প্রকাশ : 2018-03-14

আজ বিকেলে ভারতের মুখোমুখি হচ্ছে বাংলাদেশ

সহজ সমীকরণ নিয়েই বুধবার কলম্বোর প্রেমাদাসা স্টেডিয়ামে ভারতের বিপক্ষে মাঠে নামবে বাংলাদেশ। হারলে প্রতিপক্ষ ফাইনালে। আর জিতলে নিজেরাই এক পা দিয়ে রাখবে ফাইনালে। ফাইনালিস্ট নির্ধারিত হবে বাংলাদেশ-শ্রীলঙ্কা শেষ ম্যাচে। তবে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে আগের ম্যাচেই দুর্দান্ত জয় তুলে নেয়া বাংলাদেশের চোখ ফাইনালের দিকেই। আর দুই ম্যাচে টানা জয় পেয়ে উজ্জীবিত ভারতও। ৬ উইকেটে হার দিয়েই ভারতের বিপক্ষে নিদাহাস ট্রফি শুরু করেছিল বাংলাদেশ। কিন্তু শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে রেকর্ডগড়া জয় দিয়ে ঘুরে দাঁড়ানো বাংলাদেশের লক্ষ্য শুধুই ফাইনাল। মঙ্গলবারের সংবাদ সম্মেলনে মাহমুদউল্লাহ সেই স্বপ্নের কথা জানিয়ে বললেন, আমরা এই সফরে আসার আগেই আমাদের মনের মধ্যে গেঁথে নিয়েছিলাম যে আমরা ফাইনালে খেলবো। লক্ষ্য সব সময় জয়। তিনি বলেন, শেষ ম্যাচে জয়ের পর অনেক কিছু করে ফেলেছি এমন নয়, আমরা আমাদের পা মাটিতেই রাখছি। আমাদের টি-টুয়েন্টি স্কিল নিয়ে অনেক প্রশ্ন ছিল। আমি আশা করি আমরা তা দূর করতে পারবো ভালোভাবে। কিন্তু বৈচিত্র্যময় ভারতীয় বোলিং টাইগারদের কিছুটা ভাবাচ্ছে জানিয়ে মাহমুদউল্লাহ বলেন, ভারতীয় বোলাররা তাদের বলের গতিতে তারতম্য এনেছে, বিশেষ করে পেসাররা। তারা যখন ধীরে বল করছে টার্ন আদায় করে নিচ্ছে। পেসাররা গতির তারতম্য ঘটাচ্ছে। আমাদের এই বিষয়গুলো নিয়ে ভাবতে হবে। তবে বাংলাদেশি ব্যান্ড এর ক্রিকেট খেলে ভারতকে হারিয়ে ফাইনালের পথে এগিয়ে যাওয়ার প্রত্যয় ব্যক্ত করলেন টাইগারদের অধিনায়ক মাহমুদউল্লাহ। নিদাহাস ট্রফির ৩ ম্যাচের ২টিতে জিতলেও নিজেদের অধিনায়কের অফ-ফর্ম নিয়ে দুশ্চিন্তা রয়েছে ভারতের। শিখর ধাওয়ান দারুণ ফর্মে থাকলেও সুরেশ রায়না বড় করতে পারছেন না ইনিংস। সর্বশেষ ম্যাচে দিনেশ কার্তিক ২৫ বলে ৩৯ করেছেন। মনিশ পান্ডে মিডল অর্ডারে স্বস্তি দিচ্ছেন। তবে বোলিংয়ে জয়দেব উনাদকাট তিন ম্যাচ খেললেও রান দিয়েছেন বেশি। শেষ দুই ম্যাচে শারদুল ভালো করেছেন। বৈচিত্র্যে ভালো করছেন বিজয়। শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে দুই ম্যাচেই বেশি বেশি রান দিয়েছেন স্পিনার যুজবেন্দ্র চাহাল। স্পিনার ওয়াশিংটন সুন্দর প্রত্যেক ম্যাচে পাওয়ার প্লেতে আসছেন। সব মিলিয়ে বাংলাদেশের বিপক্ষে জিতে সহজ পথেই ফাইনাল নিশ্চিত করতে চাইবে টি-টুয়েন্টি সংস্করণের প্রথম বিশ্বচ্যাম্পিয়নরা।