প্রকাশ : 2019-02-28

বাংলাদেশ সীমান্তে বিএসএফের সতর্কতা

২৮ফেব্রুয়ারী,বৃহস্পতিবার,অনলাইন ডেক্স,নিউজ একাত্তর ডট কম: কাশ্মীর ইস্যুতে ভারত-পাকিস্তানের উত্তেজনাকে ঘিরে বাংলাদেশ সীমান্তে বাড়তি সতর্কতা ও নিরাপত্তা জোরদার করেছে ভারতীয় সীমান্তরক্ষী বাহিনী বিএসএফ। সীমান্তরক্ষী বাহিনীর বরাত দিয়ে ভারতের বিভিন্ন গণমাধ্যম জানায়, ভারত-বাংলাদেশ সীমান্তে সতর্কতা জারি ও প্রতিরোধমূলক ব্যবস্থা নিয়েছে বিএসএসফ। বুধবার সংশ্লিষ্ট সূত্র জানায়, ভারত-পাকিস্তান সীমান্তে উত্তেজনার সুযোগ নিয়ে যাতে কোনো ধরনের দুর্বৃত্ত ও সন্ত্রাসী সীমান্ত অতিক্রম করতে না পারে সেজন্য এই প্রতিরোধমূলক ব্যবস্থা নেয়া হয়েছে ও সতর্ক রয়েছে বিএসএফ। সূত্র আরও জানায়, বাংলাদেশ ও পশ্চিমবঙ্গের মধ্যে প্রায় ২ হাজার ২১৬.৭ কিলোমিটার সীমান্ত রয়েছে। যার বৃহৎ একটি অংশ অরক্ষিত। বিএসএফ কর্মকর্তাদের বরাত সংবাদমাধ্যগুলো আরও জানায়, সুন্দরবনের নদী এলাকায় তাদের টহল জোরদার করা হয়েছে। বুধবার ভারত ও পাকিস্তান একে অপরের যুদ্ধবিমান বিমান ভূপাতি করার কথা জানায়। ১৯৭১-এ যুদ্ধের পর এই প্রথম পাকিস্তান এক ভারতীয় বৈমানিককে আটক এবং একটি বিমান তাদের সীমান্তে ভূপাতি করার কথা জানায়। এদিকে বিশ্বশক্তির দেশগুলো উভয় দেশকে উত্তেজনা প্রশমনের আহ্বান জানিয়েছে। গত দুদিনে দুই দেশই বিরোধপূর্ণ এলাকায় বিমান হামলা চালিয়েছে। এর মধ্য দিয়ে পারমাণবিক শক্তিধর এই দুই দেশ প্রথমবারের মতো এমন উত্তেজনায় জড়িয়েছে। একই সঙ্গে দুই দেশের নিরাপত্তা বাহিনী প্রায় এক ডজন এলাকায় গুলিবিমিনিময় করেছে। গত ১৪ ফেব্রুয়ারি ভারতনিয়ন্ত্রিত কাশ্মীরের পুলওয়ামায় এক আত্মঘাতী হামলায় ভারতের আধা সামরিক বাহিনীর ৪০ জনের বেশি সদস্য নিহত হন। পাকিস্তান-ভিত্তিক জঙ্গি সংগঠন জইশ-ই-মোহাম্মদ হামলার দায় স্বীকার করে। এরপর মঙ্গলবার ভারতের ভাষ্য অনুযায়ী তারা জঙ্গি সংগঠনের অবস্থানকে লক্ষ্য করে দুই দেশের বিরোধপূর্ণ এলাকায় বিমান হামলা চালায়। পরে পাকিস্তানও বিমান হামলা জড়ায়। পাকিস্তানের ভাষ্য, দেশটি প্রতিরোধমূলক ব্যবস্থা নিয়েছে।-ইউএনবি