প্রকাশ : 2018-06-19

আপনারা বারবার আন্দোলনের ঘোষণা দিয়েও ব্যার্থ

আওয়ামী লীগের প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক এবং দলের অন্যতম মুখপাত্র ড. হাছান মাহমুদ বিএনপি নেতাদের প্রতি প্রশ্ন রেখে বলেছেন, এতদিন আপনাদের রাজনীতি ছিলো খালেদা জিয়ার হাঁটু ও কোমর ব্যাথা পর্যন্ত। এখন কি বিএনপিরও হাঁটু ব্যাথা শুরু হয়ে গেছে? কারণ আপনারা জনবিচ্ছিন্ন হয়ে বারবার আন্দোলনের ঘোষণা দিয়েও ব্যার্থ হচ্ছেন! মঙ্গলবার জাতীয় প্রেসক্লাবের তৃতীয় তলায় কনফারেন্স লাউঞ্জে বঙ্গবন্ধু সাংস্কৃতিক জোট আয়োজিত ‘বঙ্গবন্ধু মানেই স্বাধীনতা, আওয়ামী লীগ মানেই মুক্তি, শেখ হাসিনা মানেই শক্তি’ শীর্ষক আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। সেনাবাহিনীর ওপর অাস্থা না থাকায় বেগম জিয়া সিএইচএমএস হাসপাতালে যেতে চান না মন্তব্য করে ড. হাছান মাহমুদ বলেন, বিএনপি নেত্রী বেগম খালেদা জিয়া যেহেতু কারাবন্দী, তাই তার চিকিৎসা দিতে সরকার বদ্ধপরিকর। কিন্তু খালেদা জিয়াকে সিএইচএমএস হাসপাতালে চিকিৎসার কথা বলা হলে তিনি রাজি হননি। কারণ তার সেনাবাহিনীর ওপর কোনো আস্থা নেই। আগামী নির্বাচনে সেনাবাহিনী থাকবে কি থাকবে না এ বিষয়ে সাবেক বন ও পরিবেশ মন্ত্রী বলেন, বিএনপি নেতারা বারবার বলছেন আগামী নির্বাচনে সেনাবাহিনীকে রাখতে হবে। সেই কথার সূত্র ধরে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক যখন বললেন এটা নির্বাচন কমিশন ভেবে দেখবেন। তখনই বিএনপি নেতারা বললেন এর মধ্যেও কোনো কারণ আছে। আসলে বিএনপি কখন কোনটা করবে তার খেই হারিয়ে ফেলেছে। ড. হাছান মাহমুদ বলেন, বিএনপি ভারতে গিয়েছিল। কিন্তু ভারত বলে দিয়েছে আপনাদের সঙ্গে জঙ্গিরা আছে, তাই আপনাদের সঙ্গে আমরা নেই। অর্থাৎ ভারতের কাছ থেকে তারা খালি হাতে ফিরে এসেছে। আয়োজক সংগঠনের উপদেষ্টা লায়ন চিত্তরঞ্জন দাসের সভাপতিত্বে সভায় উপস্থিত ছিলেন, খাদ্যমন্ত্রী এ্যাড. কামরুল ইসলাম এমপি, আওয়ামী লীগ নেতা এ্যাডভোকেট বলরাম পোদ্দার, স্বাধীন বাংলা বেতার কেন্দ্রের কন্ঠশিল্পী মনোরঞ্জন ঘোষাল, অরুন সরকার রানাসহ প্রমুখ।

জাতীয় পাতার আরো খবর