মঙ্গলবার, ডিসেম্বর ১৮, ২০১৮
প্রকাশ : 2018-03-07

প্রকাশ্যে ভাঙা হল শ্যামাপ্রসাদ মুখোপাধ্যায়ের মূর্তি

ত্রিপুরা ও তামিলনাড়ুর পর ভারতের পশ্চিমবঙ্গেও মূর্তি ভাঙার ঘটনা ঘটল। কলকাতায় পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রীর বাড়ির কয়েকশো মিটারের মধ্যে বুধবার সকালে প্রকাশ্যে ভাঙা হল শ্যামাপ্রসাদ মুখোপাধ্যায়ের মূর্তি। কেওড়াতলা শ্মশান সংলগ্ন সিআর দাস পার্কে বুধবার সকালে এই ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় সাত তরুণ-তরুণীকে গ্রেপ্তার করেছে টালিগঞ্জ থানার পুলিশ। আটককৃতরা নিজেদের যাদবপুর বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রছাত্রী বলে দাবি করেছেন। আনন্দবাজার এক প্রতিবেদনে বলছে, সাত তরুণ-তরুণী হঠাৎ পার্কে ঢুকে হাতুড়ি দিয়ে ভাঙতে থাকেন শ্যামাপ্রসাদের আবক্ষ প্রস্তরমূর্তিতে। মুখের বেশ খানিকটা অংশ ক্ষতবিক্ষত হয়ে যায়। মূর্তিতে কালিও মাখিয়ে দেন তাঁরা। প্রত্যক্ষদর্শীরা জানিয়েছেন, সকাল আটটার দিকে স্লোগান দিতে দিতে পার্কের গেট টপকে ভেতরে ঢোকেন সাত তরুণ-তরুণী। তাদের হাতে ছিল পোস্টার। পার্কের ভেতরে শ্যামাপ্রসাদের মূর্তির সামনে এসে স্লোগান দিতে দিতে ছেনি-হাতুড়ি দিয়ে মূর্তিটি ভাঙতে শুরু করেন তারা। বেশ খানিকটা ভাঙাভাঙির পর মূর্তিতে কালি লেপে দেন। ত্রিপুরায় লেনিনের মূর্তি ভাঙার প্রতিক্রিয়া দেখাতেই শ্যামাপ্রসাদের মূর্তি ভাঙা হয়েছে বলে ধারণা পুলিশের। ঘটনাস্থলে যে পোস্টার মিলেছে তার নিচে নামের একটি সংগঠনের নাম লেখা ছিল। রাজ্য সরকার এবং প্রশাসনের পক্ষ থেকে এই ঘটনার তীব্র প্রতিক্রিয়া জানানো হয়েছে। কলকাতার পুলিশ কমিশনার রাজীব কুমার জানিয়েছেন, আটকদের বিরুদ্ধে কড়া আইনি পদক্ষেপ করা হবে। এ ধরনের তাণ্ডব কোনও মতেই বরদাস্ত করা হবে না। এদিকে মূর্তি ভাঙার খবর পেয়েই ঘটনাস্থলে যান স্থানীয় বিধায়ক এবং মন্ত্রী শোভনদেব চট্টোপাধ্যায় এবং স্থানীয় কাউন্সিলর মালা রায়। দুইজনেই এই ঘটনার নিন্দা জানান। শোভনদেব বলেন, এটা কোনো রাজনৈতিক দলের সংস্কৃতি হতে পারে না। লেনিনের মূর্তি ভাঙার প্রতিবাদে শ্যামাপ্রসাদের মূর্তি ভাঙব, এটা কোনও যুক্তি হতে পারে না। এই ধরনের অপপ্রয়াস রুখে দেব। সম্প্রতি ভারতের ত্রিপুরা রাজ্য নির্বাচনে জয়লাভ করেছে কেন্দ্রীয় সরকার নরেন্দ্র মোদির দল বিজেপি। আর এর মাধ্যমে ক্ষমতায় থাকা বামদের পতন হয়েছে। এরপরই সেখানে বিরাট লেলিন মূর্তি বুলডোজার দিয়ে গুড়িয়ে দেয় বিজেপি সমর্থকরা। এ ঘটনার সমালোচনা শেষ হতে না হতেই তামিলনাড়ুতে অবস্থিত দ্রাবিড় নেতা পেরিয়ার ইভা রামাস্বামীর মুর্তি ভেঙে ফেলা হয়। মঙ্গলবার রাতে তামিলনাড়ুর তিরুপাত্তুর শহরের এ মূর্তিতে হামলার ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় এক বিজেপি নেতাসহ দুজনকে আটক করেছে তামিলনাড়ু পুলিশ। এইচ রাজা নামের এক বিজেপি নেতার টুইট থেকে এ হামলার ঘটনা ঘটেছে বলে মনে করছে পুলিশ। এদিকে বিভিন্ন জায়গায় এসব মূর্তি ভাঙার ঘটনায় অসন্তোষ প্রকাশ করেছেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। তিনি এ ঘটনার নিন্দা জানিয়ে দোষীদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির অনুরোধ করেন। লেনিনের মূর্তি ভাঙার পর মোদী সরকারের প্রতি ইঙ্গিত করে পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বলেন, মূর্তিভাঙা গণতন্ত্রে নির্বাচিত দলের কাজ নয়। বামদের পক্ষে নয় জানিয়ে মমতা বলেন, আমি সিপিএমের পক্ষে নই, মার্ক্স বা লেনিন আমার নেতা নন। কিন্তু লেনিন, মার্ক্স একটা ব্যক্তিত্ব। গণতন্ত্র মানে জবরদখল নয়।

আন্তর্জাতিক পাতার আরো খবর