ঐতিহাসিক ৭ই মার্চ উপলক্ষে নগর স্বেচ্ছাসেবক লীগের বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে শ্রদ্ধা নিবেদন
ঐতিহাসিক ৭ই মার্চ উপলক্ষে চট্টগ্রাম মহানগর আওয়ামী স্বেচ্ছাসেবক লীগের উদ্যোগে গতকাল বুধবার বিকেলে নাসিরাবাদস্থ সাবেক কমিশনার আলহাজ্ব মামুনুর রশিদ মামুনের বাসভবন সম্মুখে ঢাকার ৩২নং ধানমন্ডীর আদলে নির্মিত জাতির জনকের প্রতিকৃতিতে পুষ্পমাল্য অর্পণ করে শ্রদ্ধাঞ্জলি নিবেদন করা হয়। এসময়ে জাতির জনক বঙ্গবন্ধুর প্রতি শ্রদ্ধা নিবেদন করে সকলে দাঁড়িয়ে এক মিনিট নীরবতা পালন করেন। পরে এক সংক্ষিপ্ত সভা মহানগর স্বেচ্ছাসেবক লীগের সদস্য ওয়ারিশ আলীর খানের সভাপতিত্বে ও মোহাম্মদ আলী চৌধুরীর পরিচালনায় অনুষ্ঠিত হয়। এতে প্রধান অতিথি ছিলেন চট্টগ্রাম মহানগর আওয়ামী লীগের অন্যতম নেতা ও ৮নং শুলকবহর ওয়ার্ডের সাবেক কমিশনার আলহাজ্ব মামুনুর রশিদ মামুন। তিনি তার বক্তব্যে বলেন, জাতির জনক বঙ্গবন্ধুর ৭ই মার্চের ঐতিহাসিক ভাষণ বাঙালি জাতি মুক্তির দিক-নির্দেশনা। বঙ্গবন্ধুর এ ভাষণের ফলে বাঙালি জাতি মহান মুক্তিযুদ্ধের মূল প্রস্তুতি গ্রহণ করে। এই ভাষণ বাঙালি জাতি সংকটে এবং দেশ গঠনে অনুপ্রেরণা যোগাবে যুগের পর যুগ। সভায় বক্তব্য রাখেন মহানগর স্বেচ্ছাসেবক লীগ নেতা আশরাফ উদ্দিন শাহীন, মো: জালাল মিয়া, মো: সিরাজুল ইসলাম, মহসীন মোরশেদ টিপু, মো: আলী সরওয়ার, খুরশিদ হাসান, শাহাদাত আল মনসুর টিটু, যীশু নাথ, এম.কে আলম বাসেদ, আবদুল নুর, আবদুর রাজ্জাক বাবু, সজীব দাশ প্রমুখ। প্রেস বিজ্ঞপ্তি
সত্যের নিশানার দিনব্যাপী বিনামূল্যে ঔষধসহ চক্ষু ক্যাম্প সম্পন্ন
সমাজ ও মানবতার কল্যাণে নিবেদিত সংগঠন সত্যের নিশানার ব্যবস্থাপনায় দিনব্যাপি বিনামূল্যে চক্ষু ক্যাপ গত ৬ মার্চ ৩০ নং পূর্ব মাদারবাড়ী ওয়ার্ড কাউন্সিলর কার্যালয়ের নীচ তলায় অনুষ্ঠিত হয়। এতে প্রায় পাঁচশতাধিক রোগীকে সম্পূর্ণ বিনামূল্যে ঔষধসহ চোখের চিকিৎসা প্রদান করা হয়। এ উপলক্ষে আয়োজিত অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন কাউন্সিলর আলহাজ্ব মাজহারুল ইসলাম চৌধুরী, বিশেষ অতিথি ছিলেন, সত্যের নিশানার উপদেষ্টা বিবি জান্নাত জাকারিয়া জিশা, মো সৈয়দ হোসেন জনি, সভাপতি মোঃ ইব্রাহীম খলিল, সাবেক সভাপতি মোঃ আনোয়ার হোসেন, সহ সভাপতি মোঃ আবদুল জব্বার,সাধারণ সম্পাদক মোঃ হাবিব, কার্যনির্বাহী সদস্য মোঃ তুহিন, সাংগঠনিক আবদুর রাজ্জাক, সহ সাংগঠনিক সম্পাদক মোঃ মিজান, মোঃ ফারুক, সমাজসেবা সম্পাদক মোঃ রাসেল, ধর্ম বিষয়ক সম্পদক মোঃ কাউছার আলম রেজভী, সদস্য মোঃ আমির ফাহাদ আদর, ক্রীড়া সম্পাদক মোঃ আসলাম, সহ ক্রীড়া সম্পাদক মোঃ সাবের, সদস্য মোঃ সায়েম, কার্যকরি সদস্য মুন্না, রুবেল, জাফর, বাবলু, আজিজ, অনিক, প্রমুখ। লায়ন্স চক্ষু হাসপাতাল, চট্টগ্রাম-এর বিশিষ্ট চক্ষু বিশেষজ্ঞগণ দ্বারা এ ক্যাম্প পরিচালনা করা হয়। উল্লেখ্য এ ক্যাম্প থেকে চিকিৎসা নেয়া কয়েকজন দুঃস্থ রোগীর ছানির অপারেশন এর সম্পূর্ণ খরচ সত্যের নিশানার পক্ষ থেকে বহন করা হবে।প্রেস বিজ্ঞপ্তি
চট্টগ্রাম দক্ষিণ জেলা স্বেচ্ছাসেবকদল ও ছাত্রদলের অবস্থান র্কমসূচিতে বক্তারা,অবিলম্বে দে�
বিএনপির চেয়ারপার্সন ও সাবেক তিন বারের প্রধানমন্ত্রী বেগম খালেদা জিয়া, নগর বিএনপির সভাপতি ডাঃ শাহাদাত হোসেন, ছাত্রদল কেন্দ্রীয় সভাপতি রাজিব আহসান, সাধারণ সম্পাদক আকরামুল হক ও কেন্দ্রিয় স্বেচ্ছাসেবক দলের সভাপতি শফিউল বারী বাবু, সাংগঠনিক সম্পাদক ইয়াছিন আলীর মুক্তির দাবীতে এবং মিথ্যা মামলা প্রত্যাহারের দাবীতে নগরীতে চট্টগ্রাম দক্ষিণ জেলা স্বেচ্ছাসেবকদল ও ছাত্রদলের উদ্যোগে এক অবস্থান র্কমসূচি জেলা স্বেচ্ছাসেবকদলের সাধারণ সম্পাদক মহসিন চৌধুরী রানার সভাপতিত্বে এবং ছাত্রদলের যুগ্ম আহবায়ক শাহ নেওয়াজ চৌধুরীর পরিচালনায় অনুষ্ঠিত হয়। এতে বক্তব্য রাখেন দক্ষিণ জেলা স্বেচ্ছাসেবকদল নেতা কামাল হোসেন, বাঁশখালী আলাওয়াল ডিগ্রি কলেজ ছাত্রদলের সভাপতি জাবেদুল আলম সুমন, মহসিন কলেজ ছাত্রদলের যুগ্ম আহবায়ক শফিউল আলম, জেলা ছাত্রদলের সদস্য আনিছুর রহমান বাবুল, বাঁশখালী পৌরসভা ছাত্রদলের সিনিয়র যুগ্ম সম্পাদক মোঃ ইউছুফ, স্বেচ্ছাসেবক দলনেতা মোঃ জয়নাল, মোঃ জনি, মোঃ ফখরুল, মোঃ রুবেল, মোঃ নোমান, ছাত্রদল নেতা শাহাদত হোসেন মিশু, মোঃ আরফাতুর রহমান সানি, মোঃ সোহেল, মোঃ মনির, মোঃ কামরুল প্রমুখ। অবস্থান র্কমসূচিতে বক্তারা বলেন, বিএনপির চেয়ারপার্সন ও সাবেক তিন বারের প্রধানমন্ত্রী বেগম খালেদা জিয়ার বিরুদ্ধে অবৈধভাবে ও যেই অন্যায় রায় দিয়ে কারাগারে প্রেরণ করেছে তা দলের নেতাকর্মী ও দেশের সাধারণ মানুষ মেনে নেননি এবং এই রায় তাদেরকে খুব বেশি ক্ষুব্ধ ও ব্যতিত করেছে। অবিলম্বে বেগম খালেদা জিয়াকে যদি মুক্তি দেওয়া না হয় তাহলে দেশের যে কোন ভয়ানক পরিস্থিতির জন্য সরকার দায়ি থাকবে। প্রেস বিজ্ঞপ্তি
৫০ হাজার ইয়াবাসহ পুলিশ রুবেল আটক
রাত তখন ১২টা। নারায়ণগঞ্জ সদর মডেল থানায় কর্তব্যরত ছিলেন সহকারী উপ-পরিদর্শক (এএসআই) সোহরাওয়ার্দী রুবেল। এসময় গোপন সংবাদের ভিত্তিতে নারায়ণগঞ্জ ডিবি পুলিশ তার শরীর তল্লাশি করে প্যান্টের পকেট থেকে পাঁচ হাজার পিস ইয়াবা জব্দ করে। জিজ্ঞাসাবাদের জন্য এসময় তাকে আটক করা হয়। পুলিশ রুবেলের স্বীকারোক্তিতে বন্দরের রূপালী আবাসিক এলাকাতে তার ভাড়া বাসা থেকে আরো ৪৫ হাজার পিস ইয়াবা জব্দ করে। এদিকে অভিযোগ রয়েছে সম্প্রতি এএসআই সোহরাওয়ার্দী রুবেল একজন নারীকে আটকে রেখে প্রায় ৫ লাখ টাকা মুক্তিপণ আদায় করেছিলেন। তার স্বজনরাও মাদক ব্যবসার সঙ্গে সম্পৃক্ত রয়েছে। তিনি বিভিন্ন লোককে ইয়াবা দিয়ে ফাঁসিয়ে মোটা অংকের টাকা আদায় করতেন বলে তথ্য বেরিয়ে আসছে। জানা গেছে, পুলিশের এএসআই সোহরাওয়ার্দী রুবেল নারায়ণগঞ্জের বন্দর থানায় কর্মরত থাকা অবস্থায় মাদক ব্যবসার সঙ্গে সম্পৃক্ত থাকলেও এলাকার লোকজন জানার পরও কেউ ভয়ে প্রতিবাদ করার সাহস পায়নি। তিনি বন্দরের রূপালী আবাসিক এলাকার সংযুক্ত আরব আমিরাত প্রবাসী কামরুল ইসলামের বাড়ির দ্বিতীয় তলার ফ্ল্যাটে থাকেন। বন্দর থানা থেকে বদলি হয়ে কিছুদিন আগে নারায়ণগঞ্জ সদর মডেল থানায় যোগদান করেন তিনি। এএসআই রুবেলের বন্দরের ফ্ল্যাটের কেয়ারটেকার জিয়াউল জানান, প্রায় সময় এএসআই রুবেল বিভিন্ন ধরনের লোকজনকে হাতকড়া পরিহিত অবস্থায় আটক করে এনে ফ্ল্যাটে রাখতেন। ওনাকে জিজ্ঞেস করলে কিছুই বলতেন না। নারায়ণগঞ্জ ডিবির ওসি মাহাবুবুর রহমান ও বন্দর থানার ওসি শাহীন মন্ডল জানান, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে বুধবার রাত ১২টার দিকে নারায়ণগঞ্জ সদর মডেল থানায় কর্তব্যরত অবস্থায় এএসআই রুবেলের পকেট থেকে পাঁচ হাজার পিস ইয়াবা জব্দ করা হয়। পুলিশের এই দুই কর্মকর্তা জানান, এরপর তার স্বীকারোক্তিতে বন্দর থানায় রূপালী আবাসিক এলাকাতে ভাড়া ফ্ল্যাট বাসায় অভিযান চালানো হয়। সেখান থেকে আরো ৪৫ হাজার পিস ইয়াবা জব্দ করা হয়। নারায়ণগঞ্জ সদর মডেল থানার ওসি কামরুল ইসলাম এ ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, তার পকেট থেকে ৫ হাজার পিস ইয়াবা জব্দ করা হয়েছে। তার বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা প্রক্রিয়াধীন রয়েছে। সিনিয়ার অফিসারদের সঙ্গেও আলোচনা চলছে। এ ব্যাপারে পরে ব্রিফিং করে বিস্তারিত জানানো হবে জানান ওসি।
সালিমুল হকের আপিলের পর জরিমানা স্থগিত
জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট মামলায় ১০ বছরের সাজা পাওয়া সালিমুল হকের আপিল গ্রহণ করেছেন হাইকোর্ট। একই সঙ্গে তাঁর জরিমানা দণ্ড স্থগিত করা হয়েছে। এ ছাড়া সালিমুল হকের আপিলটিকে বিএনপির চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার মামলার আপিলের সঙ্গে একত্রে শুনানির জন্য আদেশ দেন হাইকোর্ট। আজ বুধবার বিচারপতি এম ইনায়েতুর রহিম ও বিচারপতি সহিদুল করিম এসব আদেশ দেন। কাজী সালিমুল হকের পক্ষে আদালতে আবেদনটি করেন আইনজীবী পলাশ চন্দ্র দাস। এর আগে গত ৮ ফেব্রুয়ারি জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট মামলায় বিএনপির চেয়ারপারসন খালেদা জিয়াসহ ছয় আসামিকে সাজা দেওয়া হয়। এর মধ্যে সাবেক প্রধানমন্ত্রী খালেদা জিয়াকে পাঁচ বছরের এবং অন্য আসামিদের ১০ বছরের সাজা দেওয়া হয়। এরপর গতকাল মঙ্গলবার ১০ বছরের সাজা ও জরিমানার রায়ের বিরুদ্ধে হাইকোর্টের সংশ্লিষ্ট শাখায় আপিল দায়ের করেন সালিমুল হক। ওই মামলায় বিএনপির চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার সাজার বিরুদ্ধে করা জামিনের ওপর শুনানি শেষ হয়েছে। তবে বিএনপিপ্রধানের জামিনের বিষয়ে কোনো আদেশ দেননি উচ্চ আদালত। নিম্ন আদালত থেকে মামলার রায়ের নথি উচ্চ আদালতে আসার পর আদেশ দেওয়া হবে। গত ২২ ফেব্রুয়ারি জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট দুর্নীতি মামলায় নিম্ন আদালতের দেওয়া সাজার বিরুদ্ধে খালেদা জিয়ার করা আপিল শুনানির জন্য গ্রহণ করেন হাইকোর্ট। একই সঙ্গে জামিন আবেদনের ওপর শুনানির জন্য আজকের দিন ঠিক করেন। সেইসঙ্গে স্থগিত করেন খালেদা জিয়ার অর্থদণ্ড। আদালতে রাষ্ট্রপক্ষে অ্যাটর্নি জেনারেল মাহবুবে আলম এবং দুর্নীতি দমন কমিশনের (দুদক) পক্ষে ছিলেন আইনজীবী খুরশীদ আলম। খালেদা জিয়ার পক্ষে ছিলেন জ্যেষ্ঠ আইনজীবী জয়নুল আবেদীন, খন্দকার মাহবুব হোসেন ও এ জে মোহাম্মদ আলী। গত ১৯ ফেব্রুয়ারি বিএনপির চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার কারাদণ্ডের রায়ের পূর্ণাঙ্গ রায় প্রকাশিত হয়। এরপর গত ২০ ফেব্রুয়ারি বিকেলে জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট মামলায় রায়ের বিরুদ্ধে হাইকোর্টের সংশ্লিষ্ট শাখায় আপিল দায়ের করেন খালেদা জিয়ার আইনজীবীরা। বিএনপির চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া ও সাবেক সংসদ সদস্য কাজী সালিমুল হক কামাল ছাড়া মামলার অন্য আসামিরা হলেন বিএনপির সিনিয়র ভাইস চেয়ারম্যান তারেক রহমান, ব্যবসায়ী শরফুদ্দিন আহমেদ, প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের সাবেক সচিব কামাল উদ্দিন সিদ্দিকী ও প্রয়াত রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমানের ভাগ্নে মমিনুর রহমান। তাঁদের মধ্যে তারেক রহমান, কামাল উদ্দিন সিদ্দিকী ও মমিনুর রহমান পলাতক।
বিএসএফের গুলিতে এক বাংলাদেশি আহত
ঠাকুরগাঁওয়ের বালিয়াডাঙ্গী উপজেলার রত্নাই সীমান্তে ভারতীয় সীমান্তরক্ষী বাহিনী বিএসএফের গুলিতে রাজিব আলী (২৫) নামে এক বাংলাদেশি আহত হয়েছেন। বুধবার ভোর রাতে উপজেলার রত্নাই সীমান্তের বিপরীতে ভারতের সোনামতি বিএসএফ ক্যাম্পের জওয়ানদের গুলিতে আহত হন রাজিব। আহত রাজিব আলী আমজানখোর ইউনিয়নের রত্নাই মধ্যকাশিবাড়ী গ্রামের মংলু মোহাম্মদের ছেলে। সূত্র জানায়, আহত রাজিব গরু ব্যবসায়ী। তিনি ওপারে গরু আনতে গিয়েছিলেন। ফেরার পথে ভোর রাতে উপজেলার রত্নাই সীমান্তের বিপরীতে ভারতের সোনামতি বিএসএফ ক্যাম্পের জওয়ানদের গুলিতে আহত হন তিনি। বালিয়াডাঙ্গী থানার ওসি মোস্তাফিজার রহমান বলেন, তিনি দিনাজপুরে অবস্থান করায় এ ঘটনা জানেন না। স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান মো. আকালু বলেন, তিনি এ ঘটনা শুনেছেন। ঠাকুরগাঁও ৩০ বিজিবি ব্যাটালিয়নের অধিনায়ক লে. কর্নেল মো. হোসেনের সঙ্গে মুঠোফোনে যোগাযোগের চেষ্টা করে তাকে পাওয়া যায়নি। উল্লেখ্য গত ২৮ ফেব্রুয়ারি ওই সীমান্তে নাগর নদীর তীরবর্তী স্থানে ঘাস কাটার পর সরিষা তুলছিল বারসা গ্রামের ৯ বছরের শিশু নাঈম।ভারতের গোয়ালপুর থানার নাটুয়াটুলি বিএসএফ ক্যাম্পের জওয়ানদের গুলিতে আহত হয় সে।
আত্মসাৎকৃত বস্তাভর্তি টাকা উদ্ধার
কিশোরগঞ্জ জেলা প্রশাসক কার্যালয়ে ভূমি অধিগ্রহণের নামে আত্মসাৎকৃত টাকার মধ্যে ৯২ লাখ টাকা ওই জেলার হিসাবরক্ষণ অফিসের অডিটরের বাসা থেকে উদ্ধার করেছে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)। গতকাল মঙ্গলবার দিবাগত রাতে দুদকের ঢাকা বিভাগীয় কার্যালয়ের পরিচালক নাসিম আনোয়ারের নেতৃত্বে একটি বিশেষ দল এই টাকা উদ্ধার করে। দুদকের উপপরিচালক (জনসংযোগ) প্রণব কুমার ভট্টাচার্য এ তথ্য জানান। জমি অধিগ্রহণের ক্ষতিপূরণের প্রায় ১৪ কোটি টাকা আত্মসাৎ করে পালিয়ে যান সরকারের ভূমি অধিগ্রহণ কর্মকর্তা সেতাফুল ইসলাম। এর মধ্যে পরপর দুই দিনে তিনি সোনালী ব্যাংকের কিশোরগঞ্জ শাখা থেকে প্রায় পাঁচ কোটি টাকা তুলে বস্তায় ভরে নিয়ে যান। প্রণব কুমার জানান, গতকাল রাত ১২টার দিকে দুদক দলের সদস্যরা হারুয়া এলাকার কাতিয়ার চর খুরশীদের মাঠসংলগ্ন কিশোরগঞ্জ জেলা হিসাবরক্ষণ অফিসের অডিটর সৈয়দুজ্জামানের বাসায় অভিযান চালান। একপর্যায়ে লুকিয়ে রাখা বাজারের একটি ব্যাগ থেকে নগদ ৯২ লাখ টাকা পাওয়া যায়। এ সময় নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট, পুলিশ ও সৈয়দুজ্জামানের পরিবারের সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন। টাকা জব্দ করে কিশোরগঞ্জ মডেল থানায় জিম্মায় রাখা হয়েছে। পরে তা সরকারি ট্রেজারিতে জমা করা হবে।
ড.জাফর ইকবালের ওপর হামলার প্রতিবাদে শাহবাগে মশাল মিছিল
শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক ড. মুহাম্মদ জাফর ইকবালের উপর হামলার প্রতিবাদে রাজধানীর শাহবাগে মশাল মিছিল করেছে গণজাগরণ মঞ্চসহ কয়েকটি সংগঠন। শনিবার সন্ধ্যার পর শাহবাগ যাদুঘরের সামনে জড়ো হয় গণজাগরণ মঞ্চ, স্লোগান একাত্তর এবং সম্মিলিত সাংস্কৃতিক সমাজের কর্মীরা। এসময় তারা মশাল হাতে নিয়ে মিছিল শুরু করে টিএসসি মোড় হয়ে শাহবাগ মোড় প্রদক্ষিণ করে। মিছিলে সবাই বিভিন্ন শ্লোগানের মাধ্যমে এই হামলার দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দাবী করেন। পরে, মিছিল শেষে গণজাগরণ মঞ্চের মুখপাত্র ইমরান এইচ সরকার বলেন, এর আগে বিভিন্ন সময় লেখক ও প্রকাশকদের উপর যে হামলা হয়েছে তারই ধারাবাহিকতায় এই হামলা চালানো হয়। ড. মুহাম্মদ জাফর ইকবালের উপর হামলার প্রতিবাদে আগামীকাল বিকাল ৪টায় শাহবাগে বিক্ষোভ সমাবেশের ঘোষণা দিয়েছে গণজাগরণ মঞ্চ।