মঙ্গলবার, মে ১৮, ২০২১
চট্টগ্রামে পুলিশের- ফ্রি ইফতার এন্ড সেহেরি শপ চালু
১৫,এপ্রিল,বৃহস্পতিবার,নিউজ ডেস্ক,নিউজ একাত্তর ডট কম: পবিত্র রমজান উপলক্ষে চট্টগ্রামে নিম্ন আয়ের মানুষ ও হাসপাতালের রোগী এবং স্বজনদের জন্য ব্যতিক্রমী এক দোকান চালু করেছে পুলিশ। দোকান হলেও এখানে ইফতার ও সেহেরির জন্য কোন টাকা লাগবে না এবং বিনামূল্যে সরবরাহ করা হবে। ইফতার ও সেহেরির এ দোকানের নাম দেওয়া হয়েছে- ফ্রি ইফতার এন্ড সেহেরি শপ। চট্টগ্রামের ডবলমুরিং মডেল থানার উদ্যোগে আগ্রাবাদ মা ও শিশু হাসপাতালের দ্বিতীয় গেইট সংলগ্ন মাসব্যাপী এ আয়োজনের ব্যবস্থা করা হয়। বুধবার (১৪ এপ্রিল) বিকেলে চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন পুলিশের উপ-কমিশনার (পশ্চিম) আব্দুল ওয়ারীশ আনুষ্ঠানিকভাবে মাসব্যাপী এ শপের উদ্বোধন করেন। এসময় আরও উপস্থিত ছিলেন অতিরিক্ত উপ-কমিশনার (পশ্চিম) পলাশ কান্তি নাথ, সহকারী কমিশনার শ্রীমা চাকমা, মা ও শিশু হাসপাতালের পরিচালনা পরিষদের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি এস এম মোরশেদ হোসেন, দাতা সদস্য ইঞ্জিনিয়ার মো. জাবেদ আবছার চৌধুরী, সদস্য এড. এম আহছান উল্লাহ, মো. সগীর, পরিচালক (প্রশাসন) ডা. নুরুল হক এবং উপ পরিচালক (প্রশাসন) ডা. এম আশরাফুল করিমসহ প্রমুখ। হাসপাতাল পরিচালনা পরিষদের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি এস এম মোরশেদ হোসেন ডবলমুরিং মডেল থানার উদ্যোগে পুরো রমজান মাস ব্যাপী ফ্রি ইফতার এন্ড সেহেরি শপ চালু করার জন্য ধন্যবাদ জ্ঞাপন করেন এবং এই মহতী কর্মে সচ্ছল এবং বিত্তবানদের এগিয়ে আসার জন্য আহবান জানান। চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন পুলিশের উপ-কমিশনার (পশ্চিম) আব্দুল ওয়ারীশ বলেন, রোজায় হাসপাতালে রোগীর সাথে থাকা স্বজনরা ইফতার ও সেহেরির জন্য কষ্ট পান। আবার লকডাউনের কারণে নিম্ন আয়ের মানুষেরও কিছুটা কষ্ট হচ্ছে। তাদের কষ্ট কিছুটা লাঘবের চেষ্টায় এই উদ্যোগ। আমরা চাই আমাদের এই উদ্যোগে অন্যরাও উৎসাহিত হোক, এগিয়ে আসুক। ডবলমুরিং থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো: মহসীন জানান, দুই পর্যায়ে কাজ করবে এই- ফ্রি ইফতার এন্ড সেহেরি শপ। প্রথম পর্যায়ে তৈরি ইফতার ও সেহেরি বিতরণ করা হচ্ছে। একই সময়ে দ্বিতীয় পর্যায়েরও প্রস্তুতি চলছে। এই পর্যায়ে ইফতার ও সেহেরি সামগ্রী বিনামূল্যে প্রদান করবে এই শপ। প্রাথমিক পর্যায়ে প্রতিদিন ৩০০ মানুষের ইফতার ও সেহেরির ব্যবস্থা করা হচ্ছে। প্রয়োজন অনুযায়ী এটা আরও বাড়ানো হবে। ডবলমুরিং থানার এই উদ্যোগে অর্থায়ন করছে থানার কর্মকর্তারাই। তবে অন্য যে কেউ চাইলেই মাসব্যাপী এই উদ্যোগে অন্তর্ভুক্ত হতে পারবেন বলে জানিয়েছেন ওসি মহসীন।
এবিএম মহিউদ্দিন চৌধুরী ফাউন্ডেশনের ইফতার বিতরণ
১৫,এপ্রিল,বৃহস্পতিবার,নিউজ ডেস্ক,নিউজ একাত্তর ডট কম: পবিত্র রমজান উপলক্ষে প্রতিবছরের মতো এবারও চট্টগ্রাম নগর আওয়ামী লীগের সাবেক সভাপতি, চট্টলবীর এবিএম মহিউদ্দিন চৌধুরী ফাউন্ডেশনের উদ্যোগে রান্না করা ইফতার বিতরণ করা হয়েছে। বুধবার (১৪ এপ্রিল) বিকেলে ফাউন্ডেশনের উদ্যোক্তা মরহুমের ছোট ছেলে বোরহানুল হাসান চৌধুরী সালেহীন নগরের প্রিমিয়ার বিশ্ববিদ্যালয় থেকে ইফতার বিতরণ কার্যক্রমের সূচনা করেন। এ সময় তিনি বলেন, আমার বাবা প্রয়াত মহিউদ্দিন চৌধুরী প্রতিবছর ইফতারের আয়োজন করতেন। তিনি মানুষদের খাওয়ানো পছন্দ করতেন। আমরাও বাবার পছন্দনীয় কাজগুলোর মধ্যে বাবাকে খুঁজে পাই। এ চট্টগ্রামের প্রতিটি ধূলিকণা থেকে শুরু করে প্রতিটি মানুষের সঙ্গে আত্মার একটি সম্পর্ক আছে। এরপর কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের সাবেক সহ-সম্পাদক ও ওমরগনি এমইএস কলেজ ছাত্রলীগ সভাপতি হাবিবুর রহমান তারেকসহ ছাত্রলীগ নেতারা নাসিরাবাদের চৌধুরী বাড়ি, আজিজ ভিলা, শহর আলীর বাড়ি, আপন নিবাসের আশপাশের বাড়ি ও বস্তিতে এবং ষোলশহর, জিইসির মোড়ে রান্না করা ইফতার বিতরণ করেন। প্রথম দিন প্রায় ৮০০ মানুষকে ইফতার দেওয়া হয়েছে। বিতরণকালে সহযোগিতা করেন ফাউন্ডেশনের কর্মকর্তা নাজিউর রহমান সিকদার অনিক, শাখাওয়াত হোসেন অপু, রমজান আলী, রিয়াদ হোসেন, মো. বাদশ প্রমুখ।
রমজানে গ্যাস, বিদ্যুৎ ও পানি সরবরাহ সুনিশ্চিত করতে হবে: খোরশেদ আলম সুজন
১৪,এপ্রিল,বুধবার,নিউজ ডেস্ক,নিউজ একাত্তর ডট কম: পবিত্র রমজান মাসে গ্যাস, বিদ্যুৎ ও পানি সরবরাহ সুনিশ্চিত করতে আহ্বান জানিয়েছেন চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনের সাবেক প্রশাসক ও নাগরিক উদ্যোগের প্রধান উপদেষ্টা খোরশেদ আলম সুজন। গতকাল মঙ্গলবার সকালে কর্ণফুলী গ্যাস ডিস্ট্রিবিউশন কোম্পানি লিমিটেড, চট্টগ্রাম ওয়াসা ও বিদ্যুৎ উন্নয়ন বোর্ড দক্ষিণাঞ্চলের প্রধান কর্মকর্তাদের সাথে এ বিষয়ে কথা বলেন সুজন। সেবা সংস্থাগুলোর উদ্দেশ্যে তিনি বলেন, লকডাউন কার্যকর করতে সরকার ইতোমধ্যে প্রয়োজনীয় দিকনির্দেশনা দিয়েছে। অন্যদিকে রমজান মাসও শুরু হচ্ছে। এই মাসে ধর্মপ্রাণ মুসলমানগণ ইবাদত বন্দেগীর মাধ্যমে আল্লাহর নৈকট্য লাভের চেষ্টা করে। তাই এ সময়ে নগরবাসীর দৈনন্দিন ব্যবহার্য গ্যাস, বিদ্যুৎ ও পানি সরবরাহ সুনিশ্চিত করা প্রয়োজন। তিনি বলেন, লকডাউনে মানুষ ঘরে থাকবে। কাজেই গ্যাস, বিদ্যুৎ ও পানি ব্যবহারের চাহিদা বেশি থাকবে। এ বিষয়টি মাথায় রাখতে হবে। লকডাউন ও রমজানকে কেন্দ্র করে নগরবাসীকে যেন ভোগান্তির সম্মুখীন হতে না হয়। সেবা সংস্থার প্রধানরা এ বিষয়ে তাকে আশ্বাস দেন। সুজন এদিন বাংলাদেশ টেলিভিশন, চট্টগ্রাম কেন্দ্রের জেনারেল ম্যানেজারের সাথেও কথা বলেন। লকডাউন চলাকালীন সময়ে দর্শকদের সুস্থ বিনোদন সরবরাহে করতে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিতে অনুরোধ জানান তিনি।
মুক্তিযোদ্ধা আবদুল মান্নানের ৮ম মৃত্যুবার্ষিকী আজ
১৪,এপ্রিল,বুধবার,নিজস্ব প্রতিবেদক,নিউজ একাত্তর ডট কম: আজ ১৪ এপ্রিল ১ বৈশাখ বাঁশখালী থানা মুক্তিযোদ্ধা সংসদের সাবেক কমান্ডার, চট্টগ্রাম মুক্তিযোদ্ধা পরিবার কল্যাণ সমবায় সমিতির প্রতিষ্ঠাতা সাধারণ সম্পাদক, যুদ্ধকালীন বিএলএফ (মুজিব বাহিনী)র অন্যতম কমান্ডার, বাঁশখালীর কৃতি সন্তান বীর মুক্তিযোদ্ধা মোঃ আবদুল মান্নান এর ৮ম মৃত্যুবার্ষিকী। এ উপলক্ষে মরহুমের গ্রামের বাড়ি বাঁশখালী উপজেলার বৈলগাঁও গ্রামে খতমে কোরআন , দোয়া মাহফিল, কবর জেয়ারত ও এতিম গরীবদের মাঝে খাবার বিতরণ সহ নানা কর্মসূচি অনুষ্ঠিত হবে। উল্লেখ্য, চট্টগ্রাম দক্ষিণ জেলা ছাত্রলীগের সাবেক আহবায়ক সালাউদ্দিন সাকিব এর পিতা মুক্তিযোদ্ধা আবদুল মান্নান ২০১৩ সালের এইদিনে ইহকাল ত্যাগ করেন। প্রসঙ্গত, দেশে যুদ্ধ শুরু হলে মুক্তিযোদ্ধা যুবকদের একটি গ্রুপ উচ্চ প্রশিক্ষণ গ্রহণের উদ্দেশ্যে ভারতে পাড়ি জমান। মুক্তিযোদ্ধা ডাঃ আবু ইউসুফ চৌধুরী, মুক্তিযোদ্ধা আবু সোলায়মান চৌধুরী (সাবেক মন্ত্রী পরিষদ সচিব), যুদ্ধাহত মুক্তিযোদ্ধা ছরোয়ার হোসাইন, মুক্তিযোদ্ধা এম এ রশিদ , কিবরিয়া চৌধুরী, এম ওয়াই এন জাকারিয়া ( সাবেক কাস্টমস কর্মকর্তা), সৈয়দ দিদারুল আলম চৌধুরী ( রাঙামাটি মোটরসর স্বত্বাধিকারী), মুক্তিযোদ্ধা আবুল কালাম সহ গ্রুপটি ভারত সরকারের প্রত্যক্ষ তত্ত্বাবধানে উত্তর প্রদেশের (বর্তমান উত্তরখন্ড) দেরাদুন জেলায় অবস্থিত কেন্দুয়ায় ইন্ডিয়া আর্মি ট্রেনিং একাডেমী থেকে সামরিক প্রশিক্ষণ গ্রহণ করেন। ট্রেনিং শেষ করে দেশে প্রবেশকালে পাকিস্তান সেনাবাহিনীর সাথে বেশ ক'টি সম্মুখ যুদ্ধে লিপ্ত হতে হয় গ্রুপটির। পার্বত্য চট্টগ্রাম হয়ে রাঙ্গুনিয়ার যুদ্ধ স্মরণ কালের। এই যুদ্ধে অর্ধশতাধিক পাকিস্তানী আর্মি নিহত হয়েছিল। কাউখালী , যোগ্যাছোলা, মওরখীল, রাণীরহাট ও বোয়ালখালীতে হানাদার বাহিনী এবং রাজাকার দের সাথে যুদ্ধ করতে করতে মুক্তিযোদ্ধা মান্নান সহ দলটি বাঁশখালী আসেন। বাঁশখালীতে রাজাকারদের অন্যতম প্রধান ঘাটি গুনাগরী ওয়াপদাহ অফিসে স্থাপিত রাজাকার ক্যাম্পে এই গ্রুপটি অপারেশন চালিয়ে রাজাকারদের আত্মসমর্পণ করতে বাধ্য করে। ট্রেনিং নেওয়ার পুর্বেও এই মরহুম বীর মুক্তিযোদ্ধা বাঁশখালী সিও অফিস এবং সাধনপুর বোর্ডে অফিসে অপারেশনের সময় গুরুত্বপূর্ণ ভুমিকা পালন করেন। দেশ স্বাধীন হলে জনাব মান্নান তার কর্মস্থল সার্ভে অব পাকিস্তানে অর্থাৎ স্বাধীন বাংলাদেশের জরিপ বিভাগে ফিরে যান। জীবনে তিনি রাজনৈতিক সামাজিক কর্মকান্ড সহ একাধিক শিক্ষা প্রতিষ্ঠান পরিচালনার সাথে যুক্ত ছিলেন । মৃত্যুকালে বীর মুক্তিযোদ্ধার বয়স হয়েছিল ৬৫বছর। এই মহান বীর মুক্তিযোদ্ধার প্রতি অতল শ্রদ্ধা জানাই।
১২ এপ্রিল চকবাজার থানা ছাত্রলীগের লিফলেট ও মাস্ক বিতরণ
১৩,এপ্রিল,মঙ্গলবার,নিউজ ডেস্ক,নিউজ একাত্তর ডট কম: চকবাজার থানা ছাত্রলীগের উদ্যোগে থেকে নগরীর গুলজার মোড়, চকবাজার কাঁচা বাজার ও বিভিন্ন শপিং মলে জনসচেতনতা মূলক লিফলেট, মাস্ক বিতরণ ও মাইকিং করা হয়। এ সময় উপস্থিত ছিলেন সংগঠনের সভাপতি জাহেদুল ইসলাম, সাধারণ সম্পাদক জি এম তাওসীফ, সহ সভাপতি বন্ধন সেন, যুগ্ন-সাধারণ সম্পাদক জাহেদ হোসেন ফারুক সহ সংগঠনের অন্যান্য সদস্যরা। সংগঠনের সভাপতি জাহেদুল ইসলাম বলেন, শিক্ষা উপমন্ত্রী মহিবুল হাসান চৌধুরী নওফেল (এমপি) ও চট্টগ্রাম মহানগর ছাত্রলীগের নির্দেশনায় আমরা চকবাজার থানার আওতাধীন ওয়ার্ডসমূহে জনসচেতনতামূলক কার্যক্রম করোনা মহামারীর শুরু থেকেই অব্যাহত রেখেছি। সচেতনতার পাশাপাশি করোনা আক্রান্ত মানুষের যে কোন প্রয়োজন ও সহায়তায় চকবাজার থানা ছাত্রলীগ পাশে থেকে কাজ করে যাচ্ছে। জি.এম তাওসীফ বলেন, এই মহামারীতে আমরা গরীব জনগোষ্ঠীর যেকোন প্রয়োজনে সাহায্য, সহযোগিতা করে যাচ্ছি। করোনা আক্রান্ত রোগীদের অক্সিজেন, এম্বুলেন্স সহায়তা দেওয়ার জন্য ও আমরা প্রস্তুত রয়েছি।- প্রেস বিজ্ঞপ্তি
চট্টগ্রামে ২৪ ঘণ্টায় করোনা আক্রান্ত ৪৩১, মৃত্যু ৫
১৩,এপ্রিল,মঙ্গলবার,নিউজ ডেস্ক,নিউজ একাত্তর ডট কম: গত ২৪ ঘণ্টায় করোনা শনাক্ত হয়েছে ৪৩১ জনের। এ নিয়ে চট্টগ্রামে মোট আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়ালো ৪৫ হাজার ২৯১ জন। ২৪ ঘণ্টায় করোনায় মারা গেছেন পাঁচজন। মঙ্গলবার (১৩ এপ্রিল ) সকালে সিভিল সার্জন কার্যালয় থেকে প্রকাশিত প্রতিবেদনে এসব তথ্য জানা যায়। গত ২৪ ঘণ্টায় কক্সবাজার মেডিক্যাল কলেজ ল্যাবসহ চট্টগ্রামের ৮টি ল্যাবে ২ হাজার ৬২১টি নমুনা পরীক্ষা করা হয়। এর মধ্যে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় ল্যাবে ১৬৯টি, বাংলাদেশ ইনস্টিটিউট অব ট্রপিক্যাল অ্যান্ড ইনফেকশাস ডিজিজেস (বিআইটিআইডি) ল্যাবে ৬৭৯টি, চট্টগ্রাম মেডিক্যাল কলেজ (চমেক) ল্যাবে ৭৪৮টি এবং চট্টগ্রাম ভেটেরিনারি অ্যান্ড অ্যানিম্যাল সায়েন্সেস বিশ্ববিদ্যালয় (সিভাসু) ল্যাবে ৩১৩টি নমুনা পরীক্ষা করা হয়। এতে চবি ল্যাবে ৬২ জন, বিআইটিআইডি ল্যাবে ৭২ জন, চমেক ল্যাবে ৩৮ জন এবং সিভাসু ল্যাবে ৮৮ জন করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত রোগী শনাক্ত হয়েছেন। বেসরকারি ইম্পেরিয়াল হাসপাতাল ল্যাবে ২২৫টি নমুনা পরীক্ষা করে ৫৮ জন, শেভরন ক্লিনিক্যাল ল্যাবরেটরি ৪০২টি নমুনা পরীক্ষা করে ৭১ জন, চট্টগ্রাম মা ও শিশু হাসপাতাল ল্যাবে ৭৩টি নমুনা পরীক্ষা করে ৩৪ জন এবং জেনারেল হাসপাতালের রিজিওনাল টিবি রেফারেল ল্যাবরেটরিতে (আরটিআরএল) ৮টি নমুনা পরীক্ষা করে ৬ জনের শরীরে করোনা ভাইরাস শনাক্ত হয়েছে। কক্সবাজার মেডিক্যাল কলেজ ল্যাবে চট্টগ্রামে ৪ জনের নমুনা পরীক্ষা করে ২ জনের শরীরে করোনাভাইরাসের অস্তিত্ব পাওয়া যায়। চট্টগ্রামের সিভিল সার্জন ডা. সেখ ফজলে রাব্বি জানান, গত ২৪ ঘণ্টার নমুনা পরীক্ষায় ৪৩১ জন নতুন আক্রান্ত শনাক্ত হয়েছেন। নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে ২ হাজার ৬২১ জনের। নতুন আক্রান্তদের মধ্যে নগরের ৩৬২ জন এবং উপজেলার ৬৯ জন।
গতবারের মত চট্টগ্রামে এবারও থাকছে না বাংলা নববর্ষের কোনো আয়োজন
১২,এপ্রিল,সোমবার,নিউজ ডেস্ক,নিউজ একাত্তর ডট কম: করোনাভাইরাসের সংক্রমণ বেড়ে যাওয়ায় দেশে চলছে লকডাউন, যা ১৪ এপ্রিল থেকে আরও কঠোর হচ্ছে। বাংলা নববর্ষের প্রথম দিন ১৪ এপ্রিল। গতবারের মত চট্টগ্রামে এবারও থাকছে না বর্ষবরণের কোনো আয়োজন। করোনার সংক্রমণ বেড়ে যাওয়ায় বৈশাখের অনুষ্ঠান বাদ দেওয়া হয়েছে বলে জানিয়েছেন আয়োজকরা। তবে ভার্চুয়াল মাধ্যমে বিভিন্ন সামাজিক-সাংস্কৃতিক সংগঠন নানান অনুষ্ঠানের মাধ্যমে বরণ করে নেবে নতুন বছরকে। প্রতিবছর পহেলা বৈশাখকে ঘিরে নগরের ডিসি হিল, সিআরবি শিরীষতলা, চবি চারুকলা ইনস্টিটিউট, নেভাল-২, জেলা শিল্পকলা একাডেমিতে বর্ষবরণের বিভিন্ন আয়োজন থাকে। করোনার কারণে গত বছরের ন্যায় এবছরও এসব কর্মসূচি বন্ধ রেখেছেন আয়োজকরা। জেলা শিল্পকলা একাডেমির সাধারণ সম্পাদক সাইফুল আলম বাবু বলেন, খোলাস্থানে এবার পহেলা বৈশাখ উদযাপন করা হচ্ছে না। ছোট পরিসরে ভার্চুয়ালি ঘন্টাব্যাপি পহেলা বৈশাখ উদযাপন করা হবে।
দুস্থদের মাঝে বঙ্গবন্ধু যুব মহিলা পরিষদের ত্রাণসামগ্রী বিতরণ
১২,এপ্রিল,সোমবার,নিউজ ডেস্ক,নিউজ একাত্তর ডট কম: বিশ্ব মহামারী করোনাকালে চট্টগ্রাম সিটি মেয়র এম রেজাউল করিম চৌধুরীর পক্ষে ১৯নং ওয়ার্ড দক্ষিণ বাকলিয়ায় বঙ্গবন্ধু যুব মহিলা পরিষদের উদ্যোগে গত ১০ এপ্রিল বাকলিয়া থানা আওয়ামী লীগ নেতা ইসমাইল চৌধুরী সেলিমের অর্থায়নে নগরীর গরীব ও দুঃস্থদের মাঝে ত্রাণ সমাগ্রী বিরতণ করা হয়। এসময় উপস্থিত ছিলেন ১৯নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর নুরুল আলম মিয়া, যুব মহিলা পরিষদের সভাপতি বিবি ফাতেমা ববি ও সাধারণ সম্পাদক রিনা আক্তার, মহানগর যুবলীগ নেতা বখতেয়ার ফারুক, আরমান, মির্জা জাহিদ, ইমদাদুল হক শাওন, মহিলা নেত্রী তানিয়া আক্তার, জান্নাতুল ফেরদৌস, সানজিদা আক্তার, রুনা আক্তার, সুমাইয়া আক্তার, সীমা ইসহাক সহ ছাত্র লীগ, যুবলীগ ও শ্রমিক লীগের নেতৃবৃন্দ।- প্রেস বিজ্ঞপ্তি।
চট্টগ্রামে ৫ তলা ভবন হেলে ধসের ঝুঁকিতে
১১,এপ্রিল,রবিবার,নিউজ ডেস্ক,ঢাকা,নিউজ একাত্তর ডট কম: চট্টগ্রাম নগরীর এনায়েতবাজারে ধসের আশঙ্কায় পাঁচতলা একটি ভবনের বাসিন্দাদের নিরাপদে সরিয়ে নেয়া হয়েছে। এছাড়া সরিয়ে নেওয়া হয়েছে ওই ভবনসংলগ্ন বাসা ও দোকানপাটের লোকজনদেরও। শনিবার (১০ এপ্রিল) রাত ৮ টার দিকে নগরীর কোতোয়ালি থানার এনায়েতবাজার গোয়ালপাড়া এলাকায় ভবনটি ধসের আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে। পুলিশ ও ফায়ার সার্ভিসের কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, ভবনটি হেলে গিয়ে ঝুঁকিপূর্ণ অবস্থায় আছে। পাঁচতলা ভবনটির মালিক ওই এলাকার বাসিন্দা কার্তিক ঘোষ বলে জানিয়েছে পুলিশ। ঘটনাস্থলে থাকা নগর পুলিশের সহকারী কমিশনার (কোতোয়ালি জোন) নোবেল চাকমা বলেন, ভবনটিতে পাঁচটি পরিবার বসবাস করে। এ অবস্থায় ভবনের নিচে পিলার সংস্কারের কাজ শুরু করেন মালিক। কয়েকটি পিলারের একাংশ ভেঙে ফেলায় ভবনটি নড়বড়ে হয়ে হেলে গেছে। এতে আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে। নোবেল চাকমা জানান, ভবনের সব বাসিন্দাদের সরিয়ে নেওয়া হয়েছে। সংলগ্ন আরেকটি পাঁচতলা ভবন আছে। তাদেরও সরানো হয়েছে। ভবনের নিচে কয়েকটি সেমিপাকা দোকান আছে। সেগুলো বন্ধ করে দিয়ে লোকজন সরানো হয়েছে। এদিকে খবর পেয়ে ফায়ার সার্ভিসের টিম ঘটনাস্থলে যায়। ফায়ার সার্ভিসের তত্ত্বাবধানে এ কার্যক্রম চলছে বলে জানান পুলিশের সহকারী কমিশনার।

সর্বশেষ সংবাদ