প্রকাশ : 2018-04-15

কালো তালিকাভুক্ত মিল থেকেও এবার চাল সংগ্রহ হবে: খাদ্যমন্ত্রী

দেশের খাদ্য গুদামগুলোতে গত ২০ বছরের মধ্যে সর্বাধিক পরিমাণ মজুদ রয়েছে বলে জানিয়েছেন খাদ্যমন্ত্রী অ্যাডভোকেট কামরুল ইসলাম। তিনি বলেন বর্তমানে সরকারি গুদামগুলোতে মজুদ আছে প্রায় ১২ লাখ মেট্রিক টনের উপরে। যা বিগত ২০ বছরের মধ্যে সর্বাধিক। রোববার খাদ্য কর্মকর্তাদের সঙ্গে খাদ্য অধিদপ্তর আয়োজিত এক মতবিনিময় সভায় এসব কথা বলেন মন্ত্রী। কামরুল ইসলাম বলেন, এবার এক লাখ মেট্রিকটন ধান এবং নয় লাখ মেট্রিক টন চাল সংগ্রহ করা হবে। ধান প্রতি কেজি ২৬ টাকা দরে এবং চাল প্রতি কেজি ৩৮ টাকা দরে সংগ্রহ করা হবে। তিনি বলেন, আশা করছি এবার প্রকৃতি বিরূপ হবে না। কালো তালিকাভুক্ত মিলগুলোর বিষয়ে খাদ্যমন্ত্রী বলেন, গত আমন মৌসুমে কালো তালিকাভুক্ত মিলগুলো থেকে চাল সংগ্রহ করা হয়নি। কিন্তু এবার আমরা কাউকে হতাশ করতে চাই না। তাদের কাছ থেকে এবার বোরো চাল সংগ্রহ করা হবে বলে নীতিগত সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। উপস্থিত সব কর্মকর্তাদের উদ্দেশে মন্ত্রী বলেন, খাদ্য বান্ধব কর্মসূচি এবং আমন সংগ্রহ অভিযান সফলভাবে শেষ হয়েছে। সংগৃহীত চালের মানও খুব ভালো। এজন্য আপনাদের সবাইকে আমি ধন্যবাদ জানাই। তবে চলমান বোরো সংগ্রহে ককোনো কর্মকর্তা-কর্মচারী দুর্নীতি, অনিয়ম করলে প্রশাসনিক ব্যবস্থাসহ কঠিন শাস্তি দেওয়া হবে। খাদ্য অধিদপ্তরের মহাপরিচালক জনাব বদরুল হাসানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে অন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন খাদ্য মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব মো. ওমর ফারুক, খাদ্য অধিদপ্তরের অতিরিক্ত মহাপরিচালক আরিফুর রহমান অপুসহ খাদ্য অধিদপ্তরের এবং মাঠ পর্যায়ের কর্মকর্তারা।

জাতীয় পাতার আরো খবর