প্রকাশ : 2018-04-11

রাখাইনে রোহিঙ্গা হত্যার দায়ে ১০ বছর করে কারাদণ্ড ৭ সেনাকে

রাখাইনে রোহিঙ্গা হত্যার দায়ে ৭ সেনাকে ১০ বছর করে সশ্রম কারাদণ্ড দেয়া হয়েছে। এ খবর জানিয়েছে মিয়ানমারসহ আন্তর্জাতিক গণমাধ্যমগুলো। সেনাবাহিনীর বরাত দিয়ে এ খবর জানিয়েছে তারা। গত বছর রাখাইনে ১০ রোহিঙ্গাকে হত্যার দায়ে তাদের এ সাজা হয়েছে। কমান্ডার ইন চিফ মিং অং এর অফিশিয়াল ফেসবুক পেইজে জানানো হয় যে, হত্যায় অংশগ্রহণের কারণে তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হয়েছে। এক বিবৃতিতে জানানো হয়, ৭ জনের মধ্যে ৪ সেনা কর্মকর্তা এবং তিন জন অন্যান্য পদে ছিলেন তাদের সবাইকে সেনাবাহিনী থেকে প্রত্যাহার করা হয়েছে এবং ১০ বছরের সশ্রম কারাদণ্ড দেয়া হয়েছে। বিবৃতিতে আরও জানানো হয়, ঘটনার সঙ্গে জড়িত থাকার অভিযোগে আরও পুলিশ কর্মকর্তা ও বেসামরিক নাগরিকরাও দোষী সাব্যস্ত হয়েছে, তাদের বিচার প্রক্রিয়া চলমান রয়েছে। গত সেপ্টেম্বরে পশ্চিম রাখাইনের ইন দিন গ্রামের একটি গণকবরে ঐ দশ রোহিঙ্গার মরদেহ পাওয়া যায়। সেপ্টেম্বরের শুরুর দিকে ইন দিন গ্রামে সেনা বাহিনী ও উগ্রপন্থী বৌদ্ধরা ঐ ১০ রোহিঙ্গাকে গুলি করে হত্যা করে বলে অভিযোগ ওঠে। এ বছরের ফেব্রুয়ারিতে ঘটনার অভ্যন্ত্যরীণ তদন্ত শুরু হয়েছে বলে জানায় মিয়ানমার সেনাবাহিনী। গত বছর রাখাইনে মিয়ানমার সেনাবাহিনীর নৃশংসতার জেরে বাংলাদেশে পালিয়ে আসে সাত লাখেরও বেশি রোহিঙ্গা।

আন্তর্জাতিক পাতার আরো খবর