ব্রেকিং নিউজ


add_27
কালোবাজারে টিকিট বিক্রি ঠেকাতে সক্রিয় আইনশৃঙ্খলা বাহিনী

১৬ এপ্রিল ২০২২, ডেস্ক রিপোর্ট, নিউজ একাত্তর ডট কম :ঈদুল ফিতর উপলক্ষে বাস, ট্রেন ও লঞ্চের অগ্রিম টিকিট বিক্রি শুরু হতে যাচ্ছে। ইতোমধ্যে বাসের অগ্রিম টিকিট বিক্রি শুরু হয়েছে। আগামী ২৩ এপ্রিল থেকে ট্রেনের অগ্রিম টিকিট বিক্রি হবে। প্রায় একই সময়ে লঞ্চ টার্মিনালে অগ্রিম টিকিট বিক্রি শুরু হবে। এই অগ্রিম টিকিট বিক্রির সময় সক্রিয় হয়ে ওঠে কালোবাজারিরা। কাউন্টারগুলোতে টিকিট পাওয়া যায় না। অসাধু কর্মকর্তা-কর্মচারীদের যোগসাজশে কয়েক গুণ বেশি দামে টিকিট বিক্রি করে কালোবাজারিরা। কালোবাজারে টিকিট বিক্রি ঠেকাতে এবার সক্রিয় হয়ে উঠেছে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী। ইতোমধ্যে ঢাকার পুলিশ কমিশনার এ সংক্রান্ত একটি চিঠি ইস্যু করে টিকিট কালোবাজারি ঠেকাতে সংশ্লিষ্ট থানা পুলিশ ও গোয়েন্দাদের নির্দেশনা দিয়েছেন। ঢাকা মহানগর গোয়েন্দা পুলিশের যুগ্ম-কমিশনার হারুণ অর রশিদ বলেন, ‘ঈদকে কেন্দ্র করে ঘরমুখো মানুষ যাতে টিকেট কালোবাজারির খপ্পরে না পড়ে সেজন্য থানা পুলিশের পাশাপাশি গোয়েন্দা পুলিশও কাজ করছে। বাস, লঞ্চ ও রেল স্টেশনে আমরা নজরদারি রাখছি। এছাড়া অনলাইনে আমাদের নজরদারি রয়েছে। কেউ যাতে কালোবাজারি টিকিট অনলাইনে বিক্রি করতে না পারে সেজন্য আইনশৃঙ্খলা বাহিনী তৎপর রয়েছে।’ জানা গেছে, সবচেয়ে টিকিট কালোবাজারি বেশি হয়ে রেলওয়ে স্টেশনে। সড়কে যানজট ও নির্মাণ কাজ চলার কারণে যাত্রীরা বিভিন্ন রেলওয়ে স্টেশনে হুমড়ি খেয়ে পড়ে। রেলের টিকিটের চাহিদা বেশি থাকায় সারাবছরই স্টেশনগুলোকে কেন্দ্র করে কালোবাজারিরা সক্রিয় থাকে। ঈদের সময় এই চক্র আরও বেশি সক্রিয় হয়। যদিও চলতি বছর রেল কর্তৃপক্ষ রেলের টিকিট সংগ্রহের ক্ষেত্রে জাতীয় পরিচয়পত্র দেখানোকে বাধ্যতামূলক করেছেন। ঢাকার কমলাপুর রেলওয়ে স্টেশনের ওসি মাজহারুল ইসলাম গণমাধ্যকে বলেন, ‘আমরা কমলাপুর রেলওয়ে স্টেশনে সার্বক্ষণিক নজরদারি রাখছি। কেউ যাতে টিকিট কালোবাজারি করতে না পারে সেজন্য ২৪ ঘণ্টাই নজরদারি রাখা হয়। ঈদ উপলক্ষে এই নজরদারি আরও বাড়ানো হচ্ছে। আমরা চাই, ঈদে ঘরমুখো মানুষ যেন কোনও হয়রানির শিকার না হয়।’

add_28

নিউজটি শেয়ার করুন

Facebook
এ জাতীয় আরো খবর..
add_29
সর্বশেষ আপডেট
জনপ্রিয় সংবাদ

add_30
add_31
add_32

সংবাদ শিরোনাম ::