দিনাজপুরে ১৯৩ বোতল ফেনসিডিলসহ ৩ মাদক ব্যবসায়ীকে আটক করেছে Rab
০৭মে,বৃহস্পতিবার,আব্দুল আউয়াল,দিনাজপুর প্রতিনিধি,নিউজ একাত্তর ডট কম: দিনাজপুরে ১৯৩ বোতল ফেনসিডিল ও মাদক বিক্রির কাজে ব্যবহৃত ২ টি মোটর সাইকেলসহ ৩ জন মাদক ব্যবসায়ীকে আটক করেছে Rab। Rab কর্মকর্তা লেফটেন্যান্ট আবদুল্লাহ আল মামুনের নেতৃত্বে গতকাল বুধবার (০৬ মে) মধ্যরাতে জেলার নবাবগঞ্জ উপজেলার ভাগলপুর বাজার এলাকায় Rab এই অভিযান চালিয়ে তাদের মাদকদ্রব্যসহ গ্রেফতার করে। গ্রেফতারকৃত মো. মাসুদ রানা ও মো. শাহিনুর ইসলামের বাড়ি বিরামপুর উপজেলা দিনাজপুর এবং মো. মমিনুর ইসলাম মিঠাপুকুর রংপুর জেলায়। Rab জানিয়েছে, তারা দীর্ঘদিন যাবত অবৈধ মাদক ব্যবসায় জড়িত এবং দিনাজপুর সীমান্তবর্তী এলাকা হতে মাদকদ্রব্য সংগ্রহ করে দেশের বিভিন্ন জায়গায় সরবরাহ করে। Rab বাদী হয়ে ধৃত আসামিদের বিরুদ্ধে আজ বৃহস্পতিবার দিনাজপুর জেলার নবাবগঞ্জ থানায় মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে মামলা দায়ের করে।
উখিয়ায় বন্দুকযুদ্ধে মানবপাচারকারী রোহিঙ্গা নিহত
০৭মে,বৃহস্পতিবার,মুনির উদ্দিন,কক্সবাজার প্রতিনিধি,নিউজ একাত্তর ডট কম: কক্সবাজারের উখিয়ায় বিজিবির সঙ্গে বন্দুকযুদ্ধে এক রোহিঙ্গা নিহত হয়েছে। বিজিবির দাবি, বন্দুকযুদ্ধে নিহত ব্যক্তি মাদক পাচারকারী। ঘটনাস্থল থেকে ৩০ হাজার ইয়াবা, একটি দেশীয় বন্দুক ও ৩ রাউন্ড গুলি উদ্ধার করা হয়। বৃহস্পতিবার ভোরে বাংলাদেশ-মিয়ানমার সীমান্তের উখিয়ার রহমতের বিল এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। নিহত মো: সাদেক (২২) উখিয়ার বালুখালী রোহিঙ্গা শিবিরের ক্যাম্প-৮ ব্লক-৭৪ এর মৃত আব্দুল জলিলের ছেলে। কক্সবাজারস্ত বিজিবি ৩৪ ব্যাটালিয়নের অধিনায়ক লে. কর্নেল আলী হায়দার আজাদ আহমেদ নিউজ একাত্তরকে বলেন, মিয়ানমার হতে বাংলাদেশে বিপুল পরিমাণ ইয়াবা প্রবেশ করতে পারে এমন সংবাদের ভিত্তিতে বিজিবির একটি টহল দল সীমান্তের শূন্য রেখা হতে আনুমানিক ৬৫০ গজ বাংলাদেশের অভ্যন্তরে রহমতের বিল বেড়িবাঁধ এলাকায় অবস্থান নেয়। পরে ভোরে ৪/৫ জনের একটি দল রহমতের বিল বেড়িবাঁধ দিয়ে বাংলাদেশে দিকে আসতে দেখে বিজিবি তাদেরকে চ্যালেঞ্জ করে। কিন্তু ওই দলটি অস্ত্র-সস্ত্র নিয়ে বিজিবির টহলকে লক্ষ্য করে এলোপাথাড়ি গুলিবর্ষণ শুরু করে। এসময় বিজিবিও পাল্টা গুলি করে। এক পর্যায়ে অজ্ঞাতনামা ব্যক্তিরা মিয়ানমারের দিকে পালিয়ে যায়। পরবর্তীতে টহল দল ঘটনাস্থল থেকে গুলিবিদ্ধ গুরুতর আহত অবস্থায় অজ্ঞাত এক ব্যক্তিকে উদ্ধার করে চিকিৎসা জন্য উখিয়া স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যায়। কিন্তু কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করে। গুলিবিদ্ধ অবস্থায় তাকে উদ্ধার করে উখিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নেয়ার পথে প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে তার নাম ও ঠিকানা পাওয়া যায়। নিহতের লাশ ময়নাতদন্তের জন্য কক্সবাজার জেলা সদর হাসপাতালের মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে। উল্লেখ্য, চলতি বছরে বিজিবির ৩৪ ব্যাটালিয়ন ১ জানুয়ারি হতে ৬ মে পর্যন্ত ১২ লাখ ৬৫ হাজার ৪৮৩ পিস ইয়াবাসহ ২৬৪ জন আসামীকে আটক করে। আর বিজিবির সঙ্গে বন্দুকযুদ্ধে মারা যান ১৩ মাদক ব্যবসায়ী।
খুলনায় সাংবাদিক রফিকের উপর সন্ত্রাসী হামলা
০৫মে,মঙ্গলবার,খুলনা প্রতিবেদক,নিউজ একাত্তর ডট কম: খুলনা টিভি রিপোর্টাস এসোসিয়েশনের সদস্য ও মাই টিভির সাবেক খুলনা প্রতিনিধি মো. রফিকুল ইসলামের উপর সন্ত্রাসী হামলা চালিয়েছে এলাকার মাদক ব্যবসায়ী ও চিহ্নিত সন্ত্রাসীরা। এ সময় রফিকের ছেলে-মেয়েকেও মারধোর করা হয়। গত রোববার বিকেল সাড়ে ৫টার দিকে নগরীর ১১/৩ মুসলমানপাড়া রোডের নিজ বাড়িতে এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় তিনি পরিবারের নিরাপত্তা ও সন্ত্রাসী হামলার তদন্ত চেয়ে খুলনা থানায় অভিযোগ দায়ের করেছেন। অভিযুক্তরা হলেন-নগরীর ১১/৩ মুসলমানপাড়া রোডস্থ আকরাম ফকির লেনের আব্দুল লতিফ হাওলাদারের দুছেলে মেহেদী হাসান রানা ওরফে বোমারু রানা (৩৫) ও মেহেদী হোসেন রলি (৩২) এবং মৃত মকবুল হোসেন বকু মোল্লার ছেলে রিয়াজুল ইসলাম বাবু (৩৭)। অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, রফিকুল ইসলাম ছেলে-মেয়ে নিয়ে নগরীর ১১/৩ মুসলমানপাড়া রোডের নিজ বাড়িতে বসবাস করেন। ৩ মে বিকেল সাড়ে ৫টার দিকে পূর্ব শত্রুতার জেরে অভিযুক্তরা রফিককে গালিগালাজ করতে থাকে। এ সময় রফিক প্রতিবাদ করলে তাকে মারধোর করা হয়। তার ছেলে-মেয়ে এগিয়ে আসলে তাদেরও মারধোর করা হয়। অভিযোগে আরো জানা যায়, অভিযুক্তরা এলাকার মাদক ব্যবসায়ী ও চিহ্নিত সন্ত্রাসী। তাদের নামে থানায় একাধিক অস্ত্র, বোমাবাজি, চাঁদাবাজি ও ছিনতাই মামলা রয়েছে। এখন তারা প্রাণে শেষ করে ফেলার হুমকি দিচ্ছে। রফিক ও তার ছেলে- মেয়েকে মারধোরের ঘটনার তদন্ত পূর্বক অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য রফিক খুলনা থানায় অভিযোগ দায়ের করেছেন।
ত্রাণ চুরি করায় আরো ১ ইউপি চেয়ারম্যান ও ৬ মেম্বার বরখাস্ত
০৫মে,মঙ্গলবার,নিজস্ব প্রতিবেদক,নিউজ একাত্তর ডট কম: ত্রাণ নিয়ে অনিয়মসহ বিভিন্ন অভিযোগে ১ ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান ও ৬ ইউপি সদস্যকে সাময়িকভাবে বরখাস্ত করেছে স্থানীয় সরকার, পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রণালয়। মঙ্গলবার (০৫ মে) স্থানীয় সরকার বিভাগ হতে এ সংক্রান্ত পৃথক প্রজ্ঞাপন জারি করা হয়। করোনা ভাইরাসের প্রাদুর্ভাব শুরু হবার পর এ নিয়ে মোট ৪৯ জন জনপ্রতিনিধিকে সাময়িকভাবে বরখাস্ত করা হলো। তাদের মধ্যে ১৮ জন ইউপি চেয়ারম্যান, ২৯ জন ইউপি সদস্য, ১ জন জেলা পরিষদ সদস্য এবং ১ জন পৌরসভার কাউন্সিলর। আজ সাময়িকভাবে বরখাস্ত হলেন- মাদারীপুর জেলার সদর উপজেলার শিরখাড়া ইউপি চেয়ারম্যান মুজিবুর রহমান হাওলাদার। এছাড়া সাময়িকভাবে বরখাস্তকৃত ইউনিয়ন পরিষদ সদস্যরা হলো বাগেরহাট জেলার রামপাল উপজেলার পেড়িখালী ইউপি'র ১নং ওয়ার্ডের রুবেল ইজারাদার ওরফে বাবুল মেম্বার,নড়াইল জেলার সদর উপজেলার মাইজপাড়া ইউপি'র ৮ নং ওয়ার্ডের মো. সোহরাব হোসেন বিশ্বাস, শরীয়তপুর জেলার জাজিরা উপজেলার বিলাসপুর ইউপি'র ৯নং ওয়ার্ডের মো. সেলিম মোল্লা, ঝালকাঠি জেলার নলছিটি উপজেলার সুবিদপুর ইউপি'র ৮নং ওয়ার্ডের রেজাউল করিম খান সোহাগ, মৌলভীবাজার জেলার শ্রীমঙ্গল উপজেলার কালাপুর ইউপি'র ৩ নং ওয়ার্ডের মুজিবুর রহমান এবং ১,২ ও ৩ নং ওয়ার্ডের সংরক্ষিত আসনের সদস্য সাহিদা বেগম রূপা। প্রজ্ঞাপনে উল্লেখ করা হয়, মাদারীপুর জেলার সদর উপজেলার শিরখাড়া ইউপি চেয়ারম্যান মুজিবুর রহমান হাওলাদার সরকারি নির্দেশনা অমান্য করে বিনা অনুমতিতে ইতালি গমন করেছেন এবং সেখানে অবস্থান করছেন। পৃথক প্রজ্ঞাপনে উল্লেখ করা হয়, বাগেরহাট জেলার পেড়িখালী ইউপি সদস্য রুবেল ইজারাদার ওরফে বাবুল মেম্বার করোনাভাইরাস প্রাদুর্ভাবের সময় সরকারি দায়িত্ব পালনরত চিকিৎসকদের দায়িত্বপালনে বাধা প্রদান ও শারীরিকভাবে লাঞ্ছিত করার অভিযোগে গ্রেফতার হয়ে জেল-হাজতে রয়েছেন। বরখাস্তকৃত অন্য সদস্যরা সরকারের খাদ্য-বান্ধব কর্মসূচির চাল আত্মসাৎসহ ত্রাণ বিতরণে অনিয়ম করেছেন বলে তদন্তে প্রমাণিত হয়েছে এবং কেউ কেউ গ্রেফতার হয়ে জেল-হাজতে আছেন। উল্লেখিত, চেয়ারম্যান ও সদস্য কর্তৃক সংঘটিত অপরাধমূলক কার্যক্রমের পরিপ্রেক্ষিতে তাদের দ্বারা ইউনিয়ন পরিষদের ক্ষমতা প্রয়োগ প্রশাসনিক দৃষ্টিকোণে সমীচীন নয় মর্মে সরকার মনে করে। কাজেই স্থানীয় সরকার (ইউনিয়ন পরিষদ) আইন ২০০৯ এর ৩৪(১) ধারা অনুযায়ী, তাদের স্বীয় পদ হতে সাময়িকভাবে বরখাস্ত করা হলো। একইসময় পৃথক পৃথক কারণ দর্শানো নোটিশে কেন তাদেরকে চূড়ান্তভাবে তাদের পদ থেকে অপসারণ করা হবে না তার জবাবপত্র প্রাপ্তির ১০ কার্যদিবসের মধ্যে সংশ্লিষ্ট জেলা প্রশাসকের মাধ্যমে স্থানীয় সরকার বিভাগে প্রেরণের জন্য অনুরোধ করা হয়।
মোংলায় অসাধু ব্যবসায়ীদের জরিমানা
০৪মে,সোমবার,আব্দুল আল শফি,মোংলা প্রতিনিধি,নিউজ একাত্তর ডট কম: রমজানে মোংলায় নিত্যপ্রয়োজনীয় দ্রব্য বেশি দামে বিক্রির দায়ে মোংলায় কয়েক ব্যবসায়ীকে জরিমানা করেছে ভ্রাম্যমান আদালত। সোমবার (৪ মে) দুপুরে বাজারের মুদি ব্যবসায়ীদের এই অর্থদন্ড দেয়া হয়। এছাড়া বাটখারায় ওজনে কম থাকায় মাছ ব্যবসায়ীকেও অর্থদন্ড দেওয়া হয় এসময়। ভ্রাম্যমান আদালত পরিচালনা করেন নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট ও উপজেলা নির্বাহী অফিসার (ইউএনও) মোঃ রাহাত মান্নান। ইউএনও মোঃ রাহাত মান্নান সাংবাদিকদের বলেন, কিছু অসাধু ব্যবসায়ী নিত্যপ্রয়োজনীয় দ্রব্য বেশি দামে বিক্রি করে সাধারণ মানুষদের ঠকাচ্ছেন। এসব অসাধু ব্যবসায়ীদের বিরুদ্ধে অভিযান অব্যাহত থাকবে। এছাড়া তিনি আরও বলেন, কাঁচা বাজারে যেসব ব্যবসায়ী সিন্ডিকেট তৈরী করে পণ্য বিক্রি করছেন তাদেরকেও আইনেরও আওতায় এনে জরিমানা করা হবে।
ভালুকা মানবসেবা সামাজিক সংগঠনের উদ্যেগে কর্মহীনদের মাঝে খাদ্য সহায়তা প্রদান
০৪মে,সোমবার,মো.মোকছেদুর রহমান মামুন,ভালুকা প্রতিনিধি,নিউজ একাত্তর ডট কম: করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে কুয়েত প্রবাসীদের আর্থিক সহযোগীতায়, ঘরে থাকা হত দরিদ্র মানুষদের মাঝে খাদ্যসামগ্রী বিতরন করেছেন ভালুকা মানবসেবা সামাজিক সংগঠন নামে একটি স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন। ৪ মে সোমবার সকালে ভালুকা পৌরসভার ৫নং ওয়ার্ডে ১১০টি অসহায় পরিবারের মাঝে চাল, ডাল, আলু, মুড়ি, সোলা বুট বিতরণ করেন৷ এসময় উপস্থিত ছিলেন,ভালুকা মানব সেবা সামাজিক সংগঠনের প্রতিষ্ঠাতা পরিচালক জনাব সাইফুল ইসলাম। তিনি অসহায় মানুষের পাশে দাড়ানোর জন্য সমাজের বিত্তবানদের এগিয়ে আসার আহ্বান জানান। তিনি আরও বলেন আমরা নিয়ম মেনে চললে ইনশাআল্লাহ এটা প্রতিরোধ করতে পারব। মোবাইল ফোনে এই সংগঠনের সদস্য কুয়েত প্রবাসী উজ্বল মন্ডল জানান,এই সময় নিজ দেশের মানুষের জন্য সামান্য কিছু সহযোগীতা করতে পারা, এইটা আমাদের মত প্রবাসীদের জন্য অনেক ভাগ্যের বিষয়। করোনা ভাইরাস যেভাবে ছড়িয়ে পড়ছে একে প্রতিরোধ করতে হলে নামাজ পড়ে আল্লাহর নিকট প্রার্থনা করতে হবে। সেই সাথে আমাদের সকলকে নিয়ম মেনে ঘরে থাকতে হবে। এ সময় অারও উপস্থিত ছিলেন,ভালুকা মানবসেবা সামাজিক সংগঠনের সদস্য হুমায়ুন কবির,আতিকুল ইসলাম,ইমরুল হাসান মিশু,নাজমুল হাসান নাঈম,এনামুল, ফয়সাল প্রমুখ।
বকেয়া বেতন ও ভাতার দাবীতে কুমিল্লায় বিআরডিবির কর্মচারীদের মানববন্ধন
০৪মে,সোমবার,মো.আহসান বিল্পব,কুমিল্লা প্রতিনিধি,নিউজ একাত্তর ডট কম: কুমিল্লায় বাংলাদেশ পল্লী উন্নয়ন বোর্ডর (বিআরডিবি) আওতাধীন বাস্তবায়িত বিভিন্ন প্রকল্প ও কর্মসূচিতে কর্মরত কর্মচারীরা বকেয়া বেতন ও ভাতার দাবীতে মানববন্ধন করেছেন। আজ সোমবার সকালে কুমিল্লা সদর উপজেলা পরিষদ প্রাঙ্গণে প্রতিষ্ঠানটির কার্যালয়ের সামনে এ কর্মসূচি পালন করেন তারা। এতে ১৭ টি উপজেলায় কর্মরত কর্মচারীরাও যোগ দেন। কর্মচারীরা জানান, করোনা ভাইরাসের প্রাদুর্ভাব জনিত ঋণ কার্যক্রম স্থবির আছে। যার ফলে মার্চ মাস থেকে তাদের বেতন ভাতা বন্ধ রয়েছে। এতে তারা মানবেতর জীবন যাপন করছেন। এদিকে করোনা ভাইরাসের কারনে বিআরডিবির দেয়া ঋণ প্রকল্পসহ সব প্রকল্পই বন্ধ রয়েছে। এসব প্রকল্পের ঋণের লভ্যাংশ থেকে তাদের বেতন দেয়া হতো। বর্তমানে অবরুদ্ধ বা লকডাউন চলায় এসব প্রকল্পও থেমে আছে। লকডাইন না উঠা পর্যন্ত গ্রাহকদের ঋণ দেয়া ও লভ্যাংশ উঠানো যাবে না। উল্লেখ্য, কুমিল্লা জেলায় ১৭ টি উপজেলায় ২ শত ১৯ জন কর্মচারী এ সব প্রকল্পে কাজ করছেন।
রাজশাহীতে ত্রাণের দাবিতে সড়ক অবরোধ করে বিক্ষোভ
০৪মে,সোমবার,মো.মহিউদ্দিন,রাজশাহী প্রতিনিধি,নিউজ একাত্তর ডট কম: রাজশাহীতে সড়ক অবরোধ করে ত্রাণের জন্য বিক্ষোভ করেছে এলাকাবাসী। সোমবার সকালে নগরের কেদুর মোড় এলাকায় এই বিক্ষোভ করে তারা। এ সময় তারা ২৪ নম্বর ওয়ার্ড কাউন্সিলর আরমান আলীর বিরুদ্ধে ত্রাণ বিতরণের অনিয়মের অভিযোগ তুলে ক্ষোভ জানায় এলাকাবাসী। এলাকাবাসীর অভিযোগ, করোনার জন্য দীর্ঘদিন ধরে তারা বেকার হয়ে পড়ে থাকলেও কোন ত্রাণ সহায়তা পাচ্ছেন না। এতে তাদের পরিবার মানবেতর জীবনযাপন করছে। এই পরিস্থিতিতে তারা বাধ্য হয়ে সড়কে নেমেছেন। অটোরিকশা চালক কলিমউদ্দিন নামের একজন বিক্ষোভকারী জানান, ত্রাণ দেয়ার কথা বলে জাতীয় পরিচয়পত্র কার্ডের ফটোকপি নিয়েছিলেন ২৪ নম্বর ওয়ার্ড কাউন্সিলর আরমান আলী। কিন্তু তাদের ত্রাণ দেয়া হয়নি। ত্রাণ না পেয়ে তারা মানবেতর জীবনযাপন করছেন। ত্রাণ দেওয়া না হলে লকডাউন তুলে নেয়ার দাবি জানান তিনি। ত্রাণ না দেয়ার অভিযোগ অস্বীকার করে ২৪ নম্বর ওয়ার্ড কাউন্সিলর আরমান আলী বলেন, সোমবার সকাল থেকে কিছু অটোরিকশাচালক গ্যারেজ খুলে দেয়ার দাবিতে বিক্ষোভ করছিল। পরে প্রশাসনের লোকজন গিয়ে ত্রাণ দেয়ার আশ্বাস দিলে বিক্ষোভকারীরা চলে যায়। ত্রাণের বিষয়ে তিনি বলেন, আমার এলাকার নিম্ন আয়ের মানুষের তালিকা করে ত্রাণ দেয়া হয়েছে। এখানে কোন উচ্চবিত্ত পরিবারকে ত্রাণ দেয়া হয়নি। সুন্দরভাবে হতদরিদ্রদের মাঝে ত্রাণ দেয়া হয়েছে।
ছাত্রীকে নিয়ে শিক্ষক উধাও
০৩মে,রবিবার,সিরাজগঞ্জ প্রতিবেদক,নিউজ একাত্তর ডট কম: সিরাজগঞ্জের তাড়াশে স্ত্রী-সন্তান থাকা সত্ত্বেও এক স্কুলছাত্রীকে নিয়ে উধাও হয়েছে আইয়ুব আলী নামে এক স্কুলশিক্ষক। এঘটনায় ওই স্কুল শিক্ষকের স্ত্রী থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছেন।জানা যায়, তাড়াশ উপজেলার রঘুনিলী মঙ্গলবাড়িয়া উচ্চ বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক ও সাকুয়াদিঘী গ্রামের ইউসুব আলীল ছেলে আইয়ুব আলী একই উপজেলার কালিদাস নিলী গ্রামের জহরুল ইসলামের মেয়ে ও তার স্কুলছাত্রী জাকিয়া সুলতানাকে প্রাইভেট পড়াত। প্রাইভেট পড়ানোর নামে ১৬ মার্চ স্থানীয় লোকজন ওই শিক্ষককে আপত্তিকর অবস্থায় আটক করে। পরে বিষয়টি স্থানীয়ভাবে মিমাংসা হয়। এ অবস্থায় শুক্রবার সকালে আইয়ুব আলী ওই স্কুলছাত্রীকে নিয়ে পালিয়ে যায়। এ ঘটনা জানাজানি হওয়ার পর আইয়ুবের স্ত্রী তাড়াশ থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করে। অপ্রাপ্ত একজন স্কুলছাত্রীকে নিয়ে উধাও হওয়ায় ওই শিক্ষকের দৃষ্টান্তমূলক শাস্ত দাবি করেন।

সারা দেশ পাতার আরো খবর