প্রকাশ : 2018-01-04

শীতে বাড়ছে অসুস্থ শিক্ষকের সংখ্যা

জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে চলছে স্বীকৃতিপ্রাপ্ত নন-এমপিও শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের শিক্ষক-কর্মচারিদের টানা পঞ্চম দিনের আমরণ অনশন কর্মসূচি। এমপিওভুক্তির দাবি বাস্তবায়নের সুস্পষ্ট ঘোষণা ছাড়া আন্দোলন থেকে সরে না আসার ঘোষণায় অনড় রয়েছেন তারা। এদিকে বাড়ছে অসুস্থ শিক্ষকের সংখ্যা। অনশনের পঞ্চম দিন। ক্ষুধা তৃষ্ণায় ক্লান্ত স্বীকৃতিপ্রাপ্ত নন-এমপিও শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের শিক্ষক-কর্মচারিরা। গত ২৬ ডিসেম্বর থেকে ২৬তম অবস্থান কর্মসূচি শুরু করে শিক্ষক-কর্মচারিদের যৌথ সংগঠন। এছাড়া প্রতিদিনই আন্দোলনে নতুন করে যোগ দিচ্ছেন দেশের বিভিন্ন স্থান থেকে আসা শিক্ষক কর্মচারিরা। সংহতি জানাচ্ছেন বিভিন্ন রাজনৈতিক সংগঠন। সরকারের পক্ষ থেকে কোন সাড়া না পেয়ে আন্দোলনের ১০ দিনেও তাদের অবস্থানে অনড় তারা। সুনির্দিষ্ট ঘোষনা না আসা পর্যন্ত এ অনশন চালিয়ে যাওয়ার ঘোষনা তাদের। দিন যাবার সাথে সাথে বাড়ছে অসুস্থ শিক্ষকদের সংখ্যা। গতকাল ৪র্থ দিনে গুরুতর অসুস্থ হয়ে পরেন সংগঠনের সাধারণ সম্পাদক। তাদের নিয়ে যাওয়া হয় বিভিন্ন হাসপাতালে। তীব্র শীত উপেক্ষা করে রাতেও আমরণ অনশন কর্মসূচি পালন করেছেন তারা। সবশেষ, ২০১০ সালে ১ হাজার ৬শ ২৪টি নন-এমপিও উচ্চ বিদ্যালয় ও কলেজকে এমপিওভুক্ত করে সরকার। বাকি ৫ হাজার ২শ ৪২টি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের এমপিওভুক্তি অধরাই থেকে যায়। এসব প্রতিষ্ঠানে বিনা বেতনে পাঠদান করছেন দেশের ৮০ হাজার শিক্ষক।

জাতীয় পাতার আরো খবর