বিশ্বকাপে বাংলাদেশের সূচি
২২মে,বুধবার,ক্রীড়া ডেস্ক,নিউজ একাত্তর ডট কম: আগামী ৩০ মে ইংল্যান্ড অ্যান্ড ওয়েলসে শুরু হতে যাচ্ছে আইসিসি বিশ্বকাপের ১২তম আসর। ষষ্ঠবারের মতো ক্রিকেটের এই মহারণে খেলতে যাচ্ছে বাংলাদেশ। সর্বপ্রথম অংশগ্রহণ করে ১৯৯৯ সালে। এরই মধ্যে বিশ্বকাপের পূর্ণাঙ্গ সময়সূচি প্রকাশ করেছে আইসিসি। উদ্বোধনী ম্যাচে মুখোমুখি হবে স্বাগতিক ইংল্যান্ড ও দক্ষিণ আফ্রিকা। আর বাংলাদেশের বিশ্বকাপ মিশন শুরু হবে ২ জুন, প্রতিপক্ষ দক্ষিণ আফ্রিকা। এক নজরে বাংলাদেশের বিশ্বকাপ সূচি ২ জুন প্রতিক্ষ: দক্ষিণ আফ্রিকা ভেনু: ওভাল ৫ জুন প্রতিপক্ষ: নিউজিল্যান্ড ভেন্যু: ওভাল ৮ জুন প্রতিপক্ষ: ইংল্যান্ড ভেন্যু: কার্ডিফ ১১ জুন প্রতিপক্ষ: শ্রীলঙ্কা ভেন্যু: ব্রিস্টল ১৭ জুন প্রতিপক্ষ: ওয়েস্ট ইন্ডিজ ভেন্যু: টন্টন ২০ জুন প্রতিপক্ষ: অস্ট্রেলিয়া ভেন্যু: নটিংহাম ২৪ জুন প্রতিপক্ষ: আফগানিস্তান ভেন্যু: সাউদাম্পটন ২ জুলাই প্রতিপক্ষ: ভারত ভেন্যু: বার্মিংহাম ৫ জুলাই প্রতিপক্ষ: পাকিস্তান ভেন্যু: লর্ডস
বাইবেল অনুযায়ী বিশ্বকাপ পাচ্ছে ওয়েস্ট ইন্ডিজ!
১৯মে,রবিবার,ক্রীড়া ডেস্ক,নিউজ একাত্তর ডট কম: দীর্ঘদিন দলীয় পারফরম্যান্সের এতটাই বাজে অবস্থাতে যে গেল পাঁচ বছর ধরে কোনো সিরিজ/টুর্নামেন্টে জয় পায়নি ওয়েস্ট ইন্ডিজ। সদ্য শেষ হওয়া ত্রিদেশীয় সিরিজে বাংলাদেশের কাছে ফাইনালসহ টানা তিন ম্যাচে হারতে হয়েছে দলটির। যদিও ৩০ মে থেকে শুরু হতে চলা বিশ্বকাপ জেতার স্বপ্ন দেখছেন উইন্ডিজদের সাবেক অধিনায়ক ড্যারেন স্যামি। ক্যারিবীয়রাই এবারের বিশ্বকাপের শিরোপা জয় করবে, এমন বক্তব্যের পক্ষে যুক্তি দিয়ে স্যামি টেনে এনেছেন খ্রিষ্টানদের ধর্মগ্রন্থ বাইবেলকে। আইসিসির র;্যাংকিংয়ের অষ্টম স্থানে থাকা দলটিকে নিয়ে স্যামি বলেছেন, বাইবেলে ৪০ সংখ্যাটি যথেষ্ট তাৎপর্যপূর্ণ। তাই ওয়েস্ট ইন্ডিজই এবারের চ্যাম্পিয়ন। উইন্ডিজদের সাবেক এই অলরাউন্ডার বিষয়টি আরও স্পষ্ট করে বলেন, ৪০ বছর আগে ওয়েস্ট ইন্ডিজ বিশ্বকাপ জিতেছে। আমি বাইবেলে বিশ্বাস রাখা একজন মানুষ। আপনারা দেখবেন, পবিত্র গ্রন্থটিতে ৪০ সংখ্যাটি বার বার এসেছে। আমি বিশ্বাস করি, এই কারণেই আমরা এবারের বিশ্বকাপটি নিজেদের করে নেবো। আইসিসি ক্রিকেট বিশ্বকাপের প্রিভিউ শো অনুষ্ঠানে স্যামি বলেন, আমার কেন জানি না মনে হচ্ছে, আমরাই এবার বিশ্বকাপ চ্যাম্পিয়ন হব। ইউনিভার্সাল বস ক্রিস গেইল অবসর নিতে চলেছে। নিজের শেষ বিশ্বকাপ সে মাতিয়ে দিতে চাইবে। দলের শক্তি-সামর্থ্যের প্রসঙ্গে দুই বারের টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ জয়ী এই অধিনায়ক বলছেন,আমাদের দলের ব্যাটিং লাইন আপ বেশ ভাল। তবে বোলারদের আরও দায়িত্ব নিতে হবে। ১৯৭৫ সালে প্রথম বিশ্বকাপের ট্রফিটি নিজেদের করে নিয়েছিল ক্যারিবীয়রা। ৪০ বছর আগে ১৯৭৯ সালে সব শেষ বিশ্বকাপ জেতে নেয় ভিভ রিচার্ডস নেতৃত্বাধীন দলটি। তারপরে আর বিশ্ব ক্রিকেটের সর্বোচ্চ আসরের ট্রফিটি জয় করতে পারেনি উইন্ডিজরা। ১৯৯৬ সালে সেমিফাইনালে পৌঁছে যায়, যদিও শেষ চারেই থামতে হয়েছিল তাদের।-আরটিভি
ফাইনালে বৃষ্টির বাগড়া, খেলা সাময়িক বন্ধ
১৭মে,শুক্রবার,ক্রীড়া ডেস্ক,নিউজ একাত্তর ডট কম: ত্রিদেশীয় সিরিজের ফাইনালে শুরুতে বাংলাদেশের আটসাঁট বোলিং থাকলেও ধীরে ধীরে বোলারদের ওপর চড়াও হতে শুরু করেওয়েস্ট ইন্ডিজ। দুই ওপেনার শাই হোপ এবং সুনীল আমব্রিসের দুর্দান্ত ব্যাটিংয়ে তুলে নিয়েছেন ফিফটি। এরপর ম্যাচে বাগড়া দেয় বৃষ্টি। সর্বশেষ খবর পর্যন্ত উইন্ডিজ ২০.১ ওভার তুলে ফেলেছে ১৩১ রান। শাই হোপ ৬৮ এবং সুনীল আমব্রিস ৫৯ রানে ব্যাট করছেন। ছয় ফাইনালসহ আটটি নকআউট ম্যাচেই হেরেছে বাংলাদেশ। একটা জয়ের মুখ দেখতে বাংলাদেশ দলের ক্রিকেটার মুখিয়ে আছেন। সেই ম্যাচে বাংলাদেশ টস জিতে প্রথমে বল করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে। বৃষ্টির আশঙ্কা থাকায় টসে জয় এবং বোলিং মাশরাফিদের পক্ষেই গেছে। বাংলাদেশ দল এ ম্যাচে সাকিব আল হাসানকে ছাড়াই খেলছে। তার জায়গায় রাখা হয়েছে মোসাদ্দেক হোসেনকে। বাদ দেয়া হয়েছে লিটন দাসকে। এছাড়া আগের ম্যাচে বিশ্রামে থাকা মুস্তাফিজুর রহমান, সৌম্য সরকার এবং মোহাম্মদ মিঠুন ফিরেছেন এ ম্যাচে। বাংলাদেশ একাদশ: তামিম ইকবাল, সৌম্য সরকার, মুশফিকুর রহিম, মোহাম্মদ মিঠুন, মাহমুদুল্লাহ, সাব্বির রহমান, মোসাদ্দেক হোসেন, মোহাম্মদ সাইফউদ্দিন, মেহেদি মিরাজ, মাশরাফি মর্তুজা, মুস্তাফিজুর রহমান। ওয়েস্ট ইন্ডিজ একাদশ: শাই হোপ, সুনীল আমব্রিস, ড্যারেন ব্রাভো, রোস্টন চেজ, জোনাথন কার্টার, জেসন হোল্ডার, ফ্যাবিয়ান অ্যালেন, আসলি নার্স, কেমার রোচ, রেমন্ড রেইফার, শ্যানন গ্যাব্রিয়েল।
প্রত্যাশিত জয়ে ফাইনাল নিশ্চিত করলো বাংলাদেশ
১৪মে,মঙ্গলবার,ক্রীড়া ডেস্ক,নিউজ একাত্তর ডট কম: প্রত্যাশিত জয়ে ফাইনাল নিশ্চিত করলো বাংলাদেশ। ডাবলিনের ম্যালাহাইডে উইন্ডিজকে ৫ উইকেটে হারিয়েছে টিম টাইগার্স। আগে ব্যাট করে ৯ উইকেটে ২৪৭ রান করে জেসন হোল্ডারের দল। জবাবে সৌম্য-মুশফিকের ফিফটিতে সহজেই জয় নিশ্চিত হয় বাংলাদেশের। ফলে এক ম্যাচ আগেই ফাইনালের মঞ্চে মাশরাফীর দল। ম্যাচ সেরা হয়েছেন মোস্তাফিজুর রহমান। ক্লনটার্ফ থেকে ম্যালাহাইড। আয়ারল্যান্ডকে যেখানেই পেয়েছে রান উৎসব করেছে ক্যারিবিয়ানরা। একই প্রত্যাশায় ম্যালাহাইডে টস জিতে ব্যাটিংয়ে ওয়েস্ট ইন্ডিজ। শেই হোপের দেখানো পথে গেলো ম্যাচে সেঞ্চুরি পেয়েছিলেন সুনীল আমব্রিস। আগ্রাসী সূচনায় দারুণ সূচনার ইঙ্গিত দেয় উইন্ডিজ। সাইফুদ্দিনের জায়গায় সুযোগ পাওয়া আবু জায়েদ রাহী অভিষেকে বিশেষ কিছু করতে পারেন নি। তাই প্রথম ব্রেক থ্রু'র জন্য তাকিয়ে থাকতে হয়েছে মাশরাফীর দিকেই। টানা ৪র্থ ম্যাচে ব্যর্থ ড্যারেন ব্রাভো। ফিরেছেন ৫ রানে। আস্থার প্রতিদান দিতে পারেননি রোস্টন চেস ও জনাথান কার্টাররা। দলীয় ৯৯ রানে ৪ উইকেট হারিয়ে বিপাকে পড়ে ক্যারিবীয়রা। আবারো উইন্ডিজের ত্রানকর্তা শেই হোপ। ৫ম উইকেটে হোল্ডারের সঙ্গে তার ১০০ রানের জুটিতে বিপদ সামাল দেয় উইন্ডিজ। ভয়ংকর হয়ে উঠছিলো এই জুটি। সাকিবের কিটপ্টে বোলিং চাপ তৈরী করলেও, উইকেট তুলতে পারছিলো না বাংলাদেশ। গেলো ম্যাচের মত এদিনও মোক্ষম সময়ে ব্রেক থ্রু এনে দেন অধিনায়ক মাশরাফী। শেই হোপ ফিরে যান ৮৭ রানে। দু'ভারের মধ্যেই অধিনায়ক হোল্ডারও আউট হন ৬২ রানে। গেলো ম্যাচে উদার ভাবে রান দেয়া মোস্তাফিজ জবাব দিয়েছেন সমালোচনার। দারুণ বোলিংয়ে উইন্ডিজের রান তোলার গতি টেনে ধরেন। শেষ দিকে সাকিব ফিজের বোলিং নৈপূন্যেই উইন্ডিজের স্কোরটা থাকে ধরা ছোঁয়ার মধ্যেই। আগের ম্যাচে উইন্ডিজের ২৬১ রান হেসে খেলেই টপকে গিয়েছিলো বাংলাদেশ। তামিম-সৌম্য'র ওপেনিং জুটিতে টাইগারদের শুরুটা হয় ভালো। বেশ আগ্রাসী ভাবে খেলেন আগের ম্যাচে ফিফটি পাওয়া সৌম্য। তবে উদ্বোধনী জুটিটা বড় করতে পারেনি টাইগাররা। অ্যাশলি নার্সের বলে ব্যক্তিগত ২১ রানে আউট হন তামিম। আগের ম্যাচের ধারাবাহিকতায় ফিফটি তুলে নেন সৌম্য। ২০১৭ সালের ত্রিদেশীয় সিরিজের পর টানা দুই ফিফটি পেলেন এই ওপেনার। সাকিবের সঙ্গে সৌম্য'র দ্বিতীয় উইকেট থেকে আসে ৫২ রান। তবে ১ রানের ব্যবধানে সাকিব-সৌম্য'কে ফিরিয়ে ম্যাচে ফেরার আভাস দেয় উইন্ডিজ।
বাংলাদেশের ফাইনালে ওঠার লড়াই আজ
১৩মে,সোমবার,ক্রীড়া ডেস্ক,নিউজ একাত্তর ডট কম: আয়ারল্যান্ডের বিপক্ষে ম্যাচটা বৃষ্টিতে ভেসে না গেলে আগেই ফাইনাল নিশ্চিত হয়ে যেতে পারতো বাংলাদেশের। সে আফসোস না করে আজই অবশ্য সেই টিকিট কেটে ফেলতে পারে মাশরাফি বিন মুর্তজার দল। ওয়েস্ট ইন্ডিজ ইতিমধ্যে আয়ারল্যান্ডকে দুইবার হারিয়ে ফাইনালে উঠে গেছে। আজ সেই ওয়েস্ট ইন্ডিজকে এই টুর্নামেন্টে দ্বিতীয়বার হারালেই ফাইনাল নিশ্চিত হবে বাংলাদেশের। সে ক্ষেত্রে বুধবার আয়ারল্যান্ডের বিপক্ষে বাংলাদেশের ম্যাচটা আনুষ্ঠানিকতায় পরিণত হবে। ফাইনালে ওঠার লক্ষ্য নিয়ে আজ বাংলাদেশ সময় দুপুর ৩টা ৪৫ মিনিটে ওয়েস্ট ইন্ডিজের মুখোমুখি হবে মাশরাফির দল। এখন পর্যন্ত টুর্নামেন্টে বাংলাদেশ একটিমাত্র ম্যাচ খেলতে পেরেছে। আয়ারল্যান্ডের বিপক্ষে ম্যাচ পরিত্যক্ত হয়েছে বৃষ্টিতে। যে ম্যাচ হয়েছে, সেখানে বাংলাদেশ দারুণভাবে হারিয়েছে ওয়েস্ট ইন্ডিজকে। ৮ উইকেটের সাবলীয় জয় পেয়েছিলো তারা। ওই ম্যাচে বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় প্রাপ্তি ছিলো তামিম ইকবালের সাথে সৌম্য সরকারের ১৪৪ রানের উদ্বোধনী জুটি। এই টুর্নামেন্টে যদি এই জুটিটা স্থায়ী হতে পারে, সেটা বিশ্বকাপের জন্যই বাংলাদেশের বড় একটা প্রাপ্তি হবে। ম্যাচের পরের দিকে সাকিব আল হাসানের ব্যাট হাতে ম্যাচ নিয়ন্ত্রণ করাটা দর্শকদের ভরসা দিয়েছে। এর সাথে বল হাতেও মাঝের দিকে ম্যাচ নিয়ন্ত্রণ করেছেন সাকিব। বল হাতে ভালো করেছেন মাশরাফি ও সাইফউদ্দিন। সবমিলিয়ে মুস্তাফিজুর রহমানের দারুণ খরুচে বোলিং বাদ দিলে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে বাংলাদেশের ম্যাচটা ছিলো আত্মবিশ্বাস জোগানোর দারুণ একটা উপলক্ষ। ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে শেষ ৫ ম্যাচের ৪টিতেই বাংলাদেশ জিতেছে। ফলে আজ আরেকবার এই দলটিকে হারানোর আশা মাশরাফিরা করতেই পারেন। ওয়েস্ট ইন্ডিজ অবশ্য এই ম্যাচে বিশ্বকাপের আগে বেশ কিছু পরীক্ষা নিরীক্ষা করে নিতে চাইবে। বাংলাদেশের অবশ্য আজ অন্তত সে সুযোগ নেই। ফাইনাল নিশ্চিত করার আগ পর্যন্ত বাংলাদেশ একাদশ নিয়ে কোনো পরীক্ষা করতে চায় না। ফলে আজ আগের ম্যাচের একাদশই মাঠে নামার কথা। উইকেট যথারীতি রান বন্যার উইকেট হওয়ার কথা। ডাবলিনে আগের ম্যাচেও আয়ারল্যান্ড ও ওয়েস্ট ইন্ডিজ, দুই দলই তিন শতাধিক করে রান করেছে। বাংলাদেশকেও তাই রানবন্যার জন্য প্রস্তুত থাকতে হবে।
বিশ্বকাপের থিম সং আসছে ১৭ মে
৮মে,বুধবার,ক্রীড়া ডেস্ক,নিউজ একাত্তর ডট কম: চোয়াল শক্ত করে হেঁটে যাচ্ছেন মিচেল জনসন আর ব্যাট হাতে ঝড় তোলার জন্য নামছেন ব্রেন্ডন ম্যাককুলাম, ব্যাকগ্রাউন্ডে বাজছে ইটস টাইম ফর আস, টেল মি ইউ গট দ্য পাওয়ার। ২০১৫ বিশ্বকাপের এই বিখ্যাত থিম সংয়ের কথা মনে পড়ে? অথবা ভারত, বাংলাদেশ, শ্রীলঙ্কায় অনুষ্ঠিত ২০১১ বিশ্বকাপের দে ধুমাকে? বাংলাদেশের ক্রিকেটভক্তদের কাছে অবশ্য বাংলা ভাষায় মার ঘুরিয়ে গানটাই বেশি জনপ্রিয় হয়েছিল। কিন্তু আরেকটা বিশ্বকাপ দরজায় এসে কড়া নাড়তে থাকলেও অফিশিয়াল থিম সংটাই এখনো প্রকাশিত হয়নি। কবে প্রকাশিত হবে, এমন জল্পনা-কল্পনা যখন তুঙ্গে, তখন জানা গেল আগামী ১৭ মে আনুষ্ঠানিকভাবে প্রকাশিত হবে এবারের ইংল্যান্ড বিশ্বকাপের থিম সং। আনুষ্ঠানিক এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে সম্প্রতি ক্রিকেটের সর্বোচ্চ নিয়ন্ত্রক এবং বিশ্বকাপের আয়োজক সংস্থা আইসিসি জানিয়েছে, স্ট্যান্ড বাই শীর্ষক এবারের বিশ্বকাপের থিম সংটি আগামী ১৭ মে থেকে বিশ্বব্যাপী ভক্তরা শুনতে পারবে। টেলিভিশনে প্রচার করা ছাড়াও ইউটিউব এবং অন্যান্য সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যমে ক্রিকেটভক্তরা গানটি শুনতে পারবে। খ্যাতনামা ব্রিটিশ ব্যান্ড রুডিমেন্টালের সঙ্গে নবাগত গায়ক লরিনের যৌথ প্রচেষ্টায় তৈরি করা হয়েছে গানটি। ২০১১ সালে রুডিমেন্টাল ব্যান্ডটি প্রতিষ্ঠিত হওয়ার পর এখন পর্যন্ত তাদের প্রকাশিত অ্যালবাম ২০ লক্ষের অধিক বিক্রি হয়েছে। প্রতিভাবান নতুন শিল্পীদের খুঁজে বের করতেও তাদের জুড়ি নেই। বিশ্বকাপের থিম সংয়ে তাদের সহযোগী শিল্পী লরিনকেও উত্তর কানাডা থেকে খুঁজে বের করেছে তারাই। রুডিমেন্টাল ব্যান্ডের অন্যতম সদস্য লকস্মিথ থিম সং নিয়ে বলেন, গানটির মূল বার্তা হচ্ছে ঐক্য। সব শ্রেণি-পেশার মানুষকে আমাদের তৈরি করা সুরের মাধ্যমে এককাতারে নিয়ে আসাই ছিল আমাদের লক্ষ্য। বিশ্বকাপের আয়োজক কমিটির নির্বাহী পরিচালক স্টিভ এলওয়ার্থি আনুষ্ঠানিক থিম সং নিয়ে বলেন, খেলাধুলার মঞ্চে সংগীতের যে প্রভাব ও গুরুত্ব তা মেনে নেওয়া ছাড়া উপায় নেই। খেলোয়াড় ও দর্শকদের উজ্জীবিত করা এবং আনন্দময় মুহূর্তগুলো একসঙ্গে উদযাপনের একটা পরিচিত সুর প্রয়োজন হয়। আমি আশাবাদী যে, এবারের থিম সংটা বিশ্বকাপের প্রাণ হয়ে থাকবে।
বঙ্গমাতার দুদলই চ্যাম্পিয়ন
৩ মে শুক্রবার, অনলাইন ডেক্স,নিউজ একাত্তর ডট কম: ঘূর্ণিঝড় ফণীর কারণে বাতিল হয়েছে বঙ্গমাতা অনূর্ধ্ব-১৯ আন্তর্জাতিক নারী গোল্ডকাপের ফাইনাল ম্যাচ। ফলে বাংলাদেশ ও লাওসকে যৌথভাবে চ্যাম্পিয়ন ঘোষণা করেছে বাংলাদেশ ফুটবল ফেডারেশন।ঘূর্ণিঝড় ফণীর প্রভাবে পুরো দেশেই বৃষ্টিসহ ঝড়ো হাওয়া বইছে। যার প্রভাব থেকে বাদ যায় নি রাজধানী ঢাকা। আজ সন্ধ্যা ৬টায় প্রথমবারের মতো আয়োজিত বঙ্গমাতা অনূর্ধ্ব ১৯ নারী গোল্ডকাপের টুর্নামেন্টের ফাইনালে লাওসের মুখোমুখি হবার কথা ছিল ফেভারিট বাংলাদেশের। তবে বৈরী আবহাওয়ার কারণে কোনো ঝুঁকি নেয় নি বাফুফে। পরে লোকাল অর্গানাইজিং ও টুর্নামেন্ট কমিটির সর্বসম্মতিক্রমে নেয়া সিদ্ধান্ত অনুযায়ী ফাইনাল বাতিল করে যৌথভাবে দুদলকে চ্যাম্পিয়ন ঘোষণা করা হয়।
বিশ্বকাপ ও ত্রিদেশীয় সিরিজ খেলতে দেশ ছাড়লো টাইগাররা
০১মে,বুধবার,ক্রীড়া ডেস্ক,নিউজ একাত্তর ডট কম: ইংল্যান্ডে অনুষ্ঠিত দ্বাদশ বিশ্বকাপ ও আয়ারল্যান্ডে ত্রিদেশীয় ওয়ানডে সিরিজকে সামনে রেখে দেশ ছেড়েছে বাংলাদেশ দল। বুধবার সকাল সাড়ে ১০টায় হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর থেকে মাশরাফিদের বহনকারী বিমানটি ডাবলিনের উদ্দেশে বাংলাদেশ ত্যাগ করে। ডাবলিনগামী দলের সঙ্গে ছিলেন না সহ অধিনায়ক সাকিব আল হাসান। তিনি আজ সন্ধ্যা ৭ টা ৪০ মিনিটে কাতার এয়ারলাইন্সের একটি ফ্লাইটে দেশ ছাড়বেন। আয়ারল্যান্ডে ত্রিদেশীয় সিরিজের জন্য ঘোষিত ১৯ সদস্যের মধ্যে এই বহরে যাচ্ছেন ১৭ জন। এর আগে গতকাল রাতেই আয়ারল্যান্ডের পথে পাড়ি জমিয়েছেন ফরহাদ রেজা। বাংলাদেশ, উইন্ডিজ এবং স্বাগতিক আয়ারল্যান্ডের সাথে ত্রিদেশীয় ওয়ানডে সিরিজে অংশ নেবেন মাশরাফি-মুশফিকরা। বিশ্বকাপের আগে এই সিরিজই বাংলাদেশের শেষ প্রস্তুতি সিরিজ। ৭ মে ডাবলিনে উইন্ডিজের বিপক্ষে ম্যাচ দিয়ে শুরু হবে বাংলাদেশের আয়ারল্যান্ড সফর। এরপর ৯ মে স্বাগতিক আয়ারল্যান্ড, ১৩ মে উইন্ডিজ এবং ১৫ মে স্বাগতিক আয়ারল্যান্ডের মোকাবিলা করবে বাংলাদেশ। টুর্নামেন্টটির ফাইনাল হবে ১৭ মে। এরপরই বাংলাদেশ দল সেখান থেকে বিশ্বকাপকে সামনে রেখে ইংল্যান্ডে পাড়ি জমাবে। ২৬ তারিখ কার্ডিফে পাকিস্তানের বিপক্ষে প্রথম প্রস্তুতি ম্যাচ আর ২৮ মে দ্বিতীয় ও শেষ প্রস্তুতি ম্যাচে ভারতের বিপক্ষে লড়বে মাশরাফিরা। বিশ্বকাপ ৩০ মে থেকে শুরু হলেও বাংলাদেশের বিশ্বকাপ যাত্রা শুরু হবে ২ জুন দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে ম্যাচ দিয়ে। এরপর ৫ জুন কিউইদের বিপক্ষে, ৮ জুন স্বাগতিক ইংল্যান্ড, ১১ জুন শ্রীলঙ্কা, ১৭ জুন উইন্ডিজ, ২০ জুন অস্ট্রেলিয়া, ২৪ জুন আফগানিস্তান, ২ জুলাই ভারত এবং ৫ জুলাই পাকিস্তানের বিপক্ষে খেলবে বাংলাদেশ। রাউন্ড রবিন লিগ পদ্ধতিতে হওয়ায় প্রথম পর্ব উৎরাতে পারলে ৯ই জুলাই থেকে শুরু হওয়া সেমিফাইনালেও দেখা যেতে পারে বাংলাদেশকে। বিশ্বকাপে বাংলাদেশ স্কোয়াড: তামিম ইকবাল, লিটন কুমার দাশ, সৌম্য সরকার, মোহাম্মদ মিথুন, সাব্বির রহমান, সাকিব আল হাসান, মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ, মুশফিকুর রহিম, মাশরাফি বিন মুর্তজা, মুস্তাফিজুর রহমান, মোসাদ্দেক হোসেন সৈকত, মেহেদী হাসান মিরাজ, রুবেল হোসেন, আবু জায়েদ রাহী ও মোহাম্মদ সাইফউদ্দিন। ত্রিদেশীয় সিরিজের স্কোয়াড: তামিম ইকবাল, লিটন কুমার দাশ, সৌম্য সরকার, মোহাম্মদ মিথুন, সাব্বির রহমান, সাকিব আল হাসান, মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ, মুশফিকুর রহিম, মাশরাফি বিন মুর্তজা, মুস্তাফিজুর রহমান, মোসাদ্দেক হোসেন সৈকত, মেহেদী হাসান মিরাজ, রুবেল হোসেন, আবু জায়েদ রাহী, মোহাম্মদ সাইফউদ্দিন, নাঈম হাসান, ইয়াসির আলী রাব্বী, ফরহাদ রেজা ও তাসকিন আহমেদ।
পরিবর্তন আসছে বিশ্বকাপের জার্সিতে
৩০এপ্রিল,মঙ্গলবার,ক্রীড়া ডেস্ক,নিউজ একাত্তর ডট কম: বিশ্বকাপের ফটোসেশনের ২৪ ঘণ্টা না পেরোতেই বাংলাদেশ জাতীয় দলের জার্সির রঙ পরিবর্তনের সিদ্ধান্ত নিলো ক্রিকেট বোর্ড। বিসিবি সভাপতি নাজমুল হাসান পাপনের সিদ্ধান্তেই বিশ্বকাপের সবুজ জার্সিতে রঙের সমন্বয় করা হচ্ছে। ইংল্যান্ড বিশ্বকাপকে সামনে রেখে টাইগারদের দুই ধরনের জার্সি উন্মোচন করা হয়। সোমবার (২৯ এপ্রিল) মিরপুর শের-ই-বাংলা জাতীয় স্টেডিয়ামে আনুষ্ঠানিক ফটোসেশনে অংশ নেন আয়ারল্যান্ড সিরিজ ও বিশ্বকাপ স্কোয়াডে থাকা ক্রিকেটাররা। তবে মাশরাফি-মুশফিকদের জার্সির রঙ নিয়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে সমালোচনার ঝড় ওঠে। অনেকের মতেই, জার্সিতে লাল রঙের উপস্থিতি না থাকায় তা বাংলাদেশ দলকে যথাযথভাবে উপস্থাপন করছেনা। এদিকে নানা আলোচনা-সমালোচনার মাঝেই জার্সির রঙে কিছুটা পরিবর্তনের সিদ্ধান্ত নিয়েছে ক্রিকেট বোর্ড। বিসিবি সভাপতির সিদ্ধান্তে মূল ডিজাইন ঠিক রেখে জার্সিতে সবুজ ও লাল রঙের সমন্বয় করা হবে। তবে লাল রঙের জার্সিতে কোনো পরিবর্তন আসবেনা।

খেলাধূলা পাতার আরো খবর