প্রকাশ : 2019-07-30

কাঁচামরিচের দাম কমেছে অর্ধেক

৩০জুলাই২০১৯,অনলাইন ডেস্ক,নিউজ একাত্তর ডট কম: হিলি স্থলবন্দর দিয়ে বেড়েছে ভারত থেকে আসা কাঁচামরিচের আমদানি। আমদানি বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে কমছে কাঁচামরিচের দাম। হিলি স্থলবন্দরের আড়তগুলোতে কয়েকদিন আগে প্রতি কেজি মরিচ বিক্রি হচ্ছিল ১০০ থেকে ১২০ টাকা। বর্তমানে সেই মরিচই বিক্রি হচ্ছে ৪৫ থেকে ৫০ টাকায়। হিলি স্থলবন্দরের কাঁচা মরিচ আমদানিকারকরা জানান, চলতি মৌসুমে বন্যার কারণে মরিচের আবাদ ক্ষতিগ্রস্ত হওয়ায় দেশে উৎপাদিত কাঁচামরিচের সরবরাহ কমে যায়। এ কারণে দেশীয় বাজারে কাঁচামরিচের দামও বেড়ে যায়। আর দেশের বাজারে ভারতীয় কাঁচা মরিচের চাহিদা থাকায় ব্যবসায়ীরাও ভারত থেকে আমদানি শুরু করে। প্রথম কয়েক দিন মরিচের দাম ভালো পেলেও গেল দুই দিন ধরে দাম অর্ধেকে নেমে এসেছে। দাম কমার কারণ হিসেবে মরিচ ব্যবসায়ী বাবলু হোসেন জানান, হঠাৎ করে ভারতীয় মরিচের আমদানির পাশাপাশি দেশীয় মরিচের উৎপাদন বেড়ে যাওয়ায় মরিচের দাম কমেছে। ব্যবসায়ীরা আরও জানান, ভারত থেকে মরিচ আমদানি করে সরকারকে প্রতি কেজি মরিচে ২১ টাকা শুল্ক দিতে হচ্ছে। এতে প্রতি কেজি মরিচ ৯০ টাকা হলেও সেই মরিচের দাম অর্ধেকও পাচ্ছে না তারা। এদিকে হিলি খুচরা বাজারের আড়তদাররা জানান, দেশি মরিচ প্রতি কেজি বিক্রি হচ্ছে ৭০ টাকা এবং ভারতীয় আমদানিকৃত মরিচ বিক্রি হচ্ছে ৬০ টাকা। মরিচ কিনতে আসা ক্রেতা মিজানুর রহমান জানান, মরিচের দাম অনেকটা কমেছে। এরকম দাম থাকলে আমাদের মতো সাধারণ মানুষের অনেক সুবিধা হবে। হিলি কাস্টম সূত্রে জানা গেছে, গেল আট কর্ম দিবসে ৫২ ট্রাকে ২৮৩ মেট্রিক টন মরিচ আমদানি হয়েছে এই বন্দর দিয়ে। যা থেকে সরকারের রাজস্ব আদায় হয়েছে পাঁচ কোটি ৭৩ লাখ টাকা।