প্রকাশ : 2018-06-20

গ্রাহক পর্যায়ে ৭৫ শতাংশ গ্যাসের দাম বাড়ানোর প্রস্তাব

আবারো বাড়ছে গ্যাসের দাম। এরই মধ্যে বাংলাদেশ এনার্জি রেগুলেটরি কমিশনের (বিইআরসি) কাছে বিভিন্ন খাতে ব্যবহূত প্রতি ঘনমিটার গ্যাসের দাম গড়ে ৭৫ শতাংশ বৃদ্ধির প্রস্তাব করেছে পশ্চিমাঞ্চল গ্যাস বিতরণ কোম্পানি। একই সঙ্গে প্রতি ঘনমিটার গ্যাসের বিতরণ চার্জ ২৬ পয়সা থেকে বাড়িয়ে ৬৬ পয়সা করার প্রস্তাব দিয়েছে প্রতিষ্ঠানটি। বুধবার (২০ জুন) সকালে রাজধানীর কাওরানবাজারের টিসিবি অডিটোরিয়ামে বিইআরসির গণশুনানিতে এ প্রস্তাব তুলে ধরে পশ্চিমাঞ্চল গ্যাস বিতরণ কোম্পানি। শুনানিতে গ্যাসের দাম বাড়ানোর বিরোধিতা করেন কনজ্যুমার অ্যাসোসিয়শন অব বাংলাদেশ-ক্যাবসহ বিভিন্ন ভোক্তা সংগঠনের প্রতিনিধিরা। গ্রাহক-সেবার মান না বাড়িয়ে গ্যাসের দাম বাড়ানোর প্রস্তাব অযৌক্তিক উল্লেখ করে ক্যাবের জ্বালানি উপদেষ্টা বলেন, সরকারি প্রতিষ্ঠান হয়েও সেবার পরিবর্তে মুনাফার দিকে ঝুঁকছে পশ্চিমাঞ্চল গ্যাস কোম্পানি, অমান্য করছে ব্যয় সংকোচন নীতিও। এজন্য প্রয়োজনে আইনি পদক্ষেপ নেয়ারও হুঁশিয়ারি দেন ক্যাব প্রতিনিধি। তবে এনার্জি রেগুলেটরী কমিশনের পুনর্মূল্যায়ন কমিটি বলছে, দাম বাড়ানোর প্রস্তাব অযৌক্তিক। একই মত জ্বালানি বিশেষজ্ঞদের। জ্বালানি বিশেষজ্ঞ অধ্যাপক ড. এম শামসুল আলম বলেন, সম্পদ যতটুকু ইন-সার্ভিস থাকবে ততটুকুর ওপরেই থাকবে অবচয়। এটা হচ্ছে মৌলিক নিয়ম। যদিও কম বেশিও অতীতে ব্যত্যয় ঘটেছে। ঘাটতি পূরণ করে লস দিয়ে ব্যবসা দাঁড় করাতে হয়। সরকার এটা ব্যবসায় করছে, তাতেই পুঁজি বিনিয়োগ করতেই হবে। এনার্জি রেগুলেটরী কমিশন বলছে সবকিছু যাচাই বাছাইয়ের পরই গ্যাস বিতরণে দামের বিষয়টি চূড়ান্ত করবেন তারা। সূত্র: বিডি২৪লাইভ