চট্টগ্রামে দুর্বৃত্তের ছুরিকাঘাতে যুবক নিহত
চট্টগ্রাম নগরের চান্দগাঁও থানার মোহরায় ছুরিকাঘাতে মোহাম্মদ আরাফাত (১৯) নামে এক যুবক নিহত হয়েছে। সোমবার দিনগত রাত সাড়ে নয়টার সময় কামাল বাজার এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। নিহত আরাফাত ওই এলাকার মোহাম্মদ হোসেনের ছেলে। চান্দগাঁও থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) আবুল বশর জানান, এলাকার পপুলার জিমের সদস্য ছিল নিহত আরাফাত। সেখানকার তত্ত্বাবধায়ক আরমানের সঙ্গে পূর্ব বিরোধের জের ধরে এ হত্যাকাণ্ডের ঘটনা ঘটতে পারে। আমরা এ ব্যাপারে অনুসন্ধান করছি। চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল পুরিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ (এসআই) জহিরুল ইসলাম জানান, রাত পৌনে সাড়ে আটটার দিকে স্থানীয় কামাল বাজার (মোহরা) এলাকায় কয়েকজন দুর্বৃত্ত আরাফাতকে একা পেয়ে গলায় ছুরি চালিয়ে দেয়। রক্তাক্ত অবস্থায় তাকে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেয়ার পর চিকিৎসকরা মৃত ঘোষণা করেন। প্রতক্ষ্যদশীরা জানান, শিপ ইয়ার্ড কর্মী আরাফাতকে রাতে স্থানীয় কবির টাওয়ারের সামনে একা পেয়ে হামলা করে দুর্বৃত্তরা। দুর্বৃত্তরা আরফাতের পেছনে দিক থেকে ঘাড়ের ‍ওপর ধারালো অস্ত্র দিয়ে কোপ দেয় এবং কাঁধের এক পাশে ছুরি ঢুকিয়ে দিয়ে পালিয়ে যায়। দুর্বৃত্তের ছুরিকাঘাতে মারাত্মকভাবে জখম হয় আরফাত। স্থানীয় লোকজন তাকে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।
তিনজন গ্রেফতার
নগরের সদরঘাট থানার বরিশাল কলোনিতে থেকে ৬২৩ পিস ইয়াবা, ৪ রাউন্ড গুলিসহ ১টি বিদেশি পিস্তল, ৩টি কিরিচসহ তিনজনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। রোববার (২০ মে) ভোররাতে কলোনির মালিপাড়া রেলওয়ে ৯ নম্বর কোয়ার্টারের ভেতরে চলাচলের সড়কের ওপর থেকে তাদের গ্রেফতার করা হয়। সদরঘাট থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) নেজাম উদ্দিন জানান, গ্রেফতার তিনজন হলেন ফেনীর সোনাগাজী থানার দুর্গাপুর কুটিরহাট বাজারের হোসেন বেপারির বাড়ির মো. আবদুর রউফের ছেলে মো. হানিফ ওরফে খোকন (৩৫), সাতকানিয়া উপজেলার ৫ নম্বর ইউনিয়নের ১ নম্বর ওয়ার্ডের আজিজ সওদাগরের বাড়ির কাজী গোলাম মাওলার ছেলে কাজী মো. আবদুল্লাহ (২৮) ও পটিয়া উপজেলার ৯ নম্বর ইউনিয়নের অজিত ড্রাইভারের বাড়ির রঞ্জিত কুমার দাসের ছেলে খোকন কুমার দাস (৩২)। ওসি জানান, গ্রেফতার তিনজন মাদক ব্যবসা সিন্ডিকেটের সক্রিয় সদস্য। খোকন কুমার দাস মাদক সম্রাট খ্যাত ‘বস ফারুক’র চালক। প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে তারা জানিয়েছে বরিশাল কলোনিতে তারা দীর্ঘদিন ইয়াবা, ফেনসিডিল, হেরোইন, গাঁজা পাইকারি ও খুচরা বিক্রি করছিল। তারা কক্সবাজারের টেকনাফ, কুমিল্লা ও ফেনী থেকে মাদক এসে বিক্রি করত। তারা বিপক্ষের মাদক ব্যবসায়ীদের ঠেকাতে অবৈধ অস্ত্র ব্যবহার করত।
পানি সরবরাহের কাজে সহযোগিতায় তিনটি নিয়ন্ত্রণ কক্ষ চালু
রমজানে নগরে পানি সরবরাহ নিরবচ্ছিন্ন রাখা এবং গ্রাহকদের অভিযোগ গ্রহণ ও তাৎক্ষণিক সমাধানের জন্য তিনটি নিয়ন্ত্রণ কক্ষ চালু করেছে চট্টগ্রাম ওয়াসা।নিয়ন্ত্রণ কক্ষ তিনটি হলো: দামপাড়া প্রধান কার্যালয় (০৩১-৬১৬৫৯২), আগ্রাবাদ মড-১ (০৩১-৭২৪৮৭৫) এবং জুবিলি রোড (০৩১-৬১৬৭৬৮)।রমজানে পানি সরবরাহ সংক্রান্ত কোনো অভিযোগ থাকলে এসব নিয়ন্ত্রণ কক্ষে যোগাযোগ করতে অনুরোধ জানিয়ে চট্টগ্রাম ওয়াসা কর্তৃপক্ষ। একই সঙ্গে পানির অপচয় ও অবৈধ সংযোগের মাধ্যমে পানি ব্যবহার থেকে বিরত থেকে সুষ্ঠু পানি সরবরাহের কাজে সহযোগিতার অনুরোধও জানিয়েছে ওয়াসা
আত্মমানবতার কল্যাণে বিত্তশালীদের এগিয়ে আসতে হবে :ডা. শাহাদাত
চট্টগ্রাম মহানগর বিএনপির সভাপতি ও কেন্দ্রীয় বিএনপির সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক ডাঃ শাহাদাত হোসেন বলেছেন, রমজান আসলেই নিত্য প্রয়োজনীয় দ্রব্যের মূল্য লাগামহীন ভাবে বেড়ে যায়। যার ফলে সমাজের হতদরিদ্র সুবিধা বঞ্চিত মানুষের দূর্ভোগের সীমা থাকেনা। তাই লাগামহীন ভাবে নিত্য প্রয়োজনীয় দ্রব্যের মূল্য রোধে প্রশাসনকে ব্যবস্থা নিতে হবে। পাশাপাশি ব্যবসায়ীদেরও গরীব দুঃস্ত অসহায়দের কথা চিন্তা করে দ্রব্যের মূল্য সহনীয় পর্যায়ে রাখতে হবে। ডা. শাহাদাত আরো বলেন, আত্ম মানবতার কল্যাণে গরীব, দুঃস্থ, অসহায় এবং সুবিধা বঞ্চিত মানুষের পাশে সমাজের বিত্তশালীদের এগিয়ে আসার আহবান জানান। তিনি অদ্য শনিবার ১৯শে মে বাদে আছর পাথরঘাটায় মরহুম আব্দুর রাজ্জাক ফাউন্ডেশনের উদ্যোগে ইফতার ও সেহেরী সামগ্রী বিতরণকালে প্রধান অথিতির বক্তব্যে উপরোক্ত কথা বলেন। মরহুম আব্দুর রাজ্জাক ফাউন্ডেশনের সভাপতি ওয়ার্ড কাউন্সিলর আলহাজ্ব মোহাম্মদ ইসমাইল বালির সভাপত্তিত্বে বিশেষ অথিতি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন চট্টগ্রাম মহানগর বিএনপির সাংগঠনিক সম্পাদক কামরুল ইসলাম, কোতোয়ালী থানা বিএনপির সভাপতি মঞ্জুরুল আলম মঞ্জু, সাধারণ সম্পাদক আলহাজ্ব জাকির হোসেন, আরো উপস্থিত ছিলেন নগর বিএনপির সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক আব্দুল হালিম স্বপন, নগর ছাত্রদলের সহ-সভাপতি জসিম উদ্দীন চৌধুরী, জিয়াউর রহমান জিয়া, ওয়ার্ড বিএনপি নের্তৃবৃন্দের মাঝে উপস্থিত ছিলেন, মোহাম্মদ হাছান, মো: তালেব, মো: মুন্না, মো: নাবিল, মান্নান, জাহাঙ্গীর, ইলিয়াছ, সালাউদ্দীন, ইয়াকুব আলী সিফা, ইসহাক, রিমন, নাবিল, মূছা, ফারুক প্রমুখ। প্রেস বিজ্ঞপ্তি
নদীবন্দরকে ২ নম্বর নৌ-হুঁশিয়ারি সংকেত
২৪ ঘণ্টার আবহাওয়ার পূর্বাভাসে বলা হয়েছে দেশের কোথাও কোথাও মাঝারী ধরনের ভারী থেকে ভারী বর্ষণ হতে পারে। পাশাপাশি পশ্চিম ও উত্তর-পশ্চিম দিক থেকে ঘণ্টায় ৪৫ থেকে ৬০ কিলোমিটার বেগে বৃষ্টি কিংবা বজ্রবৃষ্টিসহ অস্থায়ীভাবে দমকা ও ঝড়োহাওয়া বয়ে যেতে পারে। এসব এলাকার নদীবন্দরকে ২ নম্বর নৌ-হুঁশিয়ারি সংকেত দেখাতে বলা হয়েছে। আজ সকাল ৯টা থেকে পরবর্তী ২৪ ঘণ্টার আবহাওয়ার পূর্বাভাসে আরো বলা হয়, ঢাকা, খুলনা, বরিশাল, চট্টগ্রাম ও সিলেট বিভাগের অনেক জায়গায় এবং রংপুর, রাজশাহী ও ময়মনসিংহ বিভাগের দুই এক জায়গায় অস্থায়ী দমকা অথবা ঝড়ো হাওয়া ও বিজলী চমকানোসহ হালকা থেকে মাঝারী ধরনের বৃষ্টি অথবা বজ্রসহ বৃষ্টি হতে পারে। রংপুর ও রাজশাহী বিভাগে দিনের তাপমাত্রা সামান্য বৃদ্ধি পেতে পারে। এ ছাড়া দেশের অন্যত্র তাপমাত্রা প্রায় অপরিবর্তিত থাকতে পারে।
একটি কিনলে আরেকটি ফ্রি মাস্টারকার্ডের বোগো ইফতারে
পবিত্র রমজান মাস উপলক্ষে মাস্টারকার্ড নতুন বোগো বাই-ওয়ান-গেট ওয়ান বা একটি কিনলে একটি ফ্রি ইফতার অফার চালু করেছে। মাস্টারকার্ডধারীদের প্রিয় ও পছন্দের জায়গাগুলোতে ইফতারের সময় খাবার কেনা কিংবা খাওয়ার ক্ষেত্রে বাড়তি সুবিধা প্রদানের মাধ্যমে ক্যাশলেস পেমেন্ট অর্থাৎ প্রযুক্তিভিত্তিক কার্ড দিয়ে কেনাকাটা বাড়ানোর লক্ষ্যে এই অফার চালু করা হয়েছে; যা গোটা রমজান মাস জুড়ে চলবে। এই অফারের আওতায় মাস্টারকার্ডধারীরা মাস্টারকার্ডের পার্টনার রেস্টুরেন্টগুলোতে একটি ইফতার এবং নৈশভোজ (ডিনার) কিনলে আরেকটি বিনামূল্যে পাবেন। নতুন অফারের উদ্বোধন অনুষ্ঠানে মাস্টারকার্ড বাংলাদেশের কান্ট্রি ম্যানেজার সৈয়দ মোহাম্মদ কামাল বলেন, পবিত্র রমজান মাসে মানুষের মধ্যে ইফতারের সময়ে রেস্টুরেন্টে গিয়ে ইফতার খাওয়ার প্রতি আগ্রহ থাকে। তাই আমরা মাস্টারকার্ডধারীদের বাড়তি সুবিধা দিতে নতুন অফারটি নিয়ে এসেছি। তাঁরা এই ক্যাম্পেইনের আওতায় আমাদের বিভিন্ন পার্টনার রেস্টুরেন্টে সপরিবারে ও সবান্ধব গিয়ে নিরাপদ ও সুবিধাজনক উপায়ে ইফতার ও নৈশভোজ খেতে অর্থ ব্যয় করতে পারবেন। পবিত্র রমজান মাসে বাসার বাইরে গিয়ে ইফতার খাওয়ার প্রবণতা দিন দিন জনপ্রিয় হয়ে উঠছে। সে জন্য মাস্টারকার্ডধারীদের জন্য এই অফার ইফতার ও নৈশভোজ খাওয়ার দারুণ এক সুযোগ এনে দিয়েছে। মাস্টারকার্ডের বিভিন্ন পার্টনার হোটেলগুলোর মধ্যে রয়েছে এশিয়া হোটেল এন্ড রিসোর্ট, বেঙ্গল ইন, ক্যানারি পার্ক, ডেইজ হোটেল ঢাকা, ফার্স হোটেল, গ্যালেসিয়া হোটেল এন্ড রিসোর্ট লিমিটেড, গ্রেস ২১, গ্র্যান্ড ওরিয়েন্টাল হোটেল (সাওয়াদী), হানসা, হোটেল অ্যাসকট প্যালেস, হোটেল বেঙ্গল ব্লু-বেরি, হোটেল স্টার প্যাসিফিক সিলেট, হোটেল সুইস গার্ডেন, ইনোটেল, লেকশোর বনানী, লং বিচ হোটেল, মারিনো রয়্যাল হোটেল, নর্ডিক হোটেলস লিমিটেড, অর্চার্ড সুইট, প্লাটিনাম গ্র্যান্ড, প্লাটিনাম রেসিডেন্স, প্লাটিনাম স্যুইটস, দ্য ওলিভস, দ্য পেনিনস্যুলা চিটাগাং। অংশীদার রেস্টুরেন্টগুলির মধ্যে রয়েছে এবাকাস, হান্ডি ইন্ডিয়ান বিস্ট্রো, কিং ফিশার রেস্টুরেন্ট, পিকাসো, দ্য মিরাজ, দ্য প্রানডিয়াম।
২৭৬ মেধাবী শিক্ষার্থীকে সম্মাননা ভৈরবে
তোমার আলো ছড়িয়ে পড়ুক বিশ্বময়’ এ শ্লোগানকে সামনে রেখে কিশোরগঞ্জের ভৈরবে মেধাবী শিক্ষার্থীদের সম্মাননা দেয়া হয়েছে। শনিবার দুপুরে শহরের মেহেদী কমিউনিটি সেন্টারে এই সম্মাননা দেয় ভৈরব বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্র সংসদ। উপজেলার বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের জেএসসি, এসএসসি ও এইচএসসি পরীক্ষায় জিপিএ-৫ প্রাপ্ত ২৭৬জন কৃতি শিক্ষার্থীকে এই সম্মাননা দেয়া হয়। এতে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ সুপ্রীম কোর্টের বিচারপতি মো. জাহাঙ্গীর হোসেন বাদল। এসময় বিশেষে অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের সদস্য মো. সিরাজুল ইসলাম, শহরের রফিকুল ইসলাম মহিলা কলেজের অধ্যক্ষ শরীফ আহমেদ ও ভৈরব প্রেসক্লাব সভাপতি মো. জাকির হোসেন কাজল প্রমুখ। সংগঠনের সাধারণ সম্পাদক মো. তরিকুল ইসলাম রাহিমের সঞ্চালনায় সম্মাননা অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন ভৈরব বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্র সংসদের সভাপতি পাপিয়া ইসলাম রূপু। আলোচনা সভা শেষে মেধাবী শিক্ষার্থীদের হাতে ক্রেস্ট ও সনদপত্র তুলে দেয় অতিথিবৃন্দ।

সারা দেশ পাতার আরো খবর