল কর্মসূচি পালন করেছি এবং থানা পুলিশ আমাদের দাবি মেনে নেওয়ায় কাজী জাফর উল্লাহর নির্দেশে অবরোধ তুলে নেওয়া হয়েছে। এ ঘটনায় অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (ভাঙ্গা সার্কেল) গাজী মোঃ রবিউল ইসলাম বলেন, থানা ঊভয় পক্ষের মামলা নিয়েছে তবে তদন্তপূর্বক ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে। আলোকিত বাংলাদেশ

সারা দেশ পাতার আরো খবর