২৪ নভেম্বর থেকে চট্টগ্রামে বিপিএল
সিলেটে-ঢাকা মাতিয়ে এবার বন্দর নগরী চট্টগ্রামে যাচ্ছে বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগের (বিপিএল) পঞ্চম আসর। সে জন্য ২২ এবং ২৩ নভেম্বর বিপিএলের কোনো খেলা মাঠে গড়াবে না। ২৪ নভেম্বর থেকে চট্টগ্রামের জহুর আহমেদ চৌধুরী স্টেডিয়ামে শুরু হবে বিপিএল তৃতীয় পর্ব। যাত্রা দিনের প্রথম ম্যাচে খুলনা টাইটানসের মুখোমুখি হবে রংপুর রাইডার্স। দ্বিতীয় ম্যাচে ঘরের দল চিটাগং ভাইকিংস খেলবে সিলেট সিক্সার্সের বিপক্ষে। ২৯ নভেম্বর পর্যন্ত খেলা চলবে চট্টগ্রামের মাটিতে। ২ ডিসেম্বর দ্বিতীয়বারের মতো ঢাকায় ফিরে ১২ ডিসেম্বর পর্দা নামবে বিপিএলের। দুই পর্ব শেষে পয়েন্ট টেবিলের শীর্ষে আছে তামিম ইকবালের দল কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ানস। তাদের পয়েন্ট ৬ ম্যাচে ১০। দুইয়ে আছে সাকিব আল হাসানের ঢাকা ডায়নামাইটস। ৮ ম্যাচে ৯ পয়েন্ট রয়েছে তাদের ঝুলিতে। তিন নম্বর জায়গাটা দখলে নিয়েছে মাহমুদউল্লাহ রিয়াদের খুলনা টাইটানস। ৭ ম্যাচে ৯ পয়েন্ট তাদের। চারে আছে নাসির হোসেনের সিলেট সিক্সার্স। তাদের নামের পাশে আছে ৭ পয়েন্ট। পাঁচ, ছয় এবং সাতে যথাক্রমে রংপুর রাইডার্স (৬ ম্যাচে ৬ পয়েন্ট), রাজশাহী কিংস ( ৭ ম্যাচে পয়েন্ট ৪), চিটাগং ভাইকিংস ( ৬ ম্যাচে ৩ পয়েন্ট)।
সুজনকে অন্তর্বর্তীকালীন কোচ নিয়োগ
চন্ডিকা হাথুরুসিংহে থাকবেন কী থাকবেন না- এখনও এ বিষয়ে অন্ধকারে রয়েছে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড। এখনও তারা আশা করছেন, হাথুরু ঢাকায় আসবেন এবং তার সঙ্গে সব বিষয়ে কথা-বার্তা বলার সুযোগ পাবেন তারা। তবে, আগামী মাসের শেষের দিকেই যেহেতু পূর্ণাঙ্গ সিরিজ খেলার জন্য শ্রীলঙ্কা ক্রিকেট দল বাংলাদেশে আসছে, সে জন্য হাথুরু আসছে না ধরে নিয়েই খালেদ মাহমুদ সুজনকে অন্তর্বর্তীকালীন কোচ নিয়োগ দিয়েছে বিসিবি। সোমবার বোর্ড সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন নিজেই এক সংবাদ সম্মেলনে এ ঘোষণা দিয়েছেন। চন্ডিকা হাথুরুসিংহে আর আসছেন না- এমন নিশ্চিত সংবাদ আগেও একাধিকবার প্রকাশ হয়েছে বিভিন্ন অনলাইনে। বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড থেকে বারবার বলা হচ্ছিল, তারা হাথুরুর অপেক্ষায় রয়েছেন। তিনি ঢাকায় এসে তাদের (বিসিবির) সঙ্গে আলোচনা না করা পর্যন্ত আনুষ্ঠানিক কোনো ঘোষণাও দিতে পারছেন না তারা। এমনকি এটাও বলছিলেন, নির্দিষ্ট একটা সময় পর্যন্ত তারা অপেক্ষা করবেন। হাথুরু এর মধ্যে না আসলে ভিন্ন কোনো সিদ্ধান্ত নেবে বিসিবি।