মঙ্গলবার, মে ১৮, ২০২১
ভালুকায় যুবকের মরদেহ উদ্ধার
৩০এপ্রিল,বৃহস্পতিবার,মো.মোকছেদুর রহমান মামুন,ভালুকা প্রতিনিধি,নিউজ একাত্তর ডট কম: ময়মনসিংহের ভালুকায় হৃদয় চন্দ্র বর্মণ (২০) নামে এক যুবকের মরদেহ উদ্ধার করেছে মডেল থানা পুলিশ। সকাল ১১ টার দিকে উপজেলার কাদিগড় জাতীয় উদ্যান থেকে মরদেহটি উদ্ধার করা হয়। ভালুকা মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ মোহাম্মদ মাইন উদ্দিন জানান, সকালে উপজেলার কাচিনা ইউনিয়নের কাদিগড় জাতীয় উদ্যানের ভিতরে গাছের সাথে ঝুলন্ত অবস্থায় হৃদয় চন্দ্র বর্মণের মরদেহ দেখতে পায় এলাকাবাসী। পরে তারা পুলিশকে খবর দিলে, মরদেহ উদ্ধার করা হয়। ময়নাতদন্তের জন্য মরদেহটি ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হবে। নিহত হৃদয় চন্দ্র বর্মণ উপজেলার পালগাঁও গ্রামের কৃষ্ণচন্দ্র বর্মণের ছেলে।
অসহায় হিজড়া ও বেদে সম্প্রদায়ের পাশে চট্টগ্রাম জেলা পুলিশ
২৯এপ্রিল,বুধবার,নিজস্ব প্রতিবেদক,নিউজ একাত্তর ডট কম: জনসমাগম তথা হাটবাজারে সাপের খেলা দেখিয়েই পেট চলে বেদে সম্প্রদায়ের। দুমুঠো ভাতের আশায় মেয়েরাও ঝুলি নিয়ে ঘুরে বাড়ি বাড়ি। করোনার প্রভাবে এখন বন্ধ তাদের আয়-রোজগার। তৃতীয় লিঙ্গের (হিজড়া) জনগোষ্ঠিও জীবিকা নির্বাহ করে রাস্তাঘাটে পথচারী কিংবা বিভিন্ন ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে চেয়ে, হাত পেতে। করোনার প্রভাবে সারাবিশ্বের মতো এদেশেও যখন জীবনের কোলাহল থেমে অর্থনৈতিক কর্মকান্ড থমকে গেছে তখন এই বেদে ও হিজড়া জনগোষ্ঠীও পড়েছে মহাবিপাকে। বিষয়টি নজরে এলে মানবতার ডাকে সাড়া দিয়ে তাদের জন্য নিত্য প্রয়োজনীয় খাদ্য সামগ্রী পাঠালেন চট্টগ্রাম জেলা পুলিশ সুপার এস এম রশিদুল হক, পিপিএম-সেবা। আজ ২৯ এপ্রিল জোরারগঞ্জ থানা এলাকার হিজড়া ও বেদেপল্লীর ২৩০ পরিবারের মাঝে এ খাদ্য সামগ্রী বিতরণ করেন অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (উত্তর) মো: মশিউদ্দৌলা রেজা, পিপিএম(বার)। এ সময় মিরসরাই সার্কেলের সহকারী পুলিশ সুপার শামসুদ্দিন ছালেহ আহম্মদ চৌধুরী এবং জোরারগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ মফিজ উদ্দিন ভূঁইয়া উপস্থিত ছিলেন।
সরাসরি কৃষকের কাছ থেকে ধান কেনা হবে : কৃষিমন্ত্রী
২৯এপ্রিল,বুধবার,আহম্মেদ বিন জাবেদ,সিলেট বিশেষ প্রতিনিধি,নিউজ একাত্তর ডট কম: কৃষিমন্ত্রী ড. আব্দুর রাজ্জাক বলেছেন, ধান ক্রয় কার্যক্রমে কোনো ধরণের অনিয়ম হবে না। কোনো মধ্যসত্বভোগী আসবে না। আসার সুযোগ নেই। তিনি বলেন, আমরা কৃষি মন্ত্রণালয় থেকে ক্ষুদ্র ও প্রান্তিক চাষীদের একটা তালিকা করে দিয়েছি। তালিকাভুক্ত কৃষকদের মধ্যে লটারীর হবে। সেই লটারীতে কেউ প্রভাব ফেলতে পারবে না। ডিসি, ইউএনও, জেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক, জেলা কৃষি অফিসারের মাধ্যমে ধান ক্রয় কার্যক্রম মনিটরিং করা হবে। এ ফসলের মাধ্যমে ২২টি জেলা থেকে ধান কেনার উদ্যোগ নেয়া হচ্ছে। ৮ লাখ মে.টন সরাসরি কৃষকের কাছ থেকে কেনা হবে। কৃষকরা ন্যায্যমূল্যে ধান বিক্রয় করে লাভবান হবে। সুনামগঞ্জের ১১ উপজেলায় ২৫ হাজার ৮৬৬ মে.টন ধান ক্রয় করবে সরকার। বুধবার দুপুরে সুনামগঞ্জ সদর উপজেলায় লালপুর এলাকায় স্থানীয় কৃষকের কাছ থেকে ধানক্রয় কার্যক্রম উদ্বোধনকালে তিনি এসব কথা বলেন। মন্ত্রী বলেন, সুনামগঞ্জে প্রায় ৭৫ ভাগ ধান কাটা শেষ হয়েছে। এবার ধানের ফলন ভালো হয়েছে। সরকারিভাবে কৃষকের কাছ থেকে ২৫৮৬৬ মে.টন ধান, ১৪৬৮৭ মেট্রিক টন সিদ্ধ চান এবং ১৪৩০৯টন আতপ চাল ক্রয় করবে সরকার। সুনামগঞ্জে কৃষকের চাহিদা অনুযায়ী ধান ক্রয়ের পরিমাণ অপ্রতুল সাংবাদিকদের এমন প্রশ্নে মন্ত্রী বলেন, মন্ত্রণালয়ে আলোচনা করে ক্রয় চাহিদা বাড়ানোর ক্ষেত্রে সিদ্ধান্ত গ্রহণ করার কথা জানান তিনি। এসময় আরও উপস্থিত ছিলেন, পরিকল্পনা মন্ত্রী এম এ মান্নান, বিরোধী দলীয় হুইপ পীর ফজলুর রহমান মিসবাহ, সংসদ সদস্য মহিবুর রহমান মানিক, ইঞ্জিনিয়ার মোয়াজ্জেম হোসেন রতন, মহিলা সংসদ সদস্য শামিমা শাহরিয়া, পৌর মেয়র নাদের বখত, জেলা প্রশাসক আব্দুল আহাদ, পুলিশ সুপার মিজানুর রহমান, জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ব্যারিস্টার এম এনামুল কবির ইমন, জেলা কৃষি সম্প্রশারণ অধিদফতরের উপ-পরিচালক সফর আলী, সদর উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান খায়রুল হুদা চপল, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ইয়াছমিন নাহার রুমা প্রমুখ।
রোজাদার ধান কাটার শ্রমিক ও কৃষকদের ইফতার সামগ্রী দিলেন শ্রমিকলীগ নেতা
২৮এপ্রিল,মঙ্গলবার,দিলাল আহমদ,সুনামঞ্জ প্রতিনিধি,নিউজ একাত্তর ডট কম: পবিত্র রমজান মাস ও করোনাভাইরাসের কারণে অসহায় কৃষক ও শ্রমিকদের মধ্যে মাঠে ঘুরে ঘুরে ইফতার সামগ্রী প্রদান করছেন সুনামগঞ্জ জেলা জাতীয় শ্রমিকলীগের সভাপতি সেলিম আহমদ। মঙ্গলবার দুপুরে তাহিরপুর উপজেলার মাটিয়ান হাওর ও শনিবার হাওরে প্রায় ৭ শতাধিক কৃষক ও শ্রমিকদের মধ্যে এ সকল ইফতার সামগ্রী প্রদান করেন। জানাযায়, করোনা পরিস্থিতির মধ্যে ও সুনামঞ্জজেলার আগাম বন্যার সর্তকর্তা থাকায় দ্রুত গতিতে হাওরে ধান কাটা চলমান থাকায় এবং পবিত্র রমজান মাসে রোজা রেখে হাওরে কাজ করা কৃষকদের হাতে ১ কেজি খেজুর, ১ কেজি মাল্টা, ১ কেজি আপেল ও ট্যাংক তুলে দেন। প্রথম রমজান থেকে শুরু করে এখন পর্যন্ত প্রায় ২ হাজার কৃষক ও শ্রমিকদের মধ্যে এ ইফতার সামগ্রী পৌছে দিয়েছেন তিনি। এ ব্যাপারে জেলা জেলা শ্রমিকলীগের সভাপতি সেলিম আহমদ বলেন, করোনাভাইরাসের প্রাদুর্ভাবের কারণে অনেক শ্রমিক হাওরে ধান কাটতে গেলেও সঠিক সময়ে ঘরে ফিরতে পারেন না এবং সঠিক সময়ে ইফতার করতে পারে না তাই বিবেকের তাড়নায় রোজার প্রথম দিন থেকেই যা পারছি তা দেয়ার চেষ্টা করছি এবং পবিত্র ঈদুল ফিতর পর্যন্ত প্রত্যেক দিনই শ্রমিক ও কৃষকদের ভাইদের খাবার দেয়ার চেষ্টা করব।
কুমিল্লার ভিক্টোরিয়া হাসপাতাল লকডাউন,আক্রান্ত আরও ৫
২৮এপ্রিল,মঙ্গলবার,নিজস্ব প্রতিবেদক,নিউজ একাত্তর ডট কম: কুমিল্লায় নতুন করে একই পরিবারের ৪ জনসহ ৫ জনের করোনাভাইরাস আক্রান্ত হয়েছে। একই পরিবারের ওই ৪ সদস্য জেলার মুরাদনগরের বাসিন্দা। দিকে তিতাস উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডা. সফররাজ হোসেন খান জানিয়েছেন, উপজেলার শাহাবুদ্ধি গ্রামের আবদুল খালেক নামে এক ব্যক্তি ঢাকায় করোনা আক্রান্ত হয়ে মারা যান। তাঁকে শাহাবুদ্ধিতে দাফন করা হয়। সে ব্যক্তির ছেলের নমুনা নিয়েছিল তিতাস উপজেলার াস্বাস্থ্য কর্মকর্তারা। নমুনায় তাঁর পজেটিভ ফল আসে। তবে ওই ছেলে দাফনের পর আবারো ঢাকায় ফিরে যান । মঙ্গলবার দুপুরে এই তথ্য জানিয়েছেন জেলা সিভিল সার্জন ডা.নিয়াতুজ্জামান। জানাযায় .জেলার মুরাদনগর উপজেলার বাঙ্গরাবাজার থানার রামচন্দ্রপুর উত্তর ইউনিয়ন পরিষদের এক সদস্য কাঠালিয়াকান্দা গ্রামের বাসিন্দাএবং তার বাবা, মা ও ভাতিজার করোনা রিপোর্ট পজিটিভ এসেছে। জেলার মুরাদনগর উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. মুহাম্মদ নাজমুল আলম জানান, এই পর্যন্ত উপজেলায় ১১৪ জনের নমুনা সংগ্রহ করে রিপোর্টের জন্য প্রেরণ করা হয়েছে। এর মধ্যে রিপোর্ট পাওয়া গেছে ৬০জনের। যার মাঝে ৬টি পজিটিভ এসেছে। এদিকে, জেলা সিভিল সার্জন ডা.নিয়াতুজ্জামান জানান, মঙ্গলবার দুপুর পর্যন্ত কুমিল্লা জেলা থেকে ১৫২৬ জনের নমুনা সংগ্রহ করে রিপোর্টের জন্য প্রেরণ করা হয়েছে। এর মধ্যে রিপোর্ট পাওয়া গেছে ১২১৯ জনের। যার মধ্যে ৫২ জনের করোনা রিপোর্ট পজিটিভ এসেছে।এদিকে কুমিল্লা শহরের বাদুড়তলাস্থ ভিক্টোরিয়া হাসপাতাল লকডাউন করা হয়েছে। সন্দেহজনক এক ব্যক্তি হাসপাতালটির ৩০৪ নাম্বার কক্ষে ভর্তি আছেন। তার বাড়ি দেবীদ্বারের বাগুর গ্রামে। যেখানে করোনা আক্রান্ত রোগী রয়েছে। বিষয়টি নিশ্চিত করে ডেপুটি সিভিল সার্জন ডা. শাহাদাত হোসেন জানান, ওই ব্যক্তির শ্বাসকষ্ট ও নিউমোনিয়া রয়েছে। তাছাড়া করোনার লিঙ্কও আছে। দেবীদ্বারের বাগুর ও নবীয়াবাদ করোনা আক্রান্ত গ্রাম। সে কারনে হাসপাতালটি লকডাউন থাকবে। ওই ব্যক্তির নমুনা নেওয়া হচ্ছে। কোথায় কোথায় তিনি টেস্ট করেছেন তা খতিয়ে দেখা হবে।
মহাসড়ক অবরোধ করে পরিবহন শ্রমিকদের বিক্ষোভ
২৮এপ্রিল,মঙ্গলবার,নিজস্ব প্রতিবেদক,নিউজ একাত্তর ডট কম: করোনাভাইরাসের প্রাদুর্ভাব ঠেকাতে অঘোষিত লকডাউনের অংশ হিসেবে সরকারি, বেসরকারি প্রতিষ্ঠানসহ কয়েক দফায় বন্ধ রাখা হয়েছে গণপরিবহন। এতে করে প্রায় দুই মাস যাবৎ কর্মহীন হয়ে খাদ্য সংকটে পড়ায় খাবারের দাবিতে মহাসড়ক অবরোধ করে বিক্ষোভ করেছে পরিবহন শ্রমিকরা। মঙ্গলবার (২৮ এপ্রিল) সকালে ঢাকা-আরিচা মহাসড়কের সাভার থানা স্ট্যান্ড এলাকায় প্রায় অর্ধশতাধিক পরিবহন শ্রমিক মহাসড়ক অবরোধ করে এই বিক্ষোভ করেন। এসময় জরুরি সেবার বিভিন্ন পরিবহন আটকা পড়ে যায়। বিক্ষুব্ধ শ্রমিকরা জানান, করোনার দোহাই দিয়ে গণপরিবহন বন্ধ রাখা হয়েছে। অথচ শ্রমিকদের জন্য কোনো ব্যবস্থা নেওয়া হয় নাই। প্রায় দুই মাস ধরে পরিবহন শ্রমিকেরা কর্মহীন হয়ে চরম কষ্টে দিন যাপন করছেন। রাস্তায় ছোট ছোট অনেক পরিবহন চলছে, চালু করা হয়েছে পোশাক কারখানা সবকিছুই চলছে ঠিকঠাক কিন্তু পরিবহন চলতে দিচ্ছে না। পরিবহন না চলতে দিলে পর্যাপ্ত খাবার সরবরাহের দাবি জানান বিক্ষুব্ধ শ্রমিকরা। এ বিষয়ে সাভার মডেল থানার পুলিশ পরিদর্শক (অপারেশন) জাকারিয়া হোসেন বলেন, মহাসড়ক অবরোধ করে বিক্ষোভের খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে গিয়ে শ্রমিকদের বোঝানোর চেষ্টা করে পুলিশ। অবরোধের আধা ঘণ্টা পর পরিবহন মালিকদের সঙ্গে কথা বলার আশ্বাসে তারা রাস্তা ছেড়ে দেয়।
দীঘিনালায় গুলিতে ইউপিডিএফ সদস্যসহ নিহত ২
২৮এপ্রিল,মঙ্গলবার,নিজস্ব প্রতিবেদক,নিউজ একাত্তর ডট কম: খাগড়াছড়ি জেলার দীঘিনালা উপজেলার বানছড়ি প্রেসবাজারে প্রতিপক্ষের গুলিতে ইউনাইটেড পিপলস ডেমোক্রেটিক ফ্রন্ট (ইউপিডিএফ) প্রসিত গ্রুপের এক সদস্যসহ দুজন নিহত হয়েছেন। মঙ্গলবার (২৮ এপ্রিল) সকাল পোনে ৯টার দিকে এ ঘটনা ঘটে। খাগড়াছড়ির অতিরিক্ত পুলিশ সুপার এমএম সালাউদ্দিন বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, মরদেহ উদ্ধারের জন্য ঘটনাস্থলে পৌঁছেছেন পুলিশ সদস্যরা। নিহত দুজন হলেন, বাঙাল্লা চাকমা (৩৫) ও বাবুল চাকমা (৩০)। এরমধ্যে বাঙাল্লা চাকমা অটো রিকশাচালক এবং বাবুল চাকমা ইউপিডিএফ সদস্য। এ ব্যাপারে ইউনাইটেড পিপলস ডেমোক্রেটিক ফ্রন্ট (ইউপিডিএফ) প্রসিত গ্রুপের জেলা সংগঠক অংগ্য মারমা ঘটনার জন্য জনসংহতি সমিতির সংস্কার গ্রুপের সন্ত্রাসীদের দায়ী করেছেন। তিনি বলেন, সন্ত্রাসীদের গুলিতে এক ইউপিডিএফ সদস্য ছাড়াও টমটম চালক গ্রামবাসী মারা গেছেন। আমি এ ঘটনার নিন্দা ও প্রতিবাদ জানান।
কিশোরগঞ্জে এবার করোনা জয় করে সুস্থ হলেন এক চিকিৎসক
২৭এপ্রিল,সোমবার,মোনায়েম হোসেন,কিশোরগঞ্জ,নিউজ একাত্তর ডট কম: কিশোরগঞ্জে দ্বিতীয় ব্যক্তি হিসেবে এবার করোনাভাইরাসমুক্ত হয়েছেন একজন চিকিৎসক। ডা. আরিফ আহমেদ জনি নামে ওই চিকিৎসক করিমগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে কর্মরত রয়েছেন। কিশোরগঞ্জের সিভিল সার্জন ডা. মো. মুজিবুর রহমান বিষয়টি নিশ্চিত করে নিউজ একাত্তরকে জানান, গত ১২ এপ্রিল ডা. আরিফের নমুনা পরীক্ষার জন্য ঢাকার আইপিএইচ-এ পাঠানো হয়। ১৩ এপ্রিল পাওয়া রিপোর্টে তার কোভিড-১৯ পজেটিভ আসে। পরে তাকে শহীদ সৈয়দ নজরুল ইসলাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের আইসোলেশন ওয়ার্ডে ভর্তি করা হয়। শারীরিক অবস্থার উন্নতি হওয়ায় ডা. আরিফের নমুনা পুনরায় পরীক্ষার জন্য ঢাকায় পাঠানো হয়। পর পর দুটি নমুনা পরীক্ষায় তার কোভিড-১৯ নেগেটিভ আসায় সোমবার দুপুরে হাসপাতাল থেকে তাকে ছাড়পত্র দেয়া হয়েছে। সিভিল সার্জন ডা. মো. মুজিবুর রহমান আরও জানান, শহীদ সৈয়দ নজরুল ইসলাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের আইসোলেশন ওয়ার্ডে বর্তমানে ২৬ জন করোনা আক্রান্ত রোগী ভর্তি রয়েছেন। উল্লেখ্য, কিশোরগঞ্জ জেলায় রবিবার পর্যন্ত মোট ১৭৯ জন করোনা রোগী শনাক্ত হয়েছেন। এর মধ্যে প্রথম ব্যক্তি হিসেবে করোনাভাইরাসমুক্ত হন ইটনা সদর ইউনিয়নের সাবেক ইউপি সদস্য আব্দুর রশীদ।
ট্রাক থেকে গাঁজা-ফেনসিডিল উদ্ধার, আটক ২
২৭এপ্রিল,সোমবার,নিজস্ব প্রতিবেদক,নিউজ একাত্তর ডট কম: রংপুরের কাউনিয়ায় পাথর ভর্তি একটি ট্রাকে অভিযান চালিয়ে ৪৫ কেজি গাঁজা ও ১৭৬ বোতল ফেনসিডিল উদ্ধার করেছে RAB-13। এ ঘটনায় ট্রাকের চালক ও সহকারীকে আটক করা হয়েছে। সোমবার (২৭ এপ্রিল) দুপুরে গণমাধ্যমে পাঠানো এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানান সিপিএসপি RAB-13 এর ভারপ্রাপ্ত কোম্পানি কমান্ডার এএসপি আহসান হাবীব। বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে সোমবার ভোরে কাউনিয়া উপজেলার হলদিবাড়ী এলাকার সামনের একটি ফিলিং স্টেশনের কাছে রংপুর-লালমনিরহাট সড়কে অভিযান পরিচালনা করে RAB। এ সময় পাথর ভর্তি একটি ট্রাকে সু-কৌশলে রাখা ৪৫.৫ কেজি গাঁজা ও ১৭৬ বোতল ফেনসিডিল জব্দ করা হয়। এ ঘটনায় ট্রাক চালক শামীম ইসলাম (২২) ও চালকের সহকারী মশিয়ার রহমানকে (২০) আটক করা হয়। তাদের একজন লালমনিরহাটের পাটগ্রাম এবং অপরজন নীলফামারীর ডিমলা উপজেলার বাসিন্দা। অভিযানে ওই দু'জনের কাছ থেকে পাথরসহ ট্রাক, দুইটি মোবাইল ফোন, তিনটি সিম কার্ড, এবং মাদক বিক্রয়ের নগদ ৪৫০০ টাকা জব্দ করা হয়। RAB এর দাবি, গ্রেফতার শামীম ও মশিয়ার পেশাদার মাদক কারবারি। ভারতীয় সীমান্তের কাছাকাছি বাড়ি হওয়াতে তারা পরিবহন শ্রমিকের আড়ালে ওই এলাকাতে মাদক সিন্ডিকেটের সক্রিয় সদস্য হিসেবে কাজ করছে। মাদক চোরা চালান ও কারবারির কথাও স্বীকার করেছেন। ট্রাকটি লালমনিরহাটের বুড়িমারী স্থলবন্দর সীমান্ত থেকে পাথর বোঝাই করে ঢাকার উদ্দেশে আসার পথে হাতিবান্ধাতে বিশেষ কায়দায় ট্রাকে গাঁজা ও ফেনসিডিল পাথরের ভেতরে রাখা হয়। দেশের উত্তরাঞ্চলের সীমান্ত এলাকা থেকে সু-কৌশলে বিভিন্ন পণ্য পরিবহনের সঙ্গে মাদকের বড় বড় চালান এনে বিভিন্ন জায়গায় বিক্রি করতেন বলে প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে স্বীকার করেছেন।

সর্বশেষ সংবাদ

সারা দেশ পাতার আরো খবর